বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > ‘‌আমি আমরণ অনশনে বসব’‌, এবার চান্নি সরকারের অস্বস্তি বাড়িয়ে হুঁশিয়ারি সিধুর
প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি নভজ্যোৎ সিং সিধু।
প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি নভজ্যোৎ সিং সিধু।

‘‌আমি আমরণ অনশনে বসব’‌, এবার চান্নি সরকারের অস্বস্তি বাড়িয়ে হুঁশিয়ারি সিধুর

  • সামনেই পাঞ্জাবে ভোট। ঠিক তার প্রাক্কালে এই হুঁশিয়ারি বেকায়দায় ফেলল চান্নী সরকারকে বলে মনে করা হচ্ছে।

নিজেদের সরকারের বিরুদ্ধেই অনশনের হুঁশিয়ারি দিলেন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি নভজ্যোৎ সিং সিধু। আর তাতেই গোটা পাঞ্জাবে বিস্তর ডামাডোল দেখা গেল। মাদক পাচারের বিষয়ে সিট গঠন না করা পর্যন্ত এই অনশন চলবে বলে তিনি হুঁশিয়ারি দিয়েছেন। আর তাতেই নতুন করে অস্বস্তিতে পড়ল চরণজিৎ সিং চান্নী সরকার।

সামনেই পাঞ্জাবে ভোট। ঠিক তার প্রাক্কালে এই হুঁশিয়ারি বেকায়দায় ফেলল চান্নী সরকারকে বলে মনে করা হচ্ছে। সরকার বনাম দলের মধ্যে এই দ্বৈরথে ভুল বার্তা পৌঁছচ্ছে মানুষের কাছে। এই বিষয়ে ঠিক কী বলেছেন সিধু?‌ এদিন বাঘাপুরানা শহরের জমায়েতে দাঁড়িয়ে তিনি হুঁশিয়ারি দেন, ‘‌আমি আপনাদের বলছি, যদি পাঞ্জাব সরকার মাদক সংক্রান্ত বিষয়ের রিপোর্ট জনসমক্ষে না আনে তাহলে আমি (‌সিধু)‌ অনশনে বসব। আর তা চলবে আমার মৃত্যু না হওয়া পর্যন্ত।’‌

উল্লেখ্য, মাদক পাচার সংক্রান্ত সমস্যার মোকাবিলা করার প্রতিশ্রুতি দিয়েই পাঞ্জাবে ক্ষমতায় এসেছিল কংগ্রেস। সিধুর অভিযোগ, এই ইস্যু নিয়ে এখনও সঠিকভাবে কাজ করতে পারেনি রাজ্য সরকার। সম্প্রতি মাদক সংক্রান্ত রিপোর্ট হাইকোর্টে জমা দিয়েছে রাজ্যের তদন্তকারী সংস্থা। এবার সেই রিপোর্ট জনসমক্ষে আনার দাবি তুললেন সিধু।

এদিন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি বলেন, ‘সরকার মাদক–রিপোর্ট প্রকাশ্যে না আনলে অনশনে বসব। সাধারণ মানুষকে জানানো দরকার, কেন ওই রিপোর্ট প্রকাশ্যে আনেনি আগের অমরিন্দর সিং সরকার। আদালত তো রাজ্য সরকারকে রিপোর্ট প্রকাশ্যে আনতে নিষেধ করেনি।’‌ এই সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন মুখ্যমন্ত্রী চান্নি স্বয়ং। তবে তিনি সামান্য সময় থেকে চলে যান।

বন্ধ করুন