বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > এক মাসে ২০% বাড়তে পারে রাকেশ ঝুনঝুনওয়ালার কেনা এই শেয়ার, আপনার কেনা উচিত?
 ফাইল ছবি : রয়টার্স  (REUTERS)
 ফাইল ছবি : রয়টার্স  (REUTERS)

এক মাসে ২০% বাড়তে পারে রাকেশ ঝুনঝুনওয়ালার কেনা এই শেয়ার, আপনার কেনা উচিত?

ভারতের ওয়ারেন বুফেট নামেও মাঝে মাঝে রাকেশ ঝুনঝুনওয়ালাকে অভিহিত করা হয়। ফলে, তাঁর যে কোনও বিনিয়োগ বেশ তাত্পর্যপূর্ণ।

শেয়ার মার্কেটের বিষয়ে ক্ষুরধার জ্ঞান প্রখ্যাত বিনিয়োগকারী রাকেশ ঝুনঝুনওয়ালার। তাই তিনি বিনিয়োগ করছেন মানেই নিশ্চয় সেই শেয়ারে প্রচুর লাভের সম্ভাবনা আছে, এমনটাই মনে করেন বহু শেয়ার মার্কেট বিনিয়োগকারী। ভারতের ওয়ারেন বুফেট নামেও মাঝে মাঝে রাকেশ ঝুনঝুনওয়ালাকে অভিহিত করা হয়। ফলে, তাঁর যে কোনও বিনিয়োগ বেশ তাত্পর্যপূর্ণ।

আরও পড়ুন : মাত্র ২ বছরে ১ লাখ টাকা বেড়ে হয়েছে ৪ কোটি টাকা, কোন শেয়ার জানেন কি?

ফোর্টিস হেলথকেয়ার-এর শেয়ারের দিকে সেই কারণেই বেশি করে নজর দিচ্ছেন বিনিয়োগ বিশেষজ্ঞরা। তাঁদের মতে, সম্প্রতি বেশ ইতিবাচক প্যাটার্নে রয়েছে রাকেশ ঝুনঝুনওয়ালার পোর্টফোলিওর এই শেয়ার। ৩০০ থেকে ৩০২ টাকার স্তরের উপরে শেয়ারটি নতুন ব্রেকআউট দিতে পারে বলে ধারণা তাঁদের।

বাজার বিশেষজ্ঞদের মতে এটি এক মাসে ২০% পর্যন্ত বাড়তে পারে। ফলে বর্তমানে স্বল্প সময়ের মুনাফার জন্য এই শেয়ারে বিনিয়োগের পরামর্শ দিচ্ছেন তাঁরা।

আরও পড়ুন : ১০,০০০ টাকা বিনিয়োগ করে ১ কোটি টাকা রিটার্ন মিলেছে এই সংস্থায়!

চয়েস ব্রোকিং-এর এক্সিকিউটিভ ডিরেক্টর সুমিত বাগাদিয়া বলছেন, 'ফোর্টিস হেলথকেয়ার শেয়ার ২৬০ টাকার উপরে পৌঁছনোর পরে চার্ট প্যাটার্নে ইতিবাচক সংকেত দিচ্ছে।এটি শীঘ্রই ক্লোজিং ভিত্তিতে ৩০০ থেকে ৩০২ টাকার উপরে ব্রেকআউট দিতে পারে। শীঘ্রই স্বল্প মেয়াদে ৩৪০ টাকা পর্যন্ত যেতে পারে।'

শেয়ার প্রতি ২৬০-এ স্টপ লস বজায় রেখে বর্তমান বাজার মূল্যে এই শেয়ার ৩৪০ টাকার এক মাসের লক্ষ্যমাত্রা নিয়ে কিনতে পারেন। তিনি বলেন, ফোর্টিস হেলথকেয়ারের শেয়ার গত এক সপ্তাহে প্রায় ১১% বেড়েছে। ফলে আগামিদিনেও কিছু লাভ হতে পারে। তাছাড়া ২৬০ টাকার দামেই স্টপ লস রেখে দিলে টাকা হারানোরও ভয় নেই। ফলে এটি একটি ভালো সুযোগ।

ফোর্টিস হেলথকেয়ার শেয়ারের বৃদ্ধির আশা করছেন ShareIndia-এর হেড অফ রিসার্চ এবং ভাইস প্রেসিডেন্ট রবি সিং-ও। তিনি বললেন, 'ফোর্টিস হেলথকেয়ারের শেয়ারের দাম বর্তমানে প্রায় ২৮০ টাকা। চলতি বছরের অগস্টে এটি ৩০৩.৮০ টাকায় পৌঁছেছিল। আপাতত সংস্থার সুষ্ঠ পরিকাঠামো, ভাল উপার্জন, উন্নত PAT, ঋণ ও দায় হ্রাস এবং EBITDA বৃদ্ধি পাচ্ছে। এটি শীঘ্রই শেয়ার দর বৃদ্ধি পাওয়ার পূর্বাভাস দিচ্ছে।'

রবি সিংয়ের মতে, স্টপ লস ২৫০-২৬০ টাকায় রাখা যেতে পারে। কিন্তু মাঝারি থেকে দীর্ঘমেয়াদের জন্যও এখানে টাকা রাখা যেতে পারে। জুলাই থেকে সেপ্টেম্বর ২০২১-এর ত্রৈমাসিকে রাকেশ ঝুনঝুনওয়ালার শেয়ারহোল্ডিং প্যাটার্ন অনুসারে, ফোর্টিস হেলথকেয়ারের ৩,১৯,৫০,০০০ কোম্পানি শেয়ার রয়েছে। এটি সংস্থার মোট শেয়ারের ৪.২৩ শতাংশ।

আরও পড়ুন : Paytm শেয়ারবাজারে প্রবেশ করতেই রাতারাতি কোটিপতি সংস্থার ৩৫০ কর্মী

দ্রষ্টব্য: উপরে দেওয়া মতামত এবং সুপারিশ পৃথক বিশ্লেষক বা ব্রোকিং সংস্থার। সম্পাদক বা প্রতিবেদকের নয়।

বন্ধ করুন