বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > সমকামিতা বুঝতে মনস্তত্ত্বিকের কাছে 'ক্লাস' করবেন মাদ্রাজ হাইকোর্টের বিচারপতি!
মাদ্রাজ হাইকোর্ট (ফাইল ছবি : এএনআই)
মাদ্রাজ হাইকোর্ট (ফাইল ছবি : এএনআই)

সমকামিতা বুঝতে মনস্তত্ত্বিকের কাছে 'ক্লাস' করবেন মাদ্রাজ হাইকোর্টের বিচারপতি!

  • বিচারপতির অকপট স্বীকারোক্তি, আমি সমকামিতা প্রসঙ্গে এতটা অবগত নই।

অভূতপ! শেখার কোনও শেষ নেই, এই প্রবাদটা ফের একবার প্রমাণিত করলেন মাদ্রাজ হাইকোর্টের বিচারপতি এন আনন্দ ভেঙ্কটেশ। সমকামিতা সংক্রান্ত একটি মামলা তাঁর এজলাশে রয়েছে। মামলার রায় দেওয়ার আগে বিচারপতির অকপট স্বীকারোক্তি, আমি সমকামিতা প্রসঙ্গে এতটা অবগত নই। আর তাই উপযুক্ত রায় দেওয়ার জন্যে 'ক্লাস' করতেও রাজি তিনি।

সমাকামিতা নিয়ে ধারণা স্পষ্ট করতে মনস্তত্ত্ববিদ বিদ্যা দিনাকরণের কাছে অ্যাপয়েন্টমেন্ট চাইলেন বিচারপতি এন আনন্দ ভেঙ্কটেশ। উল্লেখ্য, তাঁর এজলাসে এক লেসবিয়ান দম্পতির সুরক্ষা সংক্রান্ত মামলার শুনানি চলছে।

এই বিষয়ে বিচারপতি বলেন, 'মামলার রায় আমার হৃদয় থেকে আসা উচিত, আমার মস্তিষ্ক থেকে নয়। তবে আমি এই বিষয়ে পুরোপুরি অবগত নই, তাই আণার পক্ষে সঠিক রায় দিতে হলে আমাকে জানতে হবে। এই উদ্দেশ্যে, আমি বিদ্যা দিনাকরণের থেকে মনস্তাত্ত্বিক শিক্ষা পেতে চাই এবং তাই আমি তাঁকে অনুরোধ করছি যাতে তাঁর সুবিধা মতো তিনি একটি অ্যাপয়েন্টমেন্ট স্থির করেন।'

এই মামলার প্রেক্ষিতে এর আগে আদালত মামলাকারী লেসবিয়ান দম্পতি এবং তাঁদের অভিভাবকদের কাউন্সেলিংয়ের উপদেশ দিয়েছিল। এর প্রেক্ষিতে দম্পতির কাউন্সেলিং রিপোর্ট জমা পড়ে আদালতে, যাতে বলা হয়েছে যে নিজেদের সম্পর্কের বিষয়ে স্পষ্ট ধারণা রয়েছে মামলাকারীদের। তাঁরা নিজেদের অভিভাবকদেরও অনেক সম্মান করেন। তবে তাঁদের ভয় চাপের মুখে তাঁদের সম্পর্ক ভেঙে যেতে পারে। যা হলে মামলাকারীরা মানসিক ভাবে ভেঙে পড়বেন বলেও উল্লেখ করা হয় রিপোর্টে।

এদিকে রিপোর্টে বলা হয়েছে যে মামলাকারীদের অভিভাবকরা চান যাতে তাঁরা অভিবাহিত থাকেন। সেটা নাকি সমকামিতার থেকে বেশি সম্মানজনক। সমকামিতা নিয়ে অভিভাবকরা বিভ্রান্ত। এরপরই দুই পক্ষকেই ফের একবার কাউন্সেলিং করানোর নির্দেশ দিয়েছে আদালত। এই মামলার পরবর্তী শুনানি জুনের ৭ তারিখ।

 

বন্ধ করুন