বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > Russia Ukraine Crisis: কিছুটা ‘সুস্থ’ হল বাজার, ইউক্রেনে ‘যুদ্ধের’ মধ্যে পতনের অর্ধেক উসুল করল সেনসেক্স ও নিফটি
ইউক্রেনে ‘যুদ্ধের’ দ্বিতীয় দিনে অনেকটা চাঙ্গা হল শেয়ার বাজার। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্যে রয়টার্স)

Russia Ukraine Crisis: কিছুটা ‘সুস্থ’ হল বাজার, ইউক্রেনে ‘যুদ্ধের’ মধ্যে পতনের অর্ধেক উসুল করল সেনসেক্স ও নিফটি

  • শুক্রবার বাজারে সবথেকে লাভের মুখ দেখছে কোল ইন্ডিয়া, টাটা মোটর্স, টাটা স্টিল, আদানি পোর্টের মতো সংস্থা।

ধাক্কা পুরোপুরি সামলে ওঠা গেল না। তবে ইউক্রেনে ‘যুদ্ধের’ দ্বিতীয় দিনে অনেকটা চাঙ্গা হল শেয়ার বাজার। ২.৫ শতাংশের মতো বাড়ল সেনসেক্স এবং নিফটি৫০। ঊর্ধ্বমুখী থাকল একাধিক সংস্থার শেয়ারও। লাভের মুখ দেখল টাটা মোটর্স, টাটা স্টিল, আদানি পোর্টের মতো সংস্থা।

রাশিয়ার ‘সামরিক অভিযান’ ঘোষণার গুঁতোয় বৃহস্পতিবার ২,৭০০ পয়েন্ট পড়েছিল সেনসেক্স। শুক্রবার উত্থানের পর সেনসেক্স সেই লোকসান পুষিয়ে নিতে না পারলেও কিছুটা স্বস্তি পেয়েছে শেয়ার বাজার। আজ ১৩২৮.৬১ পয়েন্ট বা ২.৪৪ শতাংশ বেড়ে বাজার বন্ধের সময় সেনসেক্স দাঁড়িয়েছে ৫৫৮৫৮.৫২-তে। দিনের শুরুতে অবশ্য আরও বেশি উত্থান হয়েছিল। ছাড়িয়ে গিয়েছিল ৫৬,০০০ পয়েন্টের গণ্ডি। দিনের শেষে ৫৬,০০০ পয়েন্টের নীচেই থাকতে হয়েছে। একই প্রবণতা দেখা গিয়েছে নিফটি৫০-র ক্ষেত্রেও। বৃহস্পতিবার যতটা পতন হয়েছিল, তার অর্ধেক পুষিয়ে নিতে পেরেছে শেয়ার বাজারের সূচক। শুক্রবার বাজার বন্ধের সময় ৪১৪.৪ পয়েন্ট বেড়ে নিফটি৫০ ঠেকেছে ১৬,৬৫৮.৪-তে। 

শুক্রবার বাজারে সবথেকে লাভের মুখ দেখছে কোল ইন্ডিয়া, টাটা মোটর্স, টাটা স্টিল, আদানি পোর্টের মতো সংস্থা। যে সংস্থাগুলি বৃহস্পতিবার বড়সড় লোকসানের মুখে পড়েছিল। তারইমধ্যে শুক্রবার রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্ক, শক্তি, ইস্পাত মতো সংস্থার উত্থান হয়েছে। তবে ধাক্কা খেয়েছে হিন্দুস্তান ইউনিলিভার, ব্রিটানিয়া, নেসলের মতো অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ সংস্থা।

উল্লেখ্য, আমেরিকা ও ন্যাটোর হুঁশিয়ারি সত্ত্বেও শুক্রবারও ইউক্রেনে ‘সামরিক অভিযান’ জারি রেখেছে রাশিয়া। বৃহস্পতিবার নতুন করে একগুচ্ছ মার্কিন নিষেধাজ্ঞা চাপানো হলেও নিজের অবস্থানে অনড় রইলেন ভ্লাদিমির পুতিন। যদিও পশ্চিমী দুনিয়ার অবস্থানে হতাশা প্রকাশ করেছেন ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি। তিনি বলেছেন, ‘রাশিয়ার বিরুদ্ধে লড়াই করতে ইউক্রেনকে একা ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।’ তারইমধ্যে ‘যুদ্ধের’ জেরে যে ভারতীয়রা ইউক্রেনে আটকে পড়ছেন, তাঁদের ফেরাতে বিকল্প রুটের ব্যবস্থা করছে নয়াদিল্লি। 'হিন্দুস্তান টাইমস'-কে কেন্দ্রীয় অসামরিক বিমান পরিবহণ মন্ত্রক জানিয়েছে, আজ দুপুর দুটোয় উড়বে এয়ার ইন্ডিয়ার এআই ১৯৪১ বিমান। বিকেল চারটেয় দিল্লি থেকে এয়ার ইন্ডিয়ার এআই১৯৪৩ বিমান উড়বে। দুটি বিমানই ড্রিমলাইনার। তাতে ২৫৬ জন করে যাত্রী উঠতে পারবেন। তবে কতজন ভারতীয় ফিরবেন, তা নিয়ে নিশ্চয়তা নেই। যাত্রী সংখ্যা ৫০০ হতে পারে বলে ধারণা ওই মহলের। শনিবার সকালে দুটি বিমান দেশে ফিরতে পারে।

বন্ধ করুন