ফাইল ছবি  (MINT_PRINT)
ফাইল ছবি (MINT_PRINT)

Mutual Fund ক্ষেত্রকে বাঁচানোর জন্য ৫০ হাজার কোটি টাকার লাইফলাইন দিল RBI

Franklin Templeton তাদের ছটি মিউচুয়াল ফান্ড বন্ধ করার ঘোষণার পর মাঠে নামল শীর্ষ ব্যাঙ্ক

মিউচুয়াল ফান্ড শিল্পকে বাঁচানোর জন্য ৫০,০০০ কোটি টাকার বিশেষ লিক্যুইডিটি ফেসিলিটি বা আর্থিক পরিষেবা দেওয়ার কথা ঘোষণা করল রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া। গত সপ্তাহেই Franklin Templeton তাদের ছটি মিউচুয়াল ফান্ড বন্ধ করার ঘোষণা করেছিল। তারপরেই রীতিমত আতঙ্কে পড়ে যায় মিউচুয়াল ফান্ড শিল্প, কারণ লকডাউনের জেরে অর্থের অভাবে ভুগছে সবাই। সেখানে ত্রাতার ভূমিকায় উপস্থিত হল রিজার্ভ ব্যাঙ্ক।

এই লিক্যুইড ফেসিলিটি ২৭ এপ্রিল থেকে ১১ মে অবধি লাগু থাকবে, যদি না তার আগেই এই অর্থ শেষ হয়ে যায়। প্রয়োজনে সময়সীমা ও অর্থ, উভয়ই বৃদ্ধি করা যেতে পারে, সেই ইঙ্গিতও দিয়েছে আরবিআই।এই স্কিমের আওতায় আরবিআই অল্প সুদে ব্যাঙ্কদের টাকা ধার দেবে যেটা ব্যাঙ্করা মিউচুয়াল ফান্ড খাটাতে পারবে।

ব্যাঙ্কগুলি মিউচুয়াল ফান্ডদের কাছে ধার নিতে পারবে কিছু কোল্যাটারেল জমা দিয়ে। ব্যাঙ্কগুলি সোম থেকে শুক্রবার ( ছুটির দিন ছাড়া) ফান্ডিং নিতে পারবে বিড জমা দিয়ে। এছাড়াও রেপো অপারেশনের মাধ্যমে বাজারে আরও টাকা প্রবেশ করাবে আরবিআই।

কোভিডের জেরে যে বেহাল আর্থিক হাল, সেটায় হাল সামলাতে যা যা করা দরকার, সেটা করা হবে বলে ফের আশ্বাস দিয়েছে আরবিআই। তবে আপাতত খুব ঝুঁকিপূর্ণ মিউচুয়াল ফান্ড সেক্টরেই সংকট আছে বলে মনে করছে শীর্ষ ব্যাঙ্ক। বাকিগুলিতে পরিস্থিতি অতটা খারাপ না। প্রসঙ্কত ফ্ল্যাঙ্কলিনের ডেবিট ফান্ডগুলি সবই সেরকম ছিল।

ক্যাপিটাল মার্কেটে কোভিডের জেরে যে ওঠানামা চলছে সেটার প্রভাব পড়ছে মিউচুয়াল ফান্ডের ওপর। কিছু মিউচুয়াল ফান্ড বন্ধ হওয়ায় চাপ আরও বেড়েছে বলেই মনে করে আরবিআই।

বিশেষজ্ঞদের মতে আরবিআইয়ের এই সিদ্ধান্তের ফলে মিউচুয়াল ফান্ডগুলির পূণর্জ্জীবিত হতে সুবিধা হবে। নিজেদের ন্যাভের মূল্য না কমিয়ে এভাবেই হাল ফেরাতে পারবে ফান্ডগুলি।


বন্ধ করুন