বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > পুলিশ হেফাজতে অত্যাচার ও দমন–পীড়ন এখনও সামাজিক সমস্যা : CJI

পুলিশ হেফাজতে অত্যাচার ও দমন–পীড়ন এখনও সামাজিক সমস্যা : CJI

সুপ্রিমকোর্টের প্রধান বিচারপতি এনভি রামানা (ছবি সৌজন্যে এএনআই)

প্রধান বিচারপতি জানান, আইনি সহয়তা পরিষেবা অ্যাপকে সবার বাধ্যতামূলকভাবে মোবাইলে ইনস্টল করা প্রয়োজন।

পুলিশ হেফাজতে অত্যাচার ও দমন–পীড়নের ঘটনা এখনও একটি সামাজিক সমস্যা। রবিবার লিগ্যাল সার্ভিসেস অথরিটির একটি অনুষ্ঠানে এসে এমনই মন্তব্য করতে শোনা গেল সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি এনভি রামানাকে। তাঁর মতে, মানবাধিকার হরণ ও শারীরিকভাবে নিগ্রহের ঘটনা এখনও বিভিন্ন থানাগুলিতে বেশি ঘটছে। এই বিষয়ে নিজে উদ্বেগও প্রকাশ করেছেন সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি।

পুলিশি হেফাজতে অভিযুক্তদের মৃত্যুর কথা তুলে ধরে সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি জানান, ‘‌সাংবিধানিক ঘোষণা ও গ্যারান্টি থাকা সত্ত্বেও থানায় কার্যকরী আইনি প্রতিনিধিত্বের অভাব গ্রেফতার হওয়া ও আটক হওয়া ব্যক্তিদের জন্য একটি বড় ক্ষতি।’‌ একইসঙ্গে তিনি জানান, পুলিশ যাতে বাড়াবাড়ি না করতে পারে সেজন্য বিনামূল্যে আইনি সহায়তা পরিষেবার উপলব্ধিতা সম্পর্কে প্রচার করা প্রয়োজন। প্রতিটি থানা ও কারাগারে ডিসপ্লে বোর্ড ও আইটডোরে হোর্ডিং টাঙিয়ে এই সংক্রান্ত আইন ও নীতি সম্পর্কে সজাগ করা প্রয়োজন।

একইসঙ্গে সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি জানান, আইনি সহায়তা পরিষেবা অ্যাপকে সবার বাধ্যতামূলকভাবে মোবাইলে ইনস্টল করা প্রয়োজন। এর ফলে যে কোনও ব্যক্তি দেশের যে কোনও জায়গা থেকে কয়েক সেকেন্ডের মধ্যে আইনের সাহায্যের জন্য আবেদন জমা দিতে পারবেন। একইসঙ্গে প্রধান বিচারপতি আরও জানিয়েছেন, করোনা মহামারী চলা সত্ত্বেও সফলভাবে আইনি পরিষেবা প্রদান করা হচ্ছে। এই ধরনের অ্যাপ চালু হওয়ার ফলে আইনি সহয়তা পাওয়ার ক্ষেত্রে আর বাধার সৃষ্টি করবে না।

বন্ধ করুন