বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > করোনা আবহে ২০২০-২১ সময়কালে তৎকাল, প্রিমিয়াম তৎকাল বাবদ ৯৬৪ কোটি উপার্জন রেলের
ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই
ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই

করোনা আবহে ২০২০-২১ সময়কালে তৎকাল, প্রিমিয়াম তৎকাল বাবদ ৯৬৪ কোটি উপার্জন রেলের

  • করোনা আবহে ২০২০-২১, ২১-২২ অর্থবর্ষের সেপ্টেম্বর পর্যন্ত তৎকাল ও প্রিমিয়াম তৎকাল টিকিট বাবদ ৯৬৪ কোটি টাকা উপার্জন করেছে রেল।

করোনা পরিস্থিতিতে গত প্রায় এক বছরেরও বেশি সময় ধরে রেল পরিষেবা স্বাভাবিক ছিল না। দীর্ঘ কয়েক মাস রেল পরিষেবা বন্ধ থাকার পর ধীরে ধীরে স্পেশাল ট্রেনের মাধ্যমে ফের চালু হয় রেল পরিষেবা। আর এই আবহে ২০২০-২১, ২১-২২ অর্থবর্ষের সেপ্টেম্বর পর্যন্ত তৎকাল ও প্রিমিয়াম তৎকাল টিকিট বাবদ ৯৬৪ কোটি টাকা উপার্জন করেছে রেল। তৎকাল টিকিট বাবদ রেলের পকেটে এসেছে ৪০৩ কোটি টাকা এবং প্রিমিয়াম তৎকালের টিকিট থেকে ১১৯ কোটি টাকা আয় হয়েছে রেলের। একটি আরটিআইয়ের জবাবে রেলওয়ে এই তথ্য প্রকাশ করে। মধ্যপ্রদেশের বাসিন্দা চন্দ্রশেখর গৌড় এই তথ্য জানতে চেয়েছিলেন।

এদিকে ডায়নামিক ভাড়া বাবদ অতিরিক্ত ৫১১ কোটি টাকা আয় হয়েছে রেলের। উল্লেখ্য, রাজধানী, শতাব্দি আর দূরন্তের মতো কয়েকটি ট্রেনের ক্ষেত্রে ডায়নামিক ভাড়া প্রযোজ্য। অনেকটা বিমানের ভাড়ার মতো এই টিকিটের চাহিদা অনুযায়ী ভাড়া ওপর-নিচে যায়।

এদিকে ২০২১-২২ অর্থবর্ষে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত তৎকাল টিকিট থেকে ৩৫৩ কোটি টাকা আর প্রিমিয়াম তৎকাল টিকিট থেকে ৮৯ কোটি রোজগার করেছে রেল। তাছাড়া এই সময়কালে ডায়নামিক ভাড়া থেকে ২৪০ কোটি টাকা আয় করেছে রেল। এর আগে ২০১৯-২০-তে যখন ট্রেন চলাচলে কোনও নিষেধাজ্ঞা ছিল না, সেই সময় তৎকাল টিকিট থেকে ১,৬৬৯ কোটি টাকা, প্রিমিয়াম তৎকাল টিকিট থেকে ৬০৩ কোটি টাকা এবং ডায়নামিক ভাড়া বাবদ ১,৩১৩ কোটি টাকা রোজগার করেছিল রেল।

 

বন্ধ করুন