বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > জাতীয় সড়কে FASTag লেন চালু করার দিন পিছোল
ছবিটি প্রতীকী।
ছবিটি প্রতীকী।

জাতীয় সড়কে FASTag লেন চালু করার দিন পিছোল

  • ফাস্ট্যাগ প্রক্রিয়ায় কর জমা না দিয়ে টোল প্লাজায় নির্দিষ্ট লেনে ঢুকে পড়লে গাড়ির মালিককে দুই গুণ বেশি কর দেওয়ার যে নিয়ম ১ ডিসেম্বর থেকে চালু হওয়ার কথা ছিল, তা পিছিয়ে ১৫ ডিসেম্বর করেছে জাতীয় সড়ক কর্তৃপক্ষ।

গাড়ির মালিকদের আরও সময় দিতে সড়ক কর জমা নেওয়ার অত্যাধুনিক ফাস্ট্যাগ (FASTag) ব্যবস্থা চালু করার দিন ১৫ ডিসেম্বর পর্যন্ত পিছোনোর সিদ্ধান্ত নিল কেন্দ্র।

এর আগে জাতীয় সড়ক কর্তৃপক্ষ জানিয়েছিল, ১ ডিসেম্বর থেকে ফাস্ট্যাগ পদ্ধতিতে জাতীয় সড়কে পথকর বা টোল জমা দিতে হবে। দফতরের এক শীর্ষস্থানীয় কর্তা জানিয়েছেন, ‘মনে করা হচ্ছে, গাড়ির জন্য ট্যাগ জোগাড় করার বিষয়টি এখনও অধিকাংশ মানুষের কাছে স্পষ্ট নয়। তাঁদের সুবিধা দিতেই নির্ধারিত দিন পিছোনো হল।’

এনএইচএআই প্রকাশিত সাম্প্রতিক বিবৃতিতে এই ঘোষণার পাশাপাশি জানানো হয়েছে যে, প্রতিটি টোল প্লাজায় নতুন ফাস্ট্যাগ পড়ার যন্ত্র বসানো হয়েছে। তবে ফাস্ট্যাগ প্রক্রিয়ায় কর জমা না দিয়ে টোল প্লাজায় নির্দিষ্ট লেনে ঢুকে পড়লে গাড়ির মালিককে দুই গুণ বেশি কর দেওয়ার যে নিয়ম ১ ডিসেম্বর থেকে চালু হওয়ার কথা ছিল, তা পিছিয়ে ১৫ ডিসেম্বর করেছে কর্তৃপক্ষ।

পথকর আদায়ের নয়া ব্যবস্থায় প্রি-পেড ফাস্ট্যাগ গাড়ির উইন্ডস্ক্রিনে বসাতে হবে। এর ফলে টোল প্লাজায় পৌঁছলে স্বয়ংক্রিয় প্রক্রিয়ায় সেই ট্যাগ পড়ে সংশ্লিষ্ট গাড়িটির জন্য রাস্তা খুলে দেওয়া হবে। এর ফলে টোল প্লাজায় নগদ কর জমা দেওয়ার জন্য থামার প্রয়োজন পড়বে না।

টোল প্লাজায় ফাস্ট্যাগ ব্যবহারকারীদের জন্য আলাদা লেনের ব্যবস্থা করা হয়েছে। গাড়ৃির উইন্ডস্ক্রিনে ট্যাগ লাগানো না থাকলে এই লেনে প্রবেশ করা নিষিদ্ধ। তা সত্ত্বেও যদি কোনও ট্যাগহীন গাড়ি ফাস্ট্যাগ লেনে ঢুকে পড়ে, সে ক্ষেত্রে গাড়ির মালিককে দ্বিগুন কর দিতে হবে।

বন্ধ করুন