বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > SC On Freebies: ‘সংসদে খয়রাতি প্রসঙ্গে আলোচনা হোক’, বিনামূল্যের রাজনীতি ইস্যুতে কী পদক্ষেপ SC-র?

SC On Freebies: ‘সংসদে খয়রাতি প্রসঙ্গে আলোচনা হোক’, বিনামূল্যের রাজনীতি ইস্যুতে কী পদক্ষেপ SC-র?

সুপ্রিম কোর্ট। (AP) (HT_PRINT)

শীর্ষ আদালতের তরফে বলা হয়, ‘ভালো উদ্দেশ্য’ নিয়েই এই প্রসঙ্গটি উত্থাপিত করা হয়েছিল। সুপ্রিম কোর্টের তরফে আশা ব্যক্ত করা হয় যে সংসদে খয়রাতি প্রসঙ্গে আলোচনা হবে এবং সুপ্রিম কোর্টের তৈরি করে দেওয়া কমিটির সুপারিশ মেনে একটি আইনও তৈরি করা হবে।

উৎকর্ষ আনন্দ

খয়রাতি প্রসঙ্গে আলোচনা হোক সংসদে। এমনটাই চায় সুপ্রিম কোর্ট। মঙ্গলবার রাজনৈতিক খয়রাতি সংক্রান্ত মামলার শুনানি চলাকালীন শীর্ষ আদালতের তরফে বলা হয়, ‘ভালো উদ্দেশ্য’ নিয়েই এই প্রসঙ্গটি উত্থাপিত করা হয়েছিল। সুপ্রিম কোর্টের তরফে আশা ব্যক্ত করা হয় যে সংসদে খয়রাতি প্রসঙ্গে আলোচনা হবে এবং সুপ্রিম কোর্টের তৈরি করে দেওয়া কমিটির সুপারিশ মেনে একটি আইনও তৈরি করা হবে।

এর আগে গত জানুয়ারিতে বিজেপি নেতা তথা আইনজীবী অশ্বিনী উপাধ্যায় সুপ্রিম কোর্টে জনস্বার্থ মামলা দায়ের করে আর্জি জানিয়েছিলেন যাতে রাজনৈতিক দলের তরফে বিনামূল্যে পণ্য ও পরিষেবা দানের প্রতিশ্রুতি নিষিদ্ধ করা হোক। তবে মঙ্গলবার প্রধান বিচারপতি বেঞ্চ জানিয় দেয়, তারা কোনও কিছু নিষিদ্ধ করছে না। সংসদকে এই বিষয়ে আইন তৈরির করতেও নির্দেশ দিচ্ছে না শীর্ষ আদালত। তবে প্রধান বিচারপতি এনভি রামানা আশা ব্যক্ত করেন যে এই নিয়ে সংসদে আলোচনা শুরু হবে।

আরও পড়ুন: ‘বোধগম্য নয়…’, বকেয়া DA নিয়ে অসন্তুষ্ট তৃণমূল সমর্থিত সরকারি কর্মচারী ইউনিয়নও

প্রধান বিচারপতির বেঞ্চ বলে, ‘আমরা মনে করি কমিটিতে এমন কিছু লোক থাকতে পারেন যারা মানুষের কল্যাণের পাশাপাশি অর্থনীতি নিয়েও উদ্বিগ্ন। তারা সংসদকে কিছু পরামর্শ দিতে পারে। পরে সংসদ সেই সুপারিশের ভিত্তিতে একটি আইন প্রণয়নের বিষয়ে বিবেচনা করতে পারে... সংসদে বিতর্ক শুরু করার জন্য, একটা পটভূমিকা প্রয়োজন এবং আমরা ভেবেছিলাম এই কমিটি সেই লক্ষ্যে কিছু পরামর্শ দিতে পারে।’

আরও পড়ুন: পুজোয় ক্লাবগুলোকে অনুদান ২৫৮ কোটি! বকেয়া DA কবে দেবে রাজ্য সরকার? মিলছে না হিসেব

শীর্ষ আদালতের তরফে বলা হয়, ‘এই ইস্যুতে, আমরা বলতে পারি বিজেপি এবং কংগ্রেস সহ সমস্ত রাজনৈতিক দলই একপক্ষে। তাদের সবাই বিনামূল্যের প্রতিশ্রুদি দিতে চান। এজন্য আমরা কিছু যোগ্য লোকের দ্বারা একটি নিরপেক্ষ প্ল্যাটফর্মে এই নিয়ে আলোচনা চেয়েছিলাম। দেশের জনগণের কল্যাণ এবং অর্থনীতির বিষয়ে ভালো উদ্দেশ্য নিয়ে আমরা এই বিষয়ে আলোচনা শুরু করেছি... আমাদের ভারসাম্য বজায় রাখতে হবে। আমরা কোনও সরকারের নীতির বিরুদ্ধে নই। আমরাও আইন করতে যাচ্ছি না। আমরা শুধু একটি আলোচনা চেয়েছিলাম। কারণ কেউ অস্বীকার করবেন না যে এটা একটা সমস্যা।’

বন্ধ করুন