বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > Tripura: বিজেপিকে পাল্টা চাপে ফেলতে রাজভবন ঘেরাও কর্মসূচি তৃণমূল কংগ্রেসের, তুঙ্গে চর্চা

Tripura: বিজেপিকে পাল্টা চাপে ফেলতে রাজভবন ঘেরাও কর্মসূচি তৃণমূল কংগ্রেসের, তুঙ্গে চর্চা

রাজভবন ঘেরাও কর্মসূচি

দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধি এবং বেকারত্বের কারণে সোনামুড়া তৃণমূল কংগ্রেস দলীয় কার্যালয় থেকে সোনামুড়া রবীন্দ্র চৌমুহনি পর্যন্ত প্রতিবাদ মিছিল করা হয়েছে। মিছিলের নেতৃত্বে ছিলেন ত্রিপুরা প্রদেশ তৃণমূল কংগ্রেসের ইনচার্জ রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়, রাজ্যসভার সাংসদ সুস্মিতা দেব, শান্তনু সাহা–সহ অন্যান্যরা।

বিজেপি যখন বাংলায় দুর্নীতি ইস্যুতে রাস্তায় নেমে তৃণমূল কংগ্রেসকে আক্রমণ করছে তখন পাল্টা দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধি এবং আইনশৃঙ্খলা ইস্যুতে বিজেপির বিরোধিতায় সোমবার ত্রিপুরার রাজপথে নামছে তৃণমূল কংগ্রেস। এমনকী সরাসরি রাজভবন অভিযানের ডাক দিয়েছে তৃণমূল কংগ্রেস। আগামীকাল, সোমবার আগরতলায় সেই অভিযান হবে। এই নিয়ে জোর আলোড়ন পড়ে গিয়েছে।

বিষয়টি ঠিক কী ঘটতে চলেছে?‌ এই রাজভবন অভিযানকে কেন্দ্র করে আজ ত্রিপুরা প্রদেশ যুব তৃণমূল কংগ্রেসের সিপাহীজলা–সহ একাধিক জায়গায় বিক্ষোভ মিছিল করেছে। দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধি এবং বেকারত্বের কারণে সোনামুড়া তৃণমূল কংগ্রেস দলীয় কার্যালয় থেকে সোনামুড়া রবীন্দ্র চৌমুহনি পর্যন্ত প্রতিবাদ মিছিল করা হয়েছে। মিছিলের নেতৃত্বে ছিলেন ত্রিপুরা প্রদেশ তৃণমূল কংগ্রেসের ইনচার্জ রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়, সর্বভারতীয় তৃণমূল কংগ্রেসের রাজ্যসভার সাংসদ সুস্মিতা দেব, ত্রিপুরা প্রদেশ যুব তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি শান্তনু সাহা–সহ অন্যান্যরা।

ঠিক কী বলেছেন সুস্মিতা দেব?‌ এই বিষয়ে সাংসদ সুস্মিতা দেব বলেন, ‘‌আজকে সোনামুড়াতে মূল্যবৃদ্ধি এবং বেকারত্ব নিয়ে একটা প্রতিবাদী মিছিল করেছি। আগামী ২৯ অগস্ট রাজভবন ঘেরাও কর্মসূচি রয়েছে। আমার বিশ্বাস ত্রিপুরার গোটা যুবসমাজ এই অভিযানে যোগদান করবেন। কারণ মানুষের সঙ্গে বিজেপি বিশ্বাসঘাতকতা করেছে। একটা প্রতিশ্রুতিও বাস্তবায়ন করতে পারেনি। বরং গ্যাস, পেট্রোল–ডিজেলের দাম বেড়েছে।’‌

কী বলেছেন রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়?‌ তৃণমূল কংগ্রেসের পক্ষ থেকে অভিযোগ, রাজ্যে আইনশৃঙ্খলা ভেঙে পড়েছে। তার কোনও সমাধান হয়নি। বিরোধী দলগুলির উপর আক্রমণ নেমে আসছে। বিজেপি সেই আক্রমণ করে কন্ঠরোধ করতে চাইছে। এই নিয়ে রাজীব বন্দোপাধ্যায় বলেন, ‘‌মানুষ দ্রব্যমূল্যের কারণে নাজেহাল হয়ে পড়েছে। নাভিশ্বাস উঠেছে সাধারণ মানুষের। তাই আমরা পথে নামছি।’‌

বন্ধ করুন