বাড়ি > ঘরে বাইরে > ১২ সেপ্টেম্বর থেকে চলবে আরও ৪০ জোড়া বিশেষ ট্রেন
১২ সেপ্টেম্বর থেকে চলবে আরও ৪০ জোড়া বিশেষ ট্রেন (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)
১২ সেপ্টেম্বর থেকে চলবে আরও ৪০ জোড়া বিশেষ ট্রেন (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)

১২ সেপ্টেম্বর থেকে চলবে আরও ৪০ জোড়া বিশেষ ট্রেন

এখন যে ২৩০ টি ট্রেন চলছে, তার পাশাপাশি নয়া বিশেষ ট্রেনগুলি চলবে।

চাহিদার উপর ভিত্তি করে আরও বিশেষ (স্পেশাল) ট্রেন চালানোর পরিকল্পনা নেওয়া হচ্ছিল। সেইমতো ভারতীয় রেলের তরফে জানানো হল, আগামী ১২ সেপ্টেম্বর থেকে দেশে আরও ৪০ জোড়া (৮০) বিশেষ ট্রেন চালু হবে। সেজন্য ১০ সেপ্টেম্বর থেকে সংরক্ষণ (রিজার্ভেশন) শুরু হবে। জানিয়েছে ভারতীয় রেল।

শনিবার রেলওয়ে বোর্ডের চেয়ারম্যান ভি কে যাদব বলেন, 'আগামী ১২ সেপ্টেম্বর থেকে ৮০ টি বা ৪০ জোড়া নয়া স্পেশাল ট্রেনের পরিষেবা শুরু হবে। ১০ সেপ্টেম্বর থেকে শুরু হবে সংরক্ষণ (রিজার্ভেশন)। এখন যে ২৩০ টি ট্রেন চলছে, তার পাশাপাশি এই ট্রেনগুলি চলবে।'

করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে গত ২২ মার্চ থেকে দেশজুড়ে অর্নিদিষ্টকালের জন্য বন্ধ আছে সাধারণ যাত্রীবাহী ট্রেন পরিষেবা। তারইমধ্যে গত ১২ মে থেকে দিল্লি থেকে দেশের বিভিন্ন প্রান্তে ১৫ জোড়া বিশেষ রাজধানী ট্রেন শুরু করে রেল। জুনের পয়লা তারিখ থেকে আরও ১০০ জোড়া দূরপাল্লার বিশেষ ট্রেন চালু করা হয়। পরে ১১ অগস্ট রেলের তরফে জানানো হয়েছিল, অনির্দিষ্টকালের জন্য সাধারণ যাত্রীবাহী ট্রেন (দূরপাল্লা, লোকাল) পরিষেবা বন্ধ থাকবে। 

তারইমধ্যে দিনকয়েক আগেই রেল মন্ত্রকের এক মুখপাত্র বলেছিলেন, ‘আরও বিশেষ ট্রেনের পরিকল্পনা করা হচ্ছে। আমরা রাজ্য সরকারগুলির সঙ্গে শলা-পরামর্শ করছি। আমরা শীঘ্রই ঘোষণা করব এবং সবাইকে জানিয়ে দেব, কবে থেকে সেগুলি চালু হবে।’

সেইমতো শনিবার নয়া স্পেশাল ট্রেনের বিষয়ে ঘোষণা করেছে রেল। পাশাপাশি রেলওয়ে বোর্ডের চেয়ারম্যান জানিয়েছেন, কোন কোন ট্রেনের ওয়েটিং লিস্ট বেশি আছে, তা খতিয়ে দেখা হবে। তিনি বলেন, 'যেখানেই কোনও নির্দিষ্ট ট্রেনের চাহিদা বেশি থাকবে, যেখানেই ওয়েটিং লিস্ট দীর্ঘ থাকবে, সেখানেই আমরা মূল ট্রেনের আগে একটি ক্লোন (একই গন্তব্যে যাবে) ট্রেন চালাব, যাতে যাত্রীরা যেতে পারেন।' একইভাবে রাজ্যের তরফে কোনও ট্রেনের দাবি করা হলে বা পরীক্ষার কারণে প্রয়োজন থাকলে বাড়তি ট্রেন চালানো হবে বলে জানিয়েছেন তিনি।

বন্ধ করুন