বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > নয়া করোনা প্রজাতির হদিশ, সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ছে দ্রুতগতিতে
ফাঁকা লন্ডনের রাস্তা। (ছবি সৌজন্য ব্লুমবার্গ)
ফাঁকা লন্ডনের রাস্তা। (ছবি সৌজন্য ব্লুমবার্গ)

নয়া করোনা প্রজাতির হদিশ, সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ছে দ্রুতগতিতে

  • দিনকয়েক আগেই শুরু হয়েছে করোনাভাইরাসের টিকা প্রদান। তারইমধ্যে নতুন করে উদ্বেগ তৈরি হল।

দিনকয়েক আগেই শুরু হয়েছে করোনাভাইরাসের টিকা প্রদান। তারইমধ্যে নতুন করে উদ্বেগ তৈরি হল। ইংল্যান্ড প্রশাসনের তরফে জানানো হল, করোনাভাইরাসের নয়া প্রজাতির সন্ধান মিলেছে। সেটির প্রভাবে লন্ডন, কেন্ট, এসেক্সের মতো ইংল্যান্ডে কয়েকটি প্রান্তে দ্রুত গতিতে করোনা ছড়িয়ে পড়তে পারে।

সোমবার ইংল্যান্ডের সংসদের নিম্নকক্ষে হাউন্স অফ কমন্সে ইংল্যান্ডের স্বাস্থ্যসচিব ম্যান হ্যানকক জানিয়েছেন, নয়া প্রজাতির ফলে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন, সেরকম কমপক্ষে ১,০০০ জনকে চিহ্নিত করেছে স্থানীয় প্রশাসন। নয়া প্রজাতির বিষয়ে ইতিমধ্যে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাকে (হু) জানানো হয়েছে। পাশাপাশি বিজ্ঞানীরাও সেই প্রজাতি নিয়ে বিস্তারিত গবেষণা চালাচ্ছে বলে জানিয়েছেন হ্যানকক।

তিনি বলেন, ‘আমরা করোনাভাইরাসের একটি নয়া প্রজাতিকে চিহ্নিত করেছি। যা দক্ষিণ-পূর্ব ইংল্যান্ডে দ্রুত গতিতে সংক্রমণের কারণ হতে পারে। প্রাথমিক গবেষণা অনুযায়ী, বর্তমান প্রজাতির থেকে দ্রুত হারে বাড়ছে নয়া প্রজাতি।’ তিনি আরও বলেন, 'এই (নয়া) প্রজাতির মাধ্যমে আক্রান্ত হওয়ার ১,০০০-এর বেশি কেস চিহ্নিত করেছি আমরা। ৬০ টি স্থানীয় প্রশাসনের এলাকায় সেই প্রজাতি চিহ্নিত করা হলেও মূলত দক্ষিণ ইংল্যান্ডে (নয়া প্রজাতি) সন্ধান মিলেছে। ক্রমশ সেই সংখ্যাটা বাড়ছে।'

তবে দ্রুত হারে ছড়িয়ে পড়লেও নয়া প্রজাতির ফলে যে করোনা পরিস্থিতি ভয়াবহ করবে, তা প্রমাণের মতো এখনও কিছু 'মেলেনি' বলে জানিয়েছেন হ্যানকক। করোনা টিকাও যে আর কাজ করবে না, তেমন কোনও ইঙ্গিত মেলেনি। সেই পরিস্থিতির জন্য অবশ্য আগামী বুধবার থেকে লন্ডনে সর্বাধিক পর্যায়ের সতর্কতা জারি করা হচ্ছে। তিনি জানান, গত কয়েকদিনে 'অত্যন্ত দ্রুত হারে' আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে।

বন্ধ করুন