বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > করোনা সংকট মোকাবিলায় বাধা হয়ে দাঁড়াচ্ছে কুসংস্কার ও গুজব, দাবি নমোর
সোমবার করোনাভাইরাস সংক্রান্ত ভিডিয়ো কনফারেন্সে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। ছবি: পিটিআই।
সোমবার করোনাভাইরাস সংক্রান্ত ভিডিয়ো কনফারেন্সে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। ছবি: পিটিআই।

করোনা সংকট মোকাবিলায় বাধা হয়ে দাঁড়াচ্ছে কুসংস্কার ও গুজব, দাবি নমোর

  • দেশের দরিদ্র ও পিছিয়ে পড়া শ্রেণির সেবায় মহাত্মা গান্ধীর আদর্শ পালন করার সময় সমাজে লালিত কুসংস্কার ও মিথ্যা রটনা দূর করা জরুরি, দাবি প্রধানমন্ত্রীর।

করোনাভাইরাস সংক্রমণ রোধ করতে দেশ দৃঢ়প্রতিজ্ঞ হলেও কোথাও কোথাও লকডাউনের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে সামাজিক জনসমাগম হচ্ছে বলে অভিযোগ জানালেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।

সোমবার ভিডিয়ো কনফারেন্সের মাধ্যমে সামাজিক উন্নয়ন সংস্থার প্রতিনিধিদের সঙ্গে আলোচনায় প্রধানমন্ত্রী উদ্বেগ প্রকাশ করে বলেন, দেশের দরিদ্র ও পিছিয়ে পড়া শ্রেণির সেবায় মহাত্মা গান্ধীর আদর্শ পালন করার সময় সমাজে লালিত কুসংস্কার ও মিথ্যা রটনা দূর করতে সক্রিয় হতে পারেন ওই সমস্ত সংস্থার কর্মীরা।

তিনি গান্ধীর আদর্শ সম্পর্কে আলোচনা করার সময় উল্লেখ করেন, দেশের পিছিয়ে পড়া অনুন্নত শ্রেণির সেবা করাই দেশসেবার শ্রেষ্ঠ উপায়। এই বিষয়ে সামাজিক সংগঠনগুলির ভূমিকার ভূয়সী প্রশংসা করেন নমো।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, দজরিদ্র শ্রেণির মৌলিক প্রয়োজন মেটাতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে পারে সামাজিক সংগঠনগুলি। পীড়িত অনুন্নত শ্রেণির সহায়তায় তাঁদের চিকিৎসা পরিষেবা ও আর্তের সেবায় স্বেচ্ছাসেবীদের নিষ্ঠা উল্লেখযোগ্য প্রভাব ফেলে বলেও জানান মোদী। তাঁর মতে, সমস্যা মোকাবিলায় দেশের প্রয়োজনে দীর্ঘ ও স্বল্প মেয়াদী সংস্কারমূলক নীতি প্রয়োগ জরুরি।

তবে এই মুহূর্তে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ কাজ কুসংস্কার ও গুজব দূর করা, জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, শুধুমাত্র অন্ধ বিশ্বাসের কারণে করোনাভাইরাস রোধে জারি করা লকডাউন অমান্য করে বিপদ ডেকে আনছেন সমাজের অনুন্নত শ্রেণির নাগরিকরা। এই অভ্যাস দ্রুত পরিবর্তনের দরকার রয়েছে বলে এ দিন মন্তব্য করেন মোদী।

বন্ধ করুন