বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > এবার যৌথ উদ্যোগে ভারতে ভ্যাকসিন তৈরির পরিকল্পনা করছে মার্কিন প্রশাসন
ভ্যাকসিন (REUTERS)
ভ্যাকসিন (REUTERS)

এবার যৌথ উদ্যোগে ভারতে ভ্যাকসিন তৈরির পরিকল্পনা করছে মার্কিন প্রশাসন

  • ড্যানিয়েল জানান,‘‌সিরাম ইনস্টিটিউট ও অন্যান্য ভ্যাকসিন উৎপাদনকারী সংস্থা ছাড়াও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র জনসন অ্যান্ড জনসনের ভ্যাকসিন যৌথ উদ্যোগে তৈরি করার পরিকল্পনা করছে।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ভারতে যৌথ উদ্যোগে ভ্যাকসিন তৈরি করার পরিকল্পনা নিয়েছে।এবার জনসন অ্যান্ড জনসনের করোনা ভ্যাকসিন ভারতে উৎপাদিত হতে চলেছে।পুনের সিরাম ইনস্টিটিউটে যেমন কোভিশিল্ড ভ্যাকসিন তৈরি হচ্ছে ও তা বিশ্বের বাজারে ছড়িয়ে পড়ছে, ঠিক তেমনি জনসন অ্যান্ড জনসনের করোনা ভ্যাকসিনও এবার ভারতে তৈরি হতে চলেছে।

মার্কিন কুটনীতিক ড্যানিয়েল স্মিথ একসময়ে মার্কিন কার্যনির্বাহী বিদেশ সচিব হিসাবে কাজ করেছিলেন।করোনার দ্বিতীয় ঢেউ যেভাবে ভারতে আছড়ে পড়েছে তার মোকাবিলায় বাইডেন প্রশাসনের তরফে ইতিমধ্যে ভারতকে সাহায্যের আশ্বাস দেওয়া হয়েছে।বাইডেন প্রশাসনের তরফে গত মাসেই ড্যানিয়েল স্মিথকে নয়াদিল্লিতে পাঠানো হয়।সম্প্রতি ড্যানিয়েল জানান,‘‌সিরাম ইনস্টিটিউট ও অন্যান্য ভ্যাকসিন উৎপাদনকারী সংস্থা ছাড়াও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র জনসন অ্যান্ড জনসনের ভ্যাকসিন যৌথ উদ্যোগে তৈরি করার পরিকল্পনা করছে।এই ব্যাপারে মার্কিন প্রশাসনের তরফে ভারত সরকারের সঙ্গে ভ্যাকসিন তৈরির কাঁচামাল জোগানের ব্যাপারে আলোচনা চলছে।কোন কোন কাঁচামাল ভারতে রয়েছে। কোন কোন কাঁচামাল আনতে হবে।কত দ্রুততার সঙ্গে এই সব ভ্যাকসিন তৈরির কাঁচামাল আনা যায়, এই সব বিষয়েই আলোচনা চলছে।’‌

একইসঙ্গে তিনি জানান,‘‌বিশ্ব জুড়ে ভ্যাকসিন তৈরির কাঁচামালের জোগানকে ঠিক রাখা কিন্তু মোটেও সহজ কাজ নয়।তাবে আমরা এই কাঁচামালের জোগানের বিষয়টি যাতে সুষ্ঠুভাবে করা যায়, সেবিষয়ে আলোচনা চালাচ্ছি।মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ডেভালপমেন্ট ফিনান্স কর্পোরেশন পরিকল্পনা করছে, কীভাবে ভারতে জনসন অ্যান্ড জনসনের করোনা ভ্যাকসিন তৈরির ব্যাপারে বিনিয়োগ করা যায়।’‌

একইসঙ্গে মার্কিন কুটনীতিক এদিন জানান,‘‌সিরাম ইনস্টিটিউটের সঙ্গেও আমাদের যোগাযোগ রয়েছে। কত পরিমাণে ভ্যাকসিন উৎপাদন হচ্ছে, সেবিষয়ে আমরা নজর রাখছি।ভ্যাকসিনের উৎপাদন বাড়াতে কোন কোন কাঁচামালের জোগান বাড়ানো দরকার, সেবিষয়টিকে আমরা নজরে রাখছি।শুধু অ্যাস্ট্রোজেনিকার ভ্যাকসিনের জন্যই নয়, অন্যান্য ভ্যাকসিন উৎপাদনকারী সংস্থার সঙ্গেও আমাদের যোগাযোগ রয়েছে।’‌

বন্ধ করুন