বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > 'সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে ফ্রান্সের পাশে ভারত', নিসের হামলার নিন্দা মোদীর
প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী (ছবি সৌজন্য পিটিআইই)
প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী (ছবি সৌজন্য পিটিআইই)

'সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে ফ্রান্সের পাশে ভারত', নিসের হামলার নিন্দা মোদীর

  • সম্প্রতি কমপক্ষে দুটি ‘ইসলামি সন্ত্রাসের হামলা’-র শিকার হয়েছে ফ্রান্স।

ফ্রান্সের একাধিক সন্ত্রাসবাদী হামলার ঘটনার তীব্র নিন্দা করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। স্পষ্ট জানিয়ে দিলেন, সন্ত্রাসবাদ প্রশ্নে সর্বদা ফ্রান্সের পাশে আছে ভারত।

আজ (বৃহস্পতিবার) সন্ধ্যায় একটি টুইটবার্তায় মোদী বলেন, ‘আজ নিসের একটি গির্জায় জঘন্য আক্রমণ-সহ সম্প্রতি ফ্রান্সে সন্ত্রাসবাদী হামলার কড়া নিন্দা করছি। হতাহতের পরিবার এবং ফ্রান্সের মানুষকে গভীরভাবে সমবেদনা জানাচ্ছি আমরা। সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে ফ্রান্সের পাশে আছে ভারত।’

সম্প্রতি কমপক্ষে দুটি ‘ইসলামি সন্ত্রাসের হামলা’-র শিকার হয়েছে ফ্রান্স। ক্লাসে হজরত মহম্মদের ব্যঙ্গচিত্র নিয়ে আলোচনার জন্য চলতি মাসের মাঝামাঝি প্যারিসের উত্তর-পূর্ব কনফ্লান্স-সেন্ট-অনরিনের একটি মাধ্যমিক শিক্ষককে খুন করা হয়েছিল। তাঁরও মুণ্ডচ্ছেদ করেছিল আততায়ী। তারপর থেকেই ক্ষোভে ফুঁসছে ফ্রান্স।

তারইমধ্যে বৃহস্পতিবার নিসের একটি গির্জায় এক মহিলাকে মাথা কেটে খুন করে এক আততায়ী। আরও দু'জনকেও হত্যা করা হয়েছে। আততায়ী ছুরি নিয়ে হামলা চালিয়েছিল বলে জানিয়েছে পুলিশ।

নিসের মেয়র ক্রিশ্চিয়ান এসট্রোসি টুইটারে জানিয়েছেন, এটা সন্ত্রাসবাদী হামলা। যা শহরের বিখ্যাত ও ঐতিহ্যমণ্ডিত নোত্র দাম গির্জার ভিতরে বা সামনে সেই হামলা চালানো হয়েছে। আততায়ীকে আটক করেছে পুলিশ।

এসট্রোসি জানিয়েছেন, মৃতদের মধ্যে গির্জার একজন ওয়ার্ডেন আছে বলে প্রাথমিকভাবে জানা গিয়েছে। এসট্রোসিকে উদ্ধৃত করে সংবাদসংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, ওই ব্যক্তি ‘আল্লাহু আকবর’ স্লোগান দিচ্ছিল। পাকড়াও করার পরও সেই স্লোগান দিতে থাকে। সাংবাদিকদের এসট্রোসি বলেন, ‘আটক করার সময় সন্দেহভাজন আততায়ীকে গুলি করেছে পুলিশ। তাকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। সে বেঁচে আছে।’ সম্প্রতি একাধিক ‘ইসলামি সন্ত্রাসের হামলা’-র ঘটনায় কড়া ব্যবস্থা নেওয়ার হুঁশিয়ার দিয়েছেন এসট্রোসি। তাঁর কথায়, ‘অনেক হয়েছে। নিজেদের ভূখণ্ড থেকে ইসলামি-ফ্যাসিবাদকে নির্মূল করার জন্য ফ্রান্সকে এখন শান্তির আইন থেকে বেরিয়ে আসতে হবে।’

বন্ধ করুন