বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > সোমবার থেকে মুম্বই লোকালে উঠতে পারবেন আমজনতাও, তবে ৩ স্লটে মিলেছে ছাড়
এবার মুম্বই লোকালে উঠতে পারবেন আমজনতাও, তবে ৩ স্লটে মিলেছে ছাড়। (ফাইল ছবি, সৌজন্য হিন্দুস্তান টাইমস)
এবার মুম্বই লোকালে উঠতে পারবেন আমজনতাও, তবে ৩ স্লটে মিলেছে ছাড়। (ফাইল ছবি, সৌজন্য হিন্দুস্তান টাইমস)

সোমবার থেকে মুম্বই লোকালে উঠতে পারবেন আমজনতাও, তবে ৩ স্লটে মিলেছে ছাড়

  • দিনের তিনটি স্লটে ট্রেনে ওঠা যাবে।

অবশেষে মুম্বইয়ের লোকাল ট্রেনে ওঠার অনুমতি পেলেন আমজনতা। আগামী ১ ফেব্রুয়ারি (সোমবার) থেকে সাধারণ যাত্রীরা শহরতলির ট্রেনে উঠতে পারবেন বলে জানিয়েছেন মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরে। তবে ভিড় এড়াতে সাধারণ যাত্রীদের ট্রেনে ওঠার সময় বেঁধে রাখা হবে বলে জানিয়েছেন আধিকারিকরা।

করোনাভাইরাস মহামারীর প্রকোপে গত মার্চ থেকে মুম্বইয়ের লোকাল ট্রেন পরিষেবা বন্ধ ছিল। লকডাউনের শিথিল হওয়ার পরে ধাপে ধাপে জরুরি পরিষেবা যুক্ত ব্যক্তি, মহিলা এবং আরও কয়েকজনকে লোকাল ট্রেনে অনুমতি দেওয়া হয়েছিল। নয়া নির্দেশ অনুযায়ী, সকাল সাতটা পর্যন্ত আমজনতাকে ট্রেনে উঠতে দেওয়া হবে। তারপর বেলা ১২ টা থেকে বিকেল চারটে পর্যন্ত এবং রাত ন'টা থেকে রাতের শেষ ট্রেন পর্যন্ত লোকাল ট্রেনে উঠতে পারবেন সাধারণ যাত্রীরা। অর্থাৎ সকাল সাতটা থেকে বেলা ১২ টা এবং বিকেল চারটে থেকে রাত ন'টা পর্যন্ত ট্রেনে ওঠার অনুমোদন দেওয়া হয়নি। যা অফিস টাইম হিসেবে বিবেচিত হয়।ট্রেনে ভিড় এড়াতে অফিসগুলিকেও কাজের সময়ের হেরফের করারও আর্জি জানিয়েছে রাজ্য সরকার। 

একইসঙ্গে শুক্রবারই মুম্বই এবং বৃহত্তর মুম্বইয়ে রাত ১১ টা পর্যন্ত দোকান এবং রাত একটা পর্যন্ত রেস্তোরাঁ খোলা রাখার অনুমোদন দিয়েছে মহারাষ্ট্র সরকার। সেই পদক্ষেপকে স্বাগত জানিয়েছেন দোকানদার এবং হোটেল মালিকরা। চেম্বার অফ অ্যাসোসিয়েশনস অফ মহারাষ্ট্র ইন্ডাস্ট্রিড অ্যান্ড ট্রেডের (ক্যামিট) তরফে জানানো হয়েছে, যে দোকানদাররা এতদিন ক্ষতির মুখে পড়ছিলেন, তাঁরা কিছুটা সুরাহা পাবেন। ক্যামিটের চেয়ারম্যান মোহন গুরনানি বলেন, ‘একটা বড় অংশের মানুষ কাজ থেকে ফিরে কেনাকাটি করতেন। কিন্তু রাত ন'টা সময়সীমা থাকায় আমরা সেই ক্রেতাদের হারাচ্ছিলেন। নয়া সময়সীমার ফলে আমাদের ব্যবসা কিছুটা চাঙ্গা হবে।’

বন্ধ করুন