বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের সম্পদ শুনলে চোখ কপালে উঠবে! কী হবে এবার সেই ঐশ্বর্য?
বাকিংহাম প্যালেসের বাইরে রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের স্মৃতিতে ফুলের স্তবক নিবেদন করা হয়েছে। (Photo by STEPHANE DE SAKUTIN/AFP)

রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের সম্পদ শুনলে চোখ কপালে উঠবে! কী হবে এবার সেই ঐশ্বর্য?

  • সূত্রের খবর, রানির যে প্রাসাদ, মুকুট, অলঙ্কার, জুয়েল, শিল্পকর্ম এগুলি ঠিক তাঁর ব্যক্তিগত সম্পত্তি হিসাবে গণ্য করা হয় না। ভবিষ্যৎ প্রজন্মের জন্য এটি রাখা রয়েছে। পরবর্তীক্ষেত্রে এটি রাজার হাতেই চলে যাবে।

সদ্য প্রয়াত হয়েছে ব্রিটিশ রাজরানি দ্বিতীয় এলিজাবেথ।  রানিকে বিশ্বের অন্যতম ধনী মহিলা বলেই গণ্য করা হত। আর এখন প্রশ্ন এই যে বিপুল ঐশ্বর্য এবার তার কী হবে? তাঁর সম্পদ কীভাবে বণ্টন করা হবে তা নিয়ে রানির শেষ ইচ্ছা কী ছিল? এনিয়ে ইঙ্গিত মিলেছে এবার।

ব্রিটিশ রাজতন্ত্রের মোট সম্পদের পরিমাণ প্রায় ৮৮ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। ২০১৭ সালে ব্রান্ড ফিনান্স নামে একটি সংস্থা এর মূল্যায়ন করেছিল। এদিকে তার মধ্যে রানির ব্যক্তিগত ধনসম্পদ মানে অলঙ্কার, বাড়ি, বহুমূল্য ছবি সব মিলিয়ে মূল্য মোটামুটি ৫০০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার। ফোর্বসের তরফে এর মূল্যায়ন করা হয়।

তবে শেষ পর্যন্ত এই সম্পদের কী হবে সেই বিষয়টিকে এখনও ব্যক্তিগত বিষয় বলেই উল্লেখ করা হয়। সানডে টাইমস রিচ লিস্ট অনুসারে রানির সম্পদ ২০১৫ সালে ছিল ৩৪০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার।

এদিকে দ্য টাইমসের রিপোর্ট অনুসারে রাজমুকুটের সঙ্গে অবিচ্ছেদ্য এই সম্পত্তি। সেক্ষেত্রে এক রাজতন্ত্র থেকে অপর রাজতন্ত্রে এটি স্থানান্তরিত হবে। এর জন্য় আলাদা করে কোনও কর দিতে হয় না।

ওই সংবাদপত্র সূত্রে জানা গিয়েছে, বংশানুক্রমিকভাবে এই সম্পদ করমুক্ত। এনিয়ে আগে থেকেই নিয়ম রয়েছে। এদিকে সূত্রের খবর, রানির যে প্রাসাদ, মুকুট, অলঙ্কার, জুয়েল, শিল্পকর্ম এগুলি ঠিক তাঁর ব্যক্তিগত সম্পত্তি হিসাবে গণ্য করা হয় না। ভবিষ্যৎ প্রজন্মের জন্য এটি রাখা রয়েছে। পরবর্তীক্ষেত্রে এটি রাজার হাতেই চলে যাবে।

বন্ধ করুন