বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > ৫৮ বছরের ব্যক্তির প্রেমে পড়লেন আট বাচ্চার মা! স্বামীর বাড়ি ফিরতে অস্বীকার
আট সন্তানের মা প্রেমে পড়েছেন ৫৮ বছর বয়সি বিবাহিত ব্যক্তির।
আট সন্তানের মা প্রেমে পড়েছেন ৫৮ বছর বয়সি বিবাহিত ব্যক্তির।

৫৮ বছরের ব্যক্তির প্রেমে পড়লেন আট বাচ্চার মা! স্বামীর বাড়ি ফিরতে অস্বীকার

  • আট সন্তানের মা প্রেমে পড়েছেন ৫৮ বছর বয়সি বিবাহিত ব্যক্তির। স্ত্রীর প্রেমিকের বিরুদ্ধে অপহরণের মামলা করেছিলেন মহিলার স্বামী। এর ভিত্তিতে পুলিশ মহিলাকে আদালতে হাজির করলেও আদালতে মহিলা তাঁর প্রেমিকের বাড়িতে যেতে চেয়ে আর্জি জানান।

আট সন্তানের মা প্রেমে পড়েছেন ৫৮ বছর বয়সি এক ব্যক্তির। এর জেরে নিজের স্বামীর ঘরে ফিরতে অস্বীকার করলেন সেই মহিলা। রাজস্থানের ভরতপুরে এই ঘটনার জল গড়িয়েছে আদালত পর্যন্ত। স্ত্রীর প্রেমিকের বিরুদ্ধে অপহরণের মামলা করেছিলেন মহিলার স্বামী। এর ভিত্তিতে পুলিশ মহিলাকে আদালতে হাজির করলেও আদালতে মহিলা তাঁর প্রেমিকের বাড়িতে যেতে চেয়ে আর্জি জানান। পাশাপাশি মহিলা জানান, তিনি তাঁর স্বামীর বাড়ি যেতে চান না। এদিকে যে ৫৮ বছর বয়সির প্রেমে সেই মহিলা পড়েছেন, তাঁরও চারটি সন্তান আছে।

ঘটনাটি ভরতপুরের কাইথওয়ারা থানা এলাকার নিমলা গ্রামের। এখানে বসবাসকারী ৪৫ বছর বয়সি এক মহিলা তাঁর প্রতিবেশীর প্রেমে পড়েন। তাঁর প্রেমিকের সাথে থাকতে স্বামীর বাড়ি ছেড়ে চলে যান। এরপর সেই মহিলার স্বামী ৫৮ বছর বয়সি প্রতিবেশীর বিরুদ্ধে অপহরণের মামলা করেন। অভিযোগের পর পুলিশ ওই মহিলাকেই হাতকড়া পরিয়ে আদালতে হাজির করে। এদিক ঘটনার পর পুলিশ মহিলাকে আটক করলে তাঁর সন্তানরাও থানায় পৌঁছে মাকে বোঝানোর অনেক চেষ্টা করলেও সেই মহিলা বাড়ি ফিরতে রাজি হননি। উলটে তিনি নিজের প্রেমিকের সঙ্গে যাওয়ার ইচ্ছা প্রকাশ করেন। এদিকে সেই প্রেমিক নিজে বিবাহিত বলে জানা গিয়েছে।

এদিকে কাইথওয়ারা থানার ইনচার্জ রামনারেশের জানান, মহিলার স্বামীর দায়ের করা এফআইআর-এ অভিযোগ করা হয়েছে যে তাঁর স্ত্রীকে প্রতিবেশী অপহরণ করেছিল। স্ত্রীকে ফিরিয়ে নেওয়ার জন্য গ্রামে পঞ্চ প্যাটেলদের সাথেও কথা বলা হয়েছিল। কিন্তু মহিলা তাঁদের কথা শোনেননি। এরপরই থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়। কিন্তু মহিলা আদালতে দাঁড়িয়ে তাঁর স্বামীর সাথে ফিরে যেতে অস্বীকার করেন।

বন্ধ করুন