বাড়ি > ঘরে বাইরে > বাড়ছে করোনা রোগীর সংখ্যা, অদূর ভবিষ্যতে অস্থায়ী হাসপাতাল বানাতে হবে-সুপ্রিম কোর্টে বলল কেন্দ্র
রেলের কোচকে আইসোলেশন ওয়ার্ড বানানো হয়েছে। 
রেলের কোচকে আইসোলেশন ওয়ার্ড বানানো হয়েছে। 

বাড়ছে করোনা রোগীর সংখ্যা, অদূর ভবিষ্যতে অস্থায়ী হাসপাতাল বানাতে হবে-সুপ্রিম কোর্টে বলল কেন্দ্র

দ্রুত কেস লোড বাড়বে, আশঙ্কা কেন্দ্রের। 

দ্রুত বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। এদের অনেককে হাসপাতালেও ভর্তি করতে হচ্ছে। কিন্তু দ্রুত কমে আসছে বেডের সংখ্যা। এই কারণে এবাস অস্থায়ী হাসপাতাল বানানোর দিকে হাঁটল কেন্দ্র। বৃহস্পতিবার সুপ্রিম কোর্টে এই কথা জানায় স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যান মন্ত্রক। মন্ত্রক বলেছে স্বাস্থ্যকর্মীদের রক্ষা করতে তারা সর্বদা বদ্ধপরিকর। 

একজন চিকিত্সকের দায়ের করা জনস্বার্থ মামলায় নিজেদের হলফনামায় এই কথা জানিয়েছে কেন্দ্র। আরুষি জৈন নামের এই মামলাকারীর দাবি যে স্বাস্থ্যকর্মীদের কাছে উপযুক্ত কিট নেই, কোয়ারেন্টাইন হওয়ার প্রয়োজনীয় পরিকাঠামো নেই। কেন বাধ্যতামূলক ১৪ দিনের কোয়ারেন্টাইন শুধু কিছু হাই রিস্ক স্বাস্থ্যকর্মীদের জন্য রাখা হচ্ছে, সেই নিয়েও প্রশ্ন করেন তিনি। 

হলফনামায় কেন্দ্র বলেছে যে বিশেষজ্ঞদের সঙ্গে কথা বলেই হাই রিস্ক ও লো রিস্কের মধ্যে ফারাক করা হয়েছে কারা কোভিড হাসপাতালে কাজ করছেন ও কারা করছেন না সেই ভিত্তিতে। আমেরিকাতেও এরকম পদ্ধতি অবনম্বন করা হয়েছে বলে জানায় কেন্দ্র। 

বর্তমান পরিস্থিতি নিয়ে কেন্দ্রের দাবি যে পিপিই পরলে ও ইনফেকশ নিয়ন্ত্রণের পদ্ধতি মেনে চললে ভয়ের কিছু নেই। কত মাস্ক ও পিপিই দেওয়া হয়েছে, তারও ফিরিস্তি দেয় কেন্দ্র। তবে আপাতত যে করোনা সংকট কাটবে না, সেটা কার্যত মেনে নিয়ে কেন্দ্র জানিয়েছে কিছুদিনের মধ্যেই অস্থায়ী হাসপাতাল বানাতে হবে করোনা রোগীদের ভর্তি করার জন্য। 

যেখানে রোগীর সংখ্যা হুহু করে বাড়বে, সেখানে স্বাস্থ্যকর্মীদের কীভাবে তরতাজা রাখা যায়, সেটা দেখভাল করতে কেন্দ্র বদ্ধপরিকর বলে হলফনামায় জানানো হয়েছে। আগামী ১২ তারিখ ফের তিন সদস্যের বেঞ্চ মামলাটি শুনবে। 

 

বন্ধ করুন