বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > এক মিনিটে ১০ হাজার টিকিট বুকিং, আইআরসিটিসি–র নতুন ওয়েবসাইটে আরও চমক
আইআরসিটিসি–র নতুন ওয়েবসাইট। ছবি : সংগৃহীত
আইআরসিটিসি–র নতুন ওয়েবসাইট। ছবি : সংগৃহীত

এক মিনিটে ১০ হাজার টিকিট বুকিং, আইআরসিটিসি–র নতুন ওয়েবসাইটে আরও চমক

  • রেলের দাবি, আধুনিক পদ্ধতিতে এক মিনিটে ১০ হাজার টিকিট বুক করা যাবে। এতদিন এক মিনিটে ৭৫০০ টিকিট বুক করা যেত। এর জেরে ওয়েবসাইট ক্র‌্যাশ হয়ে যাওয়ার বা হ্যাং করে যাওয়ার সম্ভাবনা অনেকটাই কমবে বলে জানিয়েছে রেল।

নতুন বছরে যাত্রীদের বিশেষ উপহার দিল রেল। বৃহস্পতিবার আইআরসিটিসি–র ই–টিকিটিং ওয়েবসাইটের নতুন সংস্করণের উদ্বোধন করে এমনই জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় রেলমন্ত্রী পীযূষ গোয়েল। রেলমন্ত্রকের দাবি, রেল টিকিট বুক করার এই ওয়েবসাইট আরও আধুনিক করা হয়েছে। নতুন ব্যবস্থার মাধ্যমে আরও দ্রুত ও সহজ হয়ে গিয়েছে রেলের টিকিট বুকিং। একইসঙ্গে এক ওয়েবসাইটেই চলতি ট্রেনে খাবার, রিটায়ারিং রুম, হোটেল বুক করা যাবে। লগ ইন করার ব্যবস্থাতেও আনা হয়েছে নতুনত্ব।

পাশাপাশি কম সময়ে যাতে দ্রুত অনেক টিকিট বুক করা যায় তা নিশ্চিত করতে বড়সড় কাজ করা হয়েছে। রেলের দাবি, আধুনিক পদ্ধতিতে এক মিনিটে ১০ হাজার টিকিট বুক করা যাবে। এতদিন এক মিনিটে ৭৫০০ টিকিট বুক করা যেত। এর জেরে ওয়েবসাইট ক্র‌্যাশ হয়ে যাওয়ার বা হ্যাং করে যাওয়ার সম্ভাবনা অনেকটাই কমবে বলে জানিয়েছে রেল। ব্যস্ত সময়ে পরপর টিকিট বুক করা আরও সহজতর হবে। এর পাশাপাশি টিকিটের টাকা জমা দেওয়ার ক্ষেত্রেও একাধিক বিকল্প ব্যবস্থা করা হয়েছে। আরও বেশি বিজ্ঞাপন দেওয়ার জন্যও নতুন ওয়েবসাইটে রাখা হয়েছে অতিরিক্ত জায়গা।

আর্টিফিসিয়াল ইন্টালিজেন্স বা কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তাও ব্যবহার করা হবে নতুন ওয়েবসাইটে। কোনও যাত্রী স্টেশনে প্রবেশ করার সময় কোথা থেকে ঢুকলে বেশি সুবিধা, তা জানাতে কাজে লাগবে এই কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা। এদিন এ কথা জানিয়ে রেলমন্ত্রী পীযূশ গোয়েল বলেন, ‘‌এর জেরে স্টেশনে প্লাটফর্ম খোঁজার যে ঝামেলা তা কমবে এবং টিকিট বুকিংয়ের সময় সাশ্রয় করবে।’‌ টিকিট বুকিংয়ের টাকা রিফান্ড চাওয়া হলে তার বর্তমান অবস্থা জানার ক্ষেত্রে আরও সুবিধা মিলবে নতুন ওয়েবসাইটে। রেলমন্ত্রীর দাবি, আগে এত সহজে রিফান্ডের খোঁজ নেওয়া যেত না।

কোনও বিশেষ রুটের ট্রেনের ব্যাপারে তথ্য পেতে হলে তা মিলবে ওয়েবসাইটের একটি পেজ থেকেই। কোন ট্রেনের কোন কামরার কটা সিট খালি রয়েছে এবং তার কত টাকা ভাড়া তা নতুন ওয়েবসাইটে একসঙ্গেই দেখা যাবে। এর আগের ওয়েবসাইটে কোনও ট্রেন বাছাই করার পরই শুধু সংশ্লিষ্ট ট্রেনের খালি সিট ও ভাড়ার তথ্য জানা যেত। উল্লেখ্য, এই মুহূর্তে আইআরসিটিসি ওয়েবসাইটের গ্রাহক সংখ্যা ৬ কোটিরও বেশি। প্রতিদিন ৮ লাখেরও বেশি টিকিট বুক করা হয় এই ওয়েবসাইট থেকে। এখন রেল টিকিট সংরক্ষণের ৮৩ শতাংশই করা হয় অনলাইন মাধ্যমে।

বন্ধ করুন