বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > ‘কৃষক মৃত্যুর রেকর্ড নেই, ক্ষতিপূরণের প্রশ্নই ওঠে না’, সংসদে বলল কেন্দ্র
কৃষি মন্ত্রী নরেন্দ্র সিং তোমর (ছবি সৌজন্যে পিটিআই) (PTI)
কৃষি মন্ত্রী নরেন্দ্র সিং তোমর (ছবি সৌজন্যে পিটিআই) (PTI)

‘কৃষক মৃত্যুর রেকর্ড নেই, ক্ষতিপূরণের প্রশ্নই ওঠে না’, সংসদে বলল কেন্দ্র

  • এর আগে বিনা আলোচনায় কৃষি আইন বাতিল বিল পাশ হয় লোকসভা ও রাজ্যসভায়। তবে আইন প্রত্যাহারকারী বিল পাশ হয়ে গেলেও এখনই আন্দোলন প্রত্যাহার করতে রাজি নন কৃষকরা।

 

বিগত এক বছর ধরে চলা কৃষক আন্দোলন চলাকালীন বহু কৃষকের মৃত্যু হয়েছে বলে দাবি আন্দোলনকারী এবং বিরোধীদের। এই মৃত কৃষকদের পরিবারকে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার বিষয়ে সরব হয়েছে বিরোধীরা। এই সংক্রান্ত একটি প্রশ্ন সংসদে করা হলে সরকার জানিয়ে দেয় যে তাদের কাছে কৃষক মৃত্যু সংক্রান্ত কোনও তথ্য নেই।

সরকার জানায়, তাদের কাছে কৃষকদের বিক্ষোভের সময় মারা যাওয়া কৃষকদের কোনও রেকর্ড নেই এবং তাই তাদের পরিবারকে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার প্রশ্নই ওঠে না। কেন্দ্রকে প্রশ্ন করা হয়েছিল, বিক্ষোভের সময় যারা মারা যায় তাদের পরিবারকে আর্থিক সহায়তা দিতে চায় কি না কেন্দ্র। কেন্দ্রীয় কৃষি মন্ত্রক সংসদে এই প্রশ্নের লিখিত জবাবে জানায়, কৃষি ও কৃষক কল্যাণ মন্ত্রকের কাছে এই বিষয়ে (কৃষক মৃত্যু) কোনও রেকর্ড নেই এবং তাই প্রশ্নই ওঠে না।

এদিকে এর আগে বিনা আলোচনায় কৃষি আইন বাতিল বিল পাশ হয় লোকসভা ও রাজ্যসভায়। তবে আইন প্রত্যাহারকারী বিল পাশ হয়ে গেলেও এখনই আন্দোলন প্রত্যাহার করতে রাজি নন কৃষকরা। কৃষিজ পণ্যের ন্যূনতম সহায়ক মূল্য নিশ্চিত করতে আইন পাশ সহ অন্যান্য দাবিদাওয়া পূরণ না হওয়া পর্যন্ত আন্দোলন চলবে বলে জানিয়েছেন কৃষক নেতারা। 

এর আগে কৃষি মন্ত্রী নরেন্দ্র সিং তোমর জানিয়েছিলেন, ন্যূনতম সহায়ক মূল্যের বিষয়টি যাতে স্বচ্ছভাবে প্রয়োগ করা যায়, তা নিশ্চিত করতে সংশ্লিষ্ট একটি কমিটিকে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে৷ কৃষিমন্ত্রীর বক্তব্য, কমিটি গড়েই কৃষকদের এমএসপি সংক্রান্ত দাবি পূরণের বিষয়ে পদক্ষেপ করেছে সরকার। কমিটিতে কৃষক নেতাদের যোগ দেওয়ার আহ্বান জানানো হয়েছে কেন্দ্রের তরফে। তবে এই বিষয়ে এখনও কোনও সিদ্ধান্ত নেয়নি সংযুক্ত কিষাণ মোর্চা।

 

 

বন্ধ করুন