বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > হজরত মহম্মদকে নিয়ে ক্লাসে ব্যঙ্গচিত্র, ফ্রান্সে মুণ্ডচ্ছেদ শিক্ষকের
ঘটনাস্থলে মোতায়েন পুলিশ (ছবি সৌজন্য রয়টার্স)
ঘটনাস্থলে মোতায়েন পুলিশ (ছবি সৌজন্য রয়টার্স)

হজরত মহম্মদকে নিয়ে ক্লাসে ব্যঙ্গচিত্র, ফ্রান্সে মুণ্ডচ্ছেদ শিক্ষকের

  • ঘটনাস্থলে যাচ্ছেন ফরাসি প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাকরঁর।

ক্লাসে হজরত মহম্মদের ব্যঙ্গচিত্র নিয়ে আলোচনা করছিলেন এক শিক্ষিক। সেজন্য প্যারিসের শহরতলির রাস্তায় গলার নলি কেটে তাঁকে খুন করল এক আততায়ী। তাঁর মুণ্ডচ্ছেদও করা হয়েছে। পরে সন্দেহভাজন আতাতায়ীকে গুলি করে নিকেশ করেছে পুলিশ। এক পুলিশ আধিকারিককে উদ্ধৃত করে একথা জানিয়েছেন সংবাদসংস্থা পিটিআই।

শুক্রবার উত্তর-পশ্চিম প্যারিসের এরাগনিতে সেই ঘটনা ঘটেছে। সেই হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে সন্ত্রাসবাদের কোনও যোগ আছে কিনা, তা খতিয়ে দেখতে তদন্ত শুরু করেছে ফ্রান্সের সন্ত্রাস দমন শাখা। এক পুলিশ আধিকারিককে উদ্ধৃত করে পিটিআই জানিয়েছে, সন্দেহভাজন আতাতায়ীর হাতে একটি ছুরি এনং এয়ারসফট গান ছিল। যেখানে ওই শিক্ষককে খুন করা হয়েছে, তার ৬০০ মিটার দূরেই সন্দেহভাজনকে নিকেশ করেছে পুলিশ। 

সংবাদসংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, গত ৯ অক্টোবর একাধিক টুইট করা হয়েছিল। তাতে অভিযোগ করা হয়েছিল, হজরত মহম্মদের ব্যঙ্গচিত্র দেখিয়েছিলেন ওই শিক্ষক। সেই টুইটের মধ্যে একটি ভিডিয়োও ছিল। তাতে সে দাবি করে, তার মেয়ে ক্লাসে ছিল। শিক্ষকের আচরণে তার মেয়ে হতভম্ব হয়ে গিয়েছিল। তবে ভিডিয়োর সত্যতা যাচাই করতে পারেনি রয়টার্স। একইসঙ্গে পুলিশের সূত্রকে উদ্ধৃত করে রয়টার্স জানিয়েছে, আততায়ী একটি ধর্মের স্লোগান দিচ্ছিল। তবে পুলিশের মুখপাত্র জানিয়েছেন, সেই তথ্য খতিয়ে দেখা হচ্ছে। 

ফ্রান্সের বিএফএম টিভি জানিয়েছে, যেখানে ওই শিক্ষককে হত্যা করা হয়েছে, সেখানে যাবেন ফরাসি প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাকরঁর। সেই ঘটনা নিয়ে ইতিমধ্যে শুক্রবার সন্ধ্যায় অভ্যন্তরীণ মন্ত্রকের সঙ্গে বৈঠকও করেছেন তিনি।

বন্ধ করুন