বাড়ি > ঘরে বাইরে > মহারাষ্ট্রে ৩০ জুন পর্যন্ত তিন দফায় লকডাউন, ইউপি-তে খুলছে অফিস-বাজার, চলবে বাস
রবিবার বারাণসীতে গঙ্গার ঘাটে লকডাউনের শর্তাবলী জনস্বার্থে প্রচার করছে পুলিশ। ছবি: এএনআই। 
রবিবার বারাণসীতে গঙ্গার ঘাটে লকডাউনের শর্তাবলী জনস্বার্থে প্রচার করছে পুলিশ। ছবি: এএনআই। 

মহারাষ্ট্রে ৩০ জুন পর্যন্ত তিন দফায় লকডাউন, ইউপি-তে খুলছে অফিস-বাজার, চলবে বাস

  • গোটা জুন মাস লকডাউন জারি রাখল মহারাষ্ট্র সরকার। নিষেধাজ্ঞা শিথিল করার বিষয়ে কড়াকড়ি বজায় রাখল উত্তর প্রদেশও।

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক কন্টেনমেন্ট জোনে ৩০ জুন পর্যন্ত লকডাউনের মেয়াদ বাড়ানোর পরে রবিবার গোটা রাজ্যেই গোটা জুন মাস লকডাউন জারি রাখল মহারাষ্ট্র সরকার। নিষেধাজ্ঞা শিথিল করার বিষয়ে কড়াকড়ি বজায় রাখল উত্তর প্রদেশও।

মহারাষ্ট্রে করোনা রোধে লকডাউন বৃদ্ধির তিন দফার এই পর্বের নাম রাখা হয়েছে ‘মিশন বিগিন এগেন’, অর্থাৎ নতুন করে শুরু করার অভিযান। রাজ্য সরকারের নির্দেশিকায় জানানো হয়েছে, আগামী ৫ জুন থেকে সমস্ত বাজার, বাজার সংলগ্ন অঞ্চল ও দোকান সপ্তাহের জোড় ও বেজোড় সংখ্যার দিনের ভিত্তিতে সকাল ৯টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত খোলা থাকবে। তবে ছাড়ের তালিকায় রাখা হয়নি শপিং কমপ্লেক্স ও শপিং মল। 

এর তিন দিন পরে ৮ জুন থেকে খুলে যাবে সমস্ত বেসরকারি অফিস, তবে প্রয়োজন মেনে কর্মীসংখ্যা থাকবে মাত্র ১০%। জেলার ভিতরে চলাচল করতে দেওয়া হলেও অন্য জেলায় যেতে দেওয়া হবে না বেসরকারি বাস। 

জুনের ৩ তারিখ থেকে খুলে দেওয়া হবে স্পোর্টস কমপ্লেক্স ও স্টেডিয়ামগুলি। তবে নিষেধাজ্ঞায় এই সমস্ত ছাড় পাবে শুধুমাত্র মহারাষ্ট্রের ৯টি পুর নিগমের নিয়ন্ত্রণে থাকা মুম্বই মেট্রোপলিটান অঞ্চল। রেড জোনের অন্তর্ভুক্ত সমস্ত কন্টেনমেন্ট জোনে নিষেধাজ্ঞায় কোনও ছাড় দেওয়া হয়নি।

অন্য দিকে, উত্তর প্রদেশ সরকার রবিবার লকডাউনের পরবর্তী পর্ব সম্পর্কে নির্দেশিকা প্রকাশ করেছে। এই রাজ্যে সমস্ত সরকারি দফতর পূর্ণ ক্ষমতায় চালু করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। এ ছাড়া শর্ত সাপেক্ষে খুলে দেওয়া হচ্ছে সেলুন, বিউটি পার্লর ও সুপার মার্কেটগুলি। 

তবে দিল্লির কন্টেনমেন্ট জোন থেকে নয়ডা ও গাজিয়াবাদ থেকে কাউকে প্রবেশ করতে দেওয়া হবে না।  

বন্ধ করুন