বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > Rahul-Priyanka on PK: প্রশান্ত কিশোরকে নিয়ে মতানৈক্য প্রিয়াঙ্কা-রাহুলের? প্রকাশ্যে চাঞ্চল্যকর রিপোর্ট
প্রিয়াঙ্কা গান্ধী ও রাহুল গান্ধী  (ANI)
প্রিয়াঙ্কা গান্ধী ও রাহুল গান্ধী  (ANI)

Rahul-Priyanka on PK: প্রশান্ত কিশোরকে নিয়ে মতানৈক্য প্রিয়াঙ্কা-রাহুলের? প্রকাশ্যে চাঞ্চল্যকর রিপোর্ট

  • Rahul-Priyanka on PK: প্রশান্ত কিশোরকে নিয়ে রাহুল গান্ধীর অস্বস্তির কথা কংগ্রেসের অন্দরে সবাই জানেন। এই আবহে পিকের দলে যোগ নিয়ে আপত্তি ছিল রাগা অনুরাগীদের। অপরদিকে প্রশান্ত কিশোর কংগ্রেসের সভাপতি পদে নাকি চেয়েছিলেন প্রিয়াঙ্কা গান্ধীকে। 

কংগ্রেসের সমস্যা সমাধানের জন্য আমার চেয়ে বেশি কংগ্রেসের প্রয়োজন নেতৃত্ব এবং সম্মিলিত ইচ্ছার... কংগ্রেসে যোগ না দিয়ে এই ভাষাতেই হাত শিবিরকে খোঁচা মেরেছিলেন প্রশান্ত কিশোর। দলে যোগ দেওয়ার প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করে কংগ্রেসকে বাস্তবতা বোঝানোর চেষ্টা করেন পিকে। তবে ঠিক কী কারণে কংগ্রেসে যোগ দেওয়া হল না পিকের? জানা গিয়েছে বেশ কয়েকটি ক্ষেত্রে দুই পক্ষের মতানৈক্য উঠে আসে। পাশাপাশি লাইভহিন্দুস্তান সূত্রে খবর, কংগ্রেসের অন্দরে রাহুল গান্ধী অনুরাগীরা প্রশান্ত কিশোরের অন্তর্ভুক্তিতে আপত্তি জানিয়েছিলেন। এই কারণেই এক বছরের মধ্যে এই নিয়ে দ্বিতীয়বার জল্পনা তৈরি হলেও কংগ্রেসের সঙ্গে দূরত্ব তৈরি করলেন প্রশান্ত কিশোর।

মনে করা হচ্ছে পিকে-কংগ্রেস সম্পর্কে চিড়ের মূল কারণ আস্থার অভাব। প্রশান্ত কিশোর যখন অ্যাকশন প্ল্যান নিয়ে আলোচনা করছিলেন হাইকমান্ডের সঙ্গে, সেই সময়ই কংগ্রেস নেতারা স্পষ্ট জানিয়েছিলেন যে, অন্য দলের সঙ্গে তাঁকে সম্পর্ক ছিন্ন করতে হবে। দলের একজন সিনিয়র নেতা বলেছেন যে কংগ্রেসকে এই বিষয়ে আস্বস্ত করেও প্রশান্ত টিআরএসের সাথে কথা বলতে হায়দরাবাদে গিয়েছিলেন এবং তাঁর সংস্থা সেই দলের সঙ্গে চুক্তি করে।

দলের এক প্রবীণ নেতার মতে, প্রশান্ত কিশোরের সঙ্গে দেখা করার পর টিআরএস নেতা কেটি রামা রাওয় যে বক্তব্য দিয়েছিলেন, তাতে কংগ্রেসে প্রশান্ত কিশোরকে নিয়ে প্রতিকূল পরিবেশ তৈরি হয়েছিল। রামা রাও বলেছিলেন যে রাহুল গান্ধীর কারণেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এবং বিজেপি শক্তি পেয়েছে। এই আবহে প্রশান্তকে দলে অন্তর্ভুক্ত করার বিরোধিতা করেন রাহুল গান্ধীর ঘনিষ্ঠ নেতারা।

অনেক কংগ্রেস নেতার দাবি, প্রশান্ত কিশোরকে নিয়ে গান্ধী পরিবারের মধ্যেও মতানৈক্য ছিল না। রাহুল গান্ধী প্রশান্ত কিশোরকে নিয়ে খুব একটা স্বচ্ছন্দ ছিলেন না। এই কারণেই তিনি পিকের সঙ্গে একটি সভাতেই উপস্থিত ছিলেন। এদিকে প্রিয়াঙ্কা গান্ধী প্রায় প্রতিটি সভায় উপস্থিত ছিলেন পিকের সঙ্গে। এদিকে লাইভহিন্দুস্তানের আরও দাবি, প্রিয়াঙ্কা গান্ধীকে দলের অধ্যক্ষ করতে চেয়েছিলেন পিকে। এদিকে সোনিয়া গান্ধীও প্রশান্তের পরামর্শের সাথে খুব একটা একমত হননি। তাই দলে যোগ দিতে পারেননি প্রশান্ত। এর পাশাপাশি অন্যান্য রাজনৈতিক দলের সঙ্গে প্রশান্ত কিশোরের সম্পর্ক এবং রাহুল গান্ধীর ওপর তাঁর সরাসরি আক্রমণের একাধিক উদাহরণও কাজ করেছে পিকের বিরুদ্ধে। একাধিকবার পিকে কংগ্রেসকে তোপ দেগে টুইটও করেছিলেন গতবছরের শেষের দিকে।

বন্ধ করুন