বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > কোভিডে কেউ মারা গেলে দিতে হবে ১ কোটি, দ্বাদশের পরীক্ষা নিয়ে তোপের মুখে অন্ধ্র
 (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য সঞ্চিত খান্না/হিন্দুস্তান টাইমস)
 (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য সঞ্চিত খান্না/হিন্দুস্তান টাইমস)

কোভিডে কেউ মারা গেলে দিতে হবে ১ কোটি, দ্বাদশের পরীক্ষা নিয়ে তোপের মুখে অন্ধ্র

  • কোভিড পরিস্থিতিতে দ্বাদশের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত করা নিয়ে সুপ্রিমকোর্টের তোপের মুখে পড়ল অন্ধ্রপ্রদেশ।

কোভিড পরিস্থিতিতে দ্বাদশের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত করা নিয়ে সুপ্রিমকোর্টের তোপের মুখে পড়ল অন্ধ্রপ্রদেশ। এদিন শীর্ষ আদালতের তরফে স্পষ্ট হুঁশিয়ারি দিয়ে জানানো হয়, কোভিডে আক্রান্ত হয়ে কোনও পরীক্ষার্থীর মৃত্যু হলে মৃতের পরিবারকে ১ কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ দিতে হবে অন্ধ্রপ্রদেশ সরকারকে। কোভিড মোকাবিলায় অন্ধ্রপ্রদেশ সরকারের ব্যবস্থাপনা নিয়েও রিপোর্ট তলব করে সুপ্রিমকোর্ট।

এদিন শীর্ষ আদালতে অন্ধ্রপ্রদেশ সরকারের পক্ষ থেকে বলা হয় এবছর মোট ৫ লক্ষ ২০ হাজার পরীক্ষার্থী দ্বাদশের পরীক্ষা দেবে। পরীক্ষার্থীরা ৩৪ হাজার ঘরে বসবে। অন্ধ্র প্রশাসনকে এই তথ্যের প্রেক্ষিতে শীর্ষ আদালত প্রশ্ন করে, কীভাবে শারীরিক দূরত্ব বজায় রেখে এত জনের পরীক্ষা নেওয়া হবে? সরকার এর জবাবে দাবি করে, একটি ঘরে ১৫-১৮ জন পড়ুয়া থাকবে। যদিও সেই দাবি মানতে নারাজ আদালত।

উল্লেখ্য, এখনও পর্যন্ত ২১টি রাজ্য দ্বাদশ শ্রেণির পরীক্ষা বাতিল করেছে। পরীক্ষার আয়োজন করা হয়েছে ৬টি রাজ্যে। করোনা আবহে পরীক্ষা বাতিলের দাবি জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে চিঠি লিখেছিলেন লক্ষ লক্ষ ছাত্রছাত্রী ও অভিভাবক। করোনা ভাইরাসের দ্বিতীয় ঢেউ দেশে প্রবল আকার ধারণ করার পর প্রথমে দশম শ্রেণির পরীক্ষা বাতিল করা হয়েছিল। স্থগিত রাখা হয়েছিল দ্বাদশের পরীক্ষা। কিন্তু পরে দ্বাদশ শ্রেণির পরীক্ষাও বাতিল করে দেয় বিভিন্ন বোর্ড। এই পরিস্থিতিতে অন্ধ্রের দ্বাদশের পরীক্ষার বাতিলের দাবি জানিয়ে শীর্ষ আধালতের দ্বারস্থ হন পড়ুয়ারা।

এদিকে এদিন অপর এক মামলার প্রেক্ষিতে শীর্ষ আদালত নির্দেশ দিয়ে জানায়, আগামী ৩১ জুলাইয়ের মধ্যে রাজ্যগুলিকে ঘোষণা করতে হবে দ্বাদশের ফল। দ্বাদশ শ্রেণির ছাত্রছাত্রীদের জন্য অন্তর্বর্তী মূল্যায়নের কর্মসূচি তৈরি করে, তার ভিত্তিতে পরীক্ষার ফল ঘোষণা করতে হবে। শীর্ষ আদালতের নির্দেশ, আগামী ৩১ জুলাইয়ের মধ্যেই এই গোটা প্রক্রিয়া সেরে ফেলতে হবে রাজ্যের বোর্ডগুলিকে।

বন্ধ করুন