বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > রবিবাসরীয় সংঘর্ষের পর আগরতলায় রোড শো-এর অনুমতি পেল না তৃণমূল-বিজেপি
আগরতলার রাস্তায় নিরাপত্তারক্ষীরা (ছবি সৌজন্যে এএআই) (Papri Bhattacharjee)
আগরতলার রাস্তায় নিরাপত্তারক্ষীরা (ছবি সৌজন্যে এএআই) (Papri Bhattacharjee)

রবিবাসরীয় সংঘর্ষের পর আগরতলায় রোড শো-এর অনুমতি পেল না তৃণমূল-বিজেপি

  • আগরতলা সদরের সাব ডিভিশনাল পুলিশ অফিসার রমেশ যাদব বলেন, ‘আজ আগরতলায় বিজেপি বা তৃণমূল, কোনও পক্ষকেই রোডশো বা সমাবেশের অনুমতি দেওয়া হল না।’

তৃণমূল বা বিজেপি, কোনও দলই আজকে আগরতলায় রোডশো করতে পারবে না। এই বিষয়ে আগরতলা সদরের সাব ডিভিশনাল পুলিশ অফিসার রমেশ যাদব বলেন, 'আজ আগরতলায় বিজেপি বা তৃণমূল, কোনও পক্ষকেই রোডশো বা সমাবেশের অনুমতি দেওয়া হল না। তবে রাস্তায় বৈঠকের অনুমতি উভয় দলকেই দেওয়া হয়েছে। তবে তৃণমূল কখন রাস্তায় বৈঠক আয়োজন করতে চলেছে তা আমাদের জানাননি। শহরে উত্তেজনা বৃদ্ধির পরিপ্রেক্ষিতে সমাবেশের অনুমতি প্রত্যাখ্যান করা হয়।'

উল্লেখ্য, ২৫ নভেম্বর ত্রিপুরায় পুরসভা নির্বাচন। এর জন্য বিগত বেশ কিছুদিন ধরেই সেখানে থেকে প্রচার চালাচ্ছেন সায়নী ঘোষ। আগরতলায় ঘাঁটি গেড়েছেন কুণাল ঘোষ, সুস্মিতা দেব-সহ তৃণমূলের শীর্ষ নেতৃত্ব। আজকে সেখানে যাওয়ার কথা অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের। তবে অভিষেকের ত্রিপুরা সফরের আগেই ধারাবাহিক সংঘর্ষ, হিংসার ছবি উঠে আসে বিজেপি শাসিত এই রাজ্য থেকে।

সায়নী ঘোষকে গ্রেফতার করা হয় জামিন অযোগ্য ধারায়। থানায় তাঁকে জিজ্ঞাসাবাদ করার সময় সেখানে হামলা চালানোর অভিযোগ ওঠে বিজেপির বিরুদ্ধে। তার পরই জানা যায় যে ১৫ জন তৃণমূল সাংসদ দিল্লি যাচ্ছেন। আজ তাঁরা অমিত শাহের সঙ্গে দেখা করার চেষ্টা করবেন। দিল্লিতে ধরনাও দেবেন তাঁরা। এই আবহে উত্তেজনা বেড়েই চলে আগরতলায়। সেখআনে তৃণমূল নেতা সুবল ভৌমিকের বাড়িতে হামলার অভিযোগ ওঠে রাতে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে রীতিমতো হিমশিম খাচ্ছে সেখানকার পুলিশ। আর তাই এবার রোড শো-এর অনুমতি দেওয়া হল না কোনও পক্ষকেই।

 

বন্ধ করুন