বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > 'বহুদিনের স্বপ্ন সত্যি হল', মহাকাশ ছুঁয়ে এলেন ভারতীয় বংশোদ্ভূত সিরিষা বান্দলা
ছবি : ভার্জিন গ্যালেকটিক (Virgin Galactic)
ছবি : ভার্জিন গ্যালেকটিক (Virgin Galactic)

'বহুদিনের স্বপ্ন সত্যি হল', মহাকাশ ছুঁয়ে এলেন ভারতীয় বংশোদ্ভূত সিরিষা বান্দলা

রবিরার সকাল সাড়ে আটটার কিছুটা পর (স্থানীয় সময় অনুযায়ী) নিউ মেক্সিকো থেকে মহাকাশের উদ্দেশে পাড়ি দেয় ভার্জিন গ্যালাকটিকের যান।

মহাকাশে চতুর্থ ভারতীয় বংশোদ্ভূত। রবিবার ভার্জিন গ্যালাকটিকের অভিযানে মহাকাশ ছুঁয়ে ফিরে এলেন সিরিষা বান্দলা। সংস্থার প্রতিষ্ঠাতা রিচার্ড ব্র্যানসন-সহ পাঁচজনের টিমের অংশ হিসাবে মহাকাশে যান সিরিষা।

বহুদিনের স্বপ্ন সত্যি হয়েছে বলে জানিয়েছেন নভোশ্চর। মহাকাশ থেকে পৃথিবীকে দেখার অনুভূতি এবং জিরো গ্র্যাভেটিতে থাকার অভিজ্ঞতাও অসাধারণ বলে জানিয়েছেন তিনি।

রবিরার সকাল সাড়ে আটটার কিছুটা পর (স্থানীয় সময় অনুযায়ী) নিউ মেক্সিকো থেকে মহাকাশের উদ্দেশে পাড়ি দেয় ভার্জিন গ্যালাকটিকের যান। আবহাওয়ার কারণে কিছুটা অবশ্য দেরি হয়।

অন্যান্য মহাকাশ অভিযানের থেকে এটি একটু ভিন্ন রকম। এক্ষেত্রে বৃহত্ রকেটের মাধ্যমে উত্ক্ষেপণ হয় নি। ভার্জিন গ্যালাকটিকের পরিকল্পনা অনুযায়ী ভিএএস ইউনিটি স্পেস প্লেনকে নিয়ে উড়েছে একটি এয়ারক্রাফট। ৪৫,০০০ ফুট উচ্চতায় তা বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়। তারপর ভিএএস ইউনিটি স্পেস প্লেনের রকেট ইঞ্জিন চালু হয়। সেটার মাধ্যমেই তাঁরা ৮৬ কিলোমিটার উচ্চতা পর্যন্ত যান।

যদিও ১০০ কিলোমিটার থেকে মহাকাশ শুরু হচ্ছে বলে ধরা হয়। কিন্তু নাসা ও মার্কিন সেনার হিসাব অনুযায়ী ৮০ কিলোমিটার উচ্চতা থেকেই মহাকাশের শুরু মনে করা হয়। তাই নিয়ে মন্তব্যও করছেন অনেকে।

তবে মহাকাশে যাত্রা করার পিছনে ভার্জিন গ্যালেকটিকের মূল লক্ষ্য স্পেস ট্যুরিজমের ব্যবসা করা। অর্থাত্ ভবিষ্যতে চাইলে টাকা দিয়ে সিট বুক করেও যাতে মহাকাশের প্রায় কাছাকাছি যাওয়া যায়। সেই লক্ষ্য বিচার করলে এই সীমা পর্যন্ত উড়ানকে সফল ধরাই যায়।

বন্ধ করুন