বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > মিলছে না অক্সিজেন, অভিযোগ জানাতে গিয়ে কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর থেকে মিলল থাপ্পড়ের হুঁশিয়ারি
কেন্দ্রীয় মন্ত্রী প্রহ্লাদ প্যাটেল (ছবি সৌজন্যে : ভিডিয়ো)
কেন্দ্রীয় মন্ত্রী প্রহ্লাদ প্যাটেল (ছবি সৌজন্যে : ভিডিয়ো)

মিলছে না অক্সিজেন, অভিযোগ জানাতে গিয়ে কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর থেকে মিলল থাপ্পড়ের হুঁশিয়ারি

  • মন্ত্রীকে পেয়ে চেঁচামেচি করতে শুরু করেন রোগীর ছেলে।

করোনা আবহে দেশ জুড়ে অক্সিজেনের হাহাকার। এরই মাঝে কেন্দ্রীয় মন্ত্রীকে সামনে পেয়ে পরিস্থিতির কথা জানাতে গিয়ে থাপ্পড়ের হুঁশিয়ারি পেলেন এক করোনা রোগীর ছেলে। আর সেই কথোপকথনের ভিডিয়ো এখন ভাইরাল।

করোনা আক্রান্ত হয়েও রোগী অক্সিজেন পাচ্ছেন না। এর জেরে ধৈর্য হারিয়ে ফেলেন রোগীর আত্মীয়রা। এই আবহে মন্ত্রীকে পেয়ে চেঁচামেচি করতে শুরু করেন তাঁরা। ঘটনাটি মধ্যপ্রদেশের দামোহতে ঘটেছে।

ভাইরাল হওয়া ভিডিয়োতে দেখা যাচ্ছে, করোনা আক্রান্ত মায়ের জন্য হন্যে হয়ে অক্সিজেন খুঁজতে বেরিয়েছেন ছেলে। হাসপাতালের সামনেই দেখা হয়ে যায় কেন্দ্রীয় মন্ত্রী তথা দামোহ-র বিজেপির সাংসদ প্রহ্লাদ প্যাটেলের সঙ্গে। রোগীর ছেলে অক্সিজেনের অভাবের কথা জানাতে গিয়ে উত্তেজিত হয়ে মন্ত্রীকে বলেন, 'আমরা মরিয়া হয়ে খুঁজেলেও সিলিন্ডার পাচ্ছি না। ওরা আমাদের স্পষ্ট বলে দিচ্ছে না কেন যে অক্সিজেন দিতে পারবে না।'

এর উত্তরে তাঁকে শান্ত করতে গিয়ে মন্ত্রী বলছেন, 'এমন করে কথা বললে দুটো থাপ্পড় খাবে।' এর পর লোকটি কাঁদতে কাঁদতে বলতে থাকে, 'হ্যাঁ, সেটাই তো পাওয়ার কথা আমার। আমার মা মরছে ওখানে। ২১ ঘণ্টার বেশি অপেক্ষা করেছি।' মন্ত্রী পাল্টা প্রশ্ন করেন, 'কেউ কি অক্সিজেন সিলিন্ডার দেবে না বলেছে?' জবাব আসে, 'হ্যাঁ, তারা দেবে না বলেছে। আমরা একটাই মাত্র পেয়েছি, পাঁচ মিনিটের জন্যে। এর থেকে পরিষ্কার না বলে দেওয়া ভালো।'

উল্লেখ্য, দামোহ জেলা হাসপাতালে কোভিড চিকিৎসার জন্য সব প্রয়োজনীয় পরিষেবা থাকার কথা। তবে এক ভিডিয়োতে দেখা যাচ্ছে, সেই হাসপাতালে রোগীর আত্মীয়রা প্রচণ্ড রেগে স্টোররুম থেকে অক্সিজেন সিলিন্ডার ছিনিয়ে নিচ্ছে। এই ঘটনার পর অবশ্য মধ্যপ্রদেশ সরকার সাফাই দিয়ে জানিয়েছে, প্রয়োজনের অতিরিক্ত অক্সিজেন রয়েছে হাসপাতালে।

বন্ধ করুন