বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > মথুরায় কৃষ্ণের ‘প্রকৃত জন্মস্থানে’ মূর্তি স্থাপনের হুঁশিয়ারি, জারি ১৪৪ ধারা
মথুরার ইদগাহ নিয়ে বিতর্ক বহুদিনের (ছবিটি প্রতীকী) (HT_PRINT)

মথুরায় কৃষ্ণের ‘প্রকৃত জন্মস্থানে’ মূর্তি স্থাপনের হুঁশিয়ারি, জারি ১৪৪ ধারা

  • মথুরা জেলা প্রশাসন ১৪৪ ধারা জারি করেছে। ঘটনার প্রেক্ষিতে জেলা শাসক নবনীত সিং চাহাল বলেন, ‘কাউকে মথুরার শান্তি বিঘ্নিত করতে দেওয়া হবে না।’ 

ভগবান শ্রীকৃষ্ণের ‘প্রকৃত জন্মস্থানে’ কৃষ্ণের মূর্তি স্থাপন করা হবে বলে ‘হুঁশিয়ারি’ দিয়েছে ভারত হিন্দু মহাসভা। আর এই হুঁশিয়ারির পরই মথুরা জেলা প্রশাসন ১৪৪ ধারা জারি করেছে। উল্লেখ্য, এখানে একটি বিশিষ্ট মন্দিরের কাছাকাছি একটি মসজিদে রয়েছে। আর এই আবহে হিন্দু মহাসভার মূর্তি স্থাপনের হুঁশিয়ারিতে এলাকার সম্প্রীতি নষ্ট হতে পারে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করা হচ্ছে। 

ঘটনার প্রেক্ষিতে জেলা শাসক নবনীত সিং চাহাল বলেন, ‘কাউকে মথুরার শান্তি বিঘ্নিত করতে দেওয়া হবে না।’ এদিকে হিন্দু মহাসভার পাশাপাশি আরও কটি ডানপন্থী সংগঠন ‘নারায়ণী সেনা’ মসজিদের ‘অপসারণের’ দাবি করেছে। এই দাবিতে তারা  বিশ্রাম ঘাট থেকে শ্রী কৃষ্ণ জন্মস্থান পর্যন্ত একটি পদযাত্রা করবে বলে। এই পদযাত্রা রুখতেও বদ্ধপরিকর স্থানীয় প্রশাসন।

পুলিশ জানিয়েছে যে তারা নারায়ণী সেনা সচিব অমিত মিশ্রকে মথুরা কোতোয়ালিতে আটক করেছে। এদিকে সংগঠনটি দাবি করেছে যে তাদের জাতীয় সভাপতি মনীশ যাদবকে লখনউতে আটক করা হয়েছে। নবনীত সিং চাহাল জানান, তিনি সিনিয়র পুলিশ সুপার গৌরব গ্রোভারের সঙ্গে মিলে ধর্মীয় স্থান, কাটরা কেশব দেব মন্দির এবং শাহী ইদগাহ উভয়ের নিরাপত্তা পর্যালোচনা করেছেন। তিনি আরও জানান, হিন্দু মহাসভা মসজিদে মূর্তি স্থাপনের অনুমতি চেয়েছিল কিন্তু তা প্রত্যাখ্যান করা হয়েছে। 

উল্লেখ্য, এর আগে হিন্দু মহাসভার নেত্রী রাজ্যশ্রী চৌধুরী দাবি করেছিলেন যে তাঁর সংগঠন ৬ ডিসেম্বর শাহী ইদগাহকে ‘শুদ্ধ’ করার জন্য ‘মহা জলাভিষেক’ করা হবে। এরপর সেখানে ভগবান কৃষ্ণের মূর্তি স্থাপন করা হবে বলে দাবি করেছিলেন তিনি।

 

বন্ধ করুন