ভিডিয়ো থেকে সংগৃহীত
ভিডিয়ো থেকে সংগৃহীত

CAA-এর বিরুদ্ধে বিক্ষোভে গুলি, ভিডিয়ো প্রমাণে কাঠগড়ায় পুলিশ

প্রথম থেকেই পুলিশ দাবি করছিল, উত্তরপ্রদেশে একটি গুলিও চালানো হয়নি। গতকাল উত্তরপ্রদেশের পুলিশ প্রধান ওপি সিংও একই দাবি করেছিলেন।

গায়ে বুলটেপ্রুফ জ্যাকেট, হাতে ব্যাটন। কিছুটা এগিয়ে গিয়েই ট্রিগারে চাপ দিলেন এক পুলিশকর্মী। শোনা গেল গুলি চালানোর শব্দ। পরে আরও তিনবার গুলি চালানোর আওয়াজ শোনা যায়। আজ এরকম একটি ভিডিয়ো সামনে এসেছে।

সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের প্রতিবাদে গত কয়েকদিন ধরেই উত্তাল উত্তরপ্রদেশ। হিংসা ছড়িয়েছে কানপুরেও। সেখানে মৃত্যু হয়েছে দু'জনের। পুলিশের গুলিতে তাঁদের মৃত্যু হয়েছে বলে অভিযোগ। যদিও প্রথম থেকেই পুলিশ দাবি করছিল, উত্তরপ্রদেশে একটি গুলিও চালানো হয়নি। গতকাল উত্তরপ্রদেশের পুলিশ প্রধান ওপি সিংও একই দাবি করেছিলেন।

ইতিমধ্যে একটি ভিডিয়ো ছড়িয়ে পড়ে। তাতে দেখা যাচ্ছে, অশান্ত পরিস্থিতির মধ্যে এক পুলিশকর্মী উলট দিকে ফিরে নিজের রিভলভার নিয়ে কিছু একটা করছেন। তারপর কিছুটা সামনের দিকে ছুটে যান তিনি। তারপরই গুলি চালান ওই পুলিশকর্মী। সেই সময় পিছন থেকে কয়েকজনকে বলতে শোনা যায়, 'মেরে ফেল'। পরে আরও কযেকবার গুলি চালানোর ছবি ধরা পড়ে। সাংবাদিকরা সেই ছবি তোলার চেষ্টা করলে এক পুলিশকর্মীকে বলতে শোনা যায়, 'এদের সরিয়ে দাও। ওদের (সহকর্মীদের) গুলি চালাতে দাও।'

ভিডিয়োটি সামনে আসার পরই উত্তরপ্রদেশের পুলিশের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন ওঠে। যদিও পুলিশের দাবি, গুলি চালানো হয়নি। কানপুর রেঞ্জের আইজি মোহিত আগরওয়াল বলেন, 'পুলিশ শুধুমাত্র লাঠিচার্জ ও টিয়ার গ্যাস শেল ব্যবহার করেছে। তারা গুলি চালায়নি। যে পুলিশকর্মীকে ভিডিয়োতে দেখা যাচ্ছে, তিনি হয়তো বিক্ষোভকারীদের ভয় দেখানোর জন্য এরকম করেছেন।'

তাহলে গুলির আওয়াজ কোথা থেকে শোনা যাচ্ছে ? এনিয়ে আইজির দাবি, 'আশপাশের কোনও আওয়াজ হতে পারে।'


বন্ধ করুন