বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > ভারতের সাহায্য কখনও ভুলব না, কোভিড যুদ্ধে পাশে দাঁড়ানোর বার্তা আমেরিকার
মার্কিন সেক্রেটারি অফ স্টেট অ্যান্টনি ব্লিনকেনের সঙ্গে ভারতীয় বিদেশমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর (ছবি সৌজন্যে টুইটার/এস জয়শঙ্কর)
মার্কিন সেক্রেটারি অফ স্টেট অ্যান্টনি ব্লিনকেনের সঙ্গে ভারতীয় বিদেশমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর (ছবি সৌজন্যে টুইটার/এস জয়শঙ্কর)

ভারতের সাহায্য কখনও ভুলব না, কোভিড যুদ্ধে পাশে দাঁড়ানোর বার্তা আমেরিকার

  • শুক্রবার মার্কিন সেক্রেটারি অফ স্টেট অ্যান্টনি ব্লিনকেনের সঙ্গে বৈঠক করলেন ভারতীয় বিদেশমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর।

শুক্রবার মার্কিন সেক্রেটারি অফ স্টেট অ্যান্টনি ব্লিনকেনের সঙ্গে বৈঠক করলেন ভারতীয় বিদেশমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর। বৈঠকে ভারতের পাশে থাকার জন্য বাইডেন প্রশাসনকে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন জয়শঙ্কর। এদিকে মার্কিন সেক্রেটারি অফ স্টেটের বক্তব্য, কোভিড যুদ্ধের প্রাথমিক পর্যায়ে ভারত মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের পাশে দাঁড়িয়েছিল। সেই বিষয়টি আমেরিকা কখনও ভুলবে না।

উল্লেখ্য, জয়শঙ্কর ভারত সরকারের মন্ত্রিসভার প্রথম সদস্য, যিনি জো বাইডেন প্রেসিডেন্ট হওয়ার পর মার্কিন সফরে গিয়েছেন। এই সফরকালে ভারতের জন্য যথাসম্ভব বেশি পরিমাণে সাহায্য আনার চেষ্টা চালাবেন এস জয়শঙ্কর। এই আবহে এই কঠিন সময়ে ভারতের পাশে থাকার জন্য মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রকে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন জয়শঙ্কর।

এদিকে কোভিড যুদ্ধে ভবিষ্যতেও যে ওয়াশিংটন ভারতের পাশে দাঁড়িয়ে থাকবে, সেই বার্তা দিয়েছেন মার্কিন সেক্রেটারি অফ স্টেট অ্যান্টনি ব্লিনকেন। এদিন জয়শঙ্করের সঙ্গে বৈঠকের আগে সাংবাদিকদের তিনি বলেন, 'কোভিড যুদ্ধের প্রাথমিক পর্যায়ে ভারত মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের পাশে দাঁড়িয়েছিল। সেই বিষয়টি আমেরিকা কখনও ভুলবে না। এখন আমরা নিশ্চিত করতে চাইে যাতে আমরা ভারতের জন্য এবং ভারতের পাশে থাকতে পারি।'

এদিকে এই বৈঠকের বিষয়ে জয়শঙ্কর বলেন, 'অনেক বিষয় নিয়ে আলোচনা করতে হবে আমাদের। আমি মনে করি, যত দিন গিয়েছে, আমাদের দুই দেশের সম্পর্ক ততই মজবুত হয়েছে। এবং আমি নিশ্চিত, ভবিষ্যতে তা আরও পোক্ত হবে। এই কঠিন সময়ে তারা আমাদের পাশে দাঁড়িয়েছ, তাই আমি মার্কিন প্রশাসনকে ধন্যবাদ জানাতে চাই।'

এদিকে জয়শঙ্করের সফর চলাকালীনই কোভিশিল্ড তৈরিতে প্রয়োজন কাঁচামাল সরবরাহের বিষয়ে বড় ঘোষণা করে মার্কিন প্রশাসন। ২০ মিলিয়ন ডোজ তৈরির কাঁচামাল আমেরিকা থেকে পাঠানো হবে ভারতে। জয়শঙ্কর-ব্লিনকেন বৈঠকের পরই এই ঘোষণা করা হয় আমেরিকার তরফে।

বন্ধ করুন