বাড়ি > ঘরে বাইরে > চিন নিয়ে মেজাজ খারাপ মোদীর, দাবি ট্রাম্পের, কথাই হয়নি দু'জনের মধ্যে, বলল ভারত
মোদী ও ট্রাম্প (ফাইল ছবি, সৌজন্য টুইটার)
মোদী ও ট্রাম্প (ফাইল ছবি, সৌজন্য টুইটার)

চিন নিয়ে মেজাজ খারাপ মোদীর, দাবি ট্রাম্পের, কথাই হয়নি দু'জনের মধ্যে, বলল ভারত

কার্যত ট্রাম্পের দাবি খণ্ডন করল নয়াদিল্লি

চিনের সঙ্গে সীমান্ত সংঘর্ষ নিয়ে খুব খারাপ মেজাজে আছেন ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এমনটাই দাবি করলেন মার্কিন রাষ্ট্রপতি ডোনাল্ড ট্রাম্প। এই খবর আসার কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই যদিও এমন কোনও কথাপোকথন হয়নি বলে জানিয়ে দিল ভারত। 

সরকারি সূত্রের বক্তব্য অনুযায়ী, ট্রাম্প ও মোদীর মধ্যে এপ্রিলের চার তারিখের পর কথা হয়নি। সেদিনকার আলোচনার বিষয় ছিল করোনা রোগে ব্যবহৃত হাইড্রক্সিক্লোরোকুইনিন। সেই শেষ। পূর্ব লাদাখে ভারত-চিন অচলাবস্থা নিয়ে কোনও আলোচনা হয়নি বলেই ভারতীয় সরকারের তরফ থেকে জানানো হয়েছে। বৃহস্পতিবার বিদেশমন্ত্রক জানিয়েছে যে সীমান্তে উত্তেজনা প্রশমনের জন্য নানান স্তরে আলোচনা করছে ভারত-চিন। তবে কোনও রকম ভাবেই যে দেশের নিরাপত্তা ও সার্বভৌমত্বের প্রশ্নে আপোষ করা হবে না, তাও জানিয়ে দেয় ভারত। 

তার আগে ভারত-চিনের মধ্যে মধ্যস্থতা করারও প্রস্তাব দিয়েছিলেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। সেই কথা তিনি ফের বলেন ওভাল অফিসে বসে। ট্রাম্প বলেন ভারত-চিনের মধ্যে বড় সংঘর্ষ হচ্ছে। মোদীর প্রশংসা করে ট্রাম্প বলেন যে তিনি একজন দারুন জেন্টলম্যান। ভারত ও চিনের সীমান্তে উত্তেজনা নিয়ে ট্রাম্পের বক্তব্য, ‘বড় সংঘর্ষ হচ্ছে ভারত ও চিনের মধ্যে। ১.৪ বিলিয়ন জনসংখ্যার দুই দেশ। উভয় দেশের কাছেই খুব শক্তিশালী সামরিক ক্ষমতা রয়েছে। ভারত তো খুশি নয়, সম্ভবত চিনও অখুশি।’

এরপর তিনি দাবি করেন যে মোদীর সঙ্গে তাঁর কথা হয়েছে, যেটা অস্বীকার করেছে নিউদিল্লি। ট্রাম্প বলেন যে মোদীর সঙ্গে কথা হয়েছে। উনি মোটেই ভালো মেজাজে নেই চিনের সঙ্গে যা হচ্ছে সেই নিয়ে। অন্যদিকে এখনও পূর্ব লাদাখে অচলাবস্থা কাটেনি। চারটি জায়গায় একেবারে মুখোমুখি ভারত-চিন সেনা। উভয় পক্ষই সংখ্যা বাড়াচ্ছে সীমান্তে। 

 

বন্ধ করুন