বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > শুধু অনলাইনে ডেলিভারি,দোকানে পরোটা না দেওয়ায় মালিককে 'গুলি করে খুন' ক্রেতাদের
দোকানের মালিক খুনে ধৃত দুই। প্রতীকী ছবি। (PTI)
দোকানের মালিক খুনে ধৃত দুই। প্রতীকী ছবি। (PTI)

শুধু অনলাইনে ডেলিভারি,দোকানে পরোটা না দেওয়ায় মালিককে 'গুলি করে খুন' ক্রেতাদের

  • ধৃতদের নাম আকাশ এবং যোগেন্দ্র। দুজনেই গ্রেটার নয়ডার বাসিন্দা।

খাবার পরিবেশন করতে অস্বীকার করেছিলেন মালিক। তার জেরে খাবারের দোকানের মালিককে খুন করার অভিযোগ উঠল গ্রেটার নয়ডায়। এই ঘটনায় ইতিমধ্যেই দু'জনকে গ্রেফতার করেছে নয়ডার পুলিশ। ধৃতদের নাম আকাশ এবং যোগেন্দ্র। দু'জনেই গ্রেটার নয়ডার বাসিন্দা। শনিবার ভোরেই তাদের গ্রেফতার করেছে পুলিশ। জানা যাচ্ছে, দোকানের মালিকের নাম কপিল রানা।

বেটা ২ থানার স্টেশন হাউস অফিসার (এসএইচও) অনিল কুমার জানাচ্ছেন, 'খাবারের দোকানটি কেবল অনলাইনে খাবার সরবরাহ করে। রাত সাড়ে ৩ টের দিকে পুলিশের কাছে এ ঘটনা সম্পর্কে ফোন আসে। দোকানেরই এক কর্মী ফোনে খাবারের দোকানের মালিককে গুলি করে হত্যার কথা জানান।'

খবর পাওয়ার পরেই ঘটনাস্থলে গিয়ে পুলিশ খাবারের দোকানের মালিককে রক্তাক্ত অবস্থায় স্থানীয় হাসপাতালে নিয়ে যান। সেখানে চিকিৎসকরা তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন। এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে ধৃতদের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩০২ ধারায় খুনের অভিযোগ দায়ের করেছে পুলিশ। খাবারের দোকানের কর্মী প্রবীণ কুমার প্রত্যক্ষদর্শী বলে জানিয়েছে পুলিশ। তিনিই পুলিশকে ফোন করে খুনের বিষয়টি জানান।

তিনি পুলিশকে জানিয়েছেন, শনিবার রাত দেড়টা নাগাদ দু'জন এসে পরোটার অর্ডার করে। তবে তা দিতে অস্বীকার করেছিলেন রানা। ওই দু'জনকে তিনি জানিয়েছিলেন তাঁরা শুধু অনলাইনে খাবার সরবরাহ করেন। এরপরেই তাদের সঙ্গে বচসায় জড়িয়ে পড়েন রানা। ঘটনায় আচমকাই তাদের মধ্যে একজন বন্দুক বের করে রানাকে লক্ষ্য করে পরপর তিনটি গুলি ছোড়ে। সঙ্গে সঙ্গে মেঝেতে লুটিয়ে পড়েন রানা। ঘটনায় ১১২ নম্বর ডায়াল করে পুলিশকে বিষয়টি জানান দোকানের ওই কর্মী। ধৃতদের আদালতে তোলা হলে তাদের পুলিশ হেফাজতের নির্দেশ দিয়েছেন বিচারক। প্রাথমিকভাবে ধৃতদের জেরা করে পুলিশ জানতে পেরেছে, তারা এর আগেও বেশ কয়েকবার ওই খাবারের দোকানে গিয়েছিল।

বন্ধ করুন