বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > Rahul Gandhi Detained: ‘গণতন্ত্রের মৃত্যু দেখছে ভারত’, কংগ্রেসের বিক্ষোভ মিছিল আটকাল পুলিশ, আটক রাহুল
আটক রাহুল গান্ধী। (ছবি সৌজন্যে এএনআই)

Rahul Gandhi Detained: ‘গণতন্ত্রের মৃত্যু দেখছে ভারত’, কংগ্রেসের বিক্ষোভ মিছিল আটকাল পুলিশ, আটক রাহুল

  • Rahul Gandhi Detained: মূল্যবৃদ্ধি, জিএসটি এবং বেকারত্বের মতো বিষয় নিয়ে বিক্ষোভে নেমেছে কংগ্রেস। রাহুল গান্ধী বলেন, 'মুদ্রাস্ফীতির বিষয়টি উত্থাপন করার জন্য রাষ্ট্রপতি ভবনের দিকে মিছিল করে যাচ্ছিলেন কংগ্রেস সাংসদরা। কিন্তু ওরা (পুলিশ) আমাদের যেতে দিচ্ছে না। আমরা মানুষের প্রকৃত বিষয়গুলি তুলে ধরতে চাই।

মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদে কংগ্রেসের রাষ্ট্রপতি ভবন অভিযান আটকে দিল পুলিশ ও কেন্দ্রীয় বাহিনী। আটক করা হল রাহুল গান্ধী, শশী থারুর-সহ একাধিক কংগ্রেস সাংসদকে। আটক করা হয়েছে প্রিয়াঙ্কা গান্ধী বঢরাকেও।

শুক্রবার সকালেই দেশজুড়ে মূল্যবৃদ্ধি, জিএসটি এবং বেকারত্বের মতো বিষয় নিয়ে নরেন্দ্র মোদী সরকারকে আক্রমণ শানান রাহুল। তিনি বলেন, 'আমরা মূল্যবৃদ্ধি, বেকারত্বের মতো বিষয়গুলি তুলে ধরতে চাই। কীভাবে সমাজকে টুকরো-টুকরো করে ফেলা হচ্ছে, সেটা দেখাতে চাই আমরা। আমরা এখানে (কংগ্রেসের সদর দফতর) দেখাতে চাই এবং সংসদ ভবনে তা তুলে ধরতে চাই। কিন্তু সংসদে আমাদের বিতর্কে অংশগ্রহণের সুযোগ দেওয়া হচ্ছে না। উলটে আমাদের গ্রেফতার করা হচ্ছে। এটাই আজকের ভারতের অবস্থা।'

সাংবাদিক বৈঠকে ওয়াইনাডের কংগ্রেস সাংস়দ রাহুল আরও বলেন, 'চার বা পাঁচজনের স্বার্থ সুরক্ষিত করতে সরকার চালানো হচ্ছে। দুই থেকে তিনজন (কারও নাম করেননি) ব্যবসায়ীর স্বার্থ সুরক্ষিত করতে একনায়কতন্ত্র চালাচ্ছেন দু'জন।' সঙ্গে তিনি বলেন, 'গণতন্ত্রের মৃত্যু দেখতে হচ্ছে ভারতকে। দেশে চারজনের নেতৃত্বে একনায়কতন্ত্র চলছে।' 

আরও পড়ুন: 'মোদীর কথা শুনবে RSS?', DP-তে তেরঙা হাতে নেহরুর ছবি দিয়ে কটাক্ষ কংগ্রেস নেতার

মোদী সরকারকে আক্রমণ শানানোর পর কালো পোশাক পরে কংগ্রেসের প্রতিবাদ মিছিলে শামিল হন রাহুল। যে মিছিলে অনুমতি দেয়নি পুলিশ। সেই পরিস্থিতিতে মিছিল শুরু হতেই থারুর, রাহুল-সহ কংগ্রেস নেতাদের আটক করা হয়। রীতিমতো ধুন্ধুমার পরিস্থিতি তৈরি হয় বিজয় চকে। টেনেহিঁচড়ে একাধিক কংগ্রেস নেতাকে গাড়িতে তোলা হয়। কয়েকজন সাংসদকে মারধর করা হয়েছে বলেও দাবি করেছেন কংগ্রেস নেতা।

রাহুল বলেন, 'মুদ্রাস্ফীতির বিষয়টি উত্থাপন করার জন্য রাষ্ট্রপতি ভবনের দিকে মিছিল করে যাচ্ছিলেন কংগ্রেস সাংসদরা। কিন্তু ওরা (পুলিশ) আমাদের যেতে দিচ্ছে না। আমরা মানুষের প্রকৃত বিষয়গুলি তুলে ধরতে চাই। কয়েকজন সাংসদকে আটক করা হয়েছে। মারধরও করা হয়েছে কয়েকজন সাংসদকে।'

আরও পড়ুন: National Herald money laundering case: ইয়ং ইন্ডিয়ানের দফতর সিল করল ED, কংগ্রেসের সদর দফতরের বাইরে বাড়তি পুলিশ

বিজেপির প্রতিক্রিয়া

বিজেপি নেতা তথা প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী রবিশংকর প্রসাদ দাবি করেন, মুদ্রাস্ফীতি এবং বেকারত্ব নিয়ে স্রেফ নাটক করছে কংগ্রেস। আদালতে ইডিকে ভয় দেখানোর চেষ্টা করা হচ্ছে। অথচ কংগ্রেসের আমলে অন্ধকারে ডুবে গিয়েছিল ভারত। রবিশংকরের কথায়, 'রাহুল গান্ধীর ঠাকুমা দেশে জরুরি অবস্থার ঘোষণা করেছিলেন। আর আপনি আমাদের গণতন্ত্র নিয়ে জ্ঞান দিচ্ছেন? আমাদের দলেও গণতন্ত্র নেই।'

বন্ধ করুন