বাড়ি > ঘরে বাইরে > Nirbhaya hanging: ফাঁসির ৪ ঘণ্টা আগে সুপ্রিম কোর্টে আইনজীবী, চলছে শুনানি
ফাঁসি রোখার শেষ চেষ্টায় সুপ্রিম কোর্টে় বিশেষ শুনানির আবেদন জানালেন ৪ আসামির তরফে কৌঁসুলি এ পি সিং। ছবি সৌজন্যে এএনআই।
ফাঁসি রোখার শেষ চেষ্টায় সুপ্রিম কোর্টে় বিশেষ শুনানির আবেদন জানালেন ৪ আসামির তরফে কৌঁসুলি এ পি সিং। ছবি সৌজন্যে এএনআই।

Nirbhaya hanging: ফাঁসির ৪ ঘণ্টা আগে সুপ্রিম কোর্টে আইনজীবী, চলছে শুনানি

ফাঁসি স্থগিত রাখতে তিনি সুপ্রিম কোর্টের রেজিস্ট্রারের বাড়িতে রাত দেড়টায় কড়া নাড়লেন।

ফাঁসির মাত্র চার ঘণ্টা আগে শেষ চেষ্টা করলেন নির্ভয়াকাণ্ডে দণ্ডিত ৪ আসামির আইনজীবী এ পি সিং। ফাঁসি স্থগিত রাখতে তিনি সুপ্রিম কোর্টের রেজিস্ট্রারের বাড়িতে রাত দেড়টায় কড়া নাড়লেন।

মাঝরাতের পরে সুপ্রিম কোর্টে ছুটলেন নির্ভয়াকাণ্ডে দণ্ডিত মুকেশ সিং, পবন গুপ্তা, বিনয় শর্মা ও অক্ষয় ঠাকুরের আইনজীবী। চার ঘণ্টা পরে ওই চার আসামির ফাঁসি কার্যকর হওয়ার কথা থাকলেও তা স্থগিত রাখার অনুরোধ জানাতে তিনি শীর্ষ আদালতের দ্বারস্থ হওয়ার চেষ্টা করলেন।

শুক্রবার ভোর ৫.৩০ মিনিটে ওই চার আসামিকে ফাঁসিকাঠে ঝোলানো হবে। তার আগে, বৃহস্পতিবার রাতে বিশেষ শুনানিতে ফাঁসি স্থগিতে আর্জি নাকচ করে দেয় দিল্লি হাই কোর্ট।

এর পরেই আইনজীবী এ পি সিং জানান, ‘আদালতের নির্দেশের কপি পেলে আমি সুপ্রিম কোর্টে যাব। আমি সুপ্রিম কোর্টের রেজিস্ট্রারের সঙ্গে কথা বলেছি। আমি তাঁর কাছে যাব।’

রাত দেড়টা নাগাদ তিনি মধ্য দিল্লিতে শীর্ষ আদালতের রেজিস্ট্রারের বাসভবনে বিশেষ শুনানির আর্জি জানাতে পৌঁছন। তবে শেষ পর্যন্ত তাঁর আর্জি মানা হয়েছে কি না, তা জানা যায়নি।

২০১৩ সালে নির্ভয়াকাণ্ডে দোষী মুকেশ সিং, পবন গুপ্তা, বিনয় শর্মা ও অক্ষয় ঠাকুরকে প্রাণদণ্ড দেয় নিম্ন আদালত। ২০১২ সালের ৬ ডিসেম্বর রাতে দিল্লিতে চলন্ত বাসের ভিতরে গণধর্ষণ করা হয় ২৩ বছরের প্যারামেডিক ছাত্রী নির্ভয়াকে। তারপর তাঁর উপর নৃশংস অত্যাচার চালানো হয়। ঘটনার জেরে ওই মাসেই সিঙ্গাপুরের হাসপাতালে মৃত্যু হয় তরুণীর।

বন্ধ করুন