বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > চাহিদার ফায়দা তুলছে জালিয়াতরা, কলকাতায় ভুয়ো কোভিশিল্ডের খোঁজ পেল WHO
ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য সঞ্চিত খান্না/হিন্দুস্তান টাইমস

চাহিদার ফায়দা তুলছে জালিয়াতরা, কলকাতায় ভুয়ো কোভিশিল্ডের খোঁজ পেল WHO

  • হু মুখপাত্র বলেন, 'কলকাতায় ভুয়ো কোভিশিল্ড টিকা রয়েছে বলে খবর পেয়েছে হু। তবে এই খবর কোন সূত্রে মিলেছে তা প্রকাশ করবে না বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।'

কলকাতায় ভুয়ো কোভিশিল্ড টিকার খোঁজ পেয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। হু জানিয়েছে, বাড়তে থাকা চাহিদার ফায়দা তুলে বাজারে ভুয়ো কোভিশিল্ড টিকা ছাড়ছে জালিয়াতরা। হু মুখপাত্র এই বিষয়ে তারিক জাসারেভিচ বলেন, 'কলকাতায় ভুয়ো কোভিশিল্ড টিকার খবর পেয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। তবে এই খবর কোন সূত্রে মিলেছে তা প্রকাশ করবে না বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।'

জানা গিয়েছে এই বিষয়টি জানিয়ে বিশ্বা স্বাস্থ্য সংস্থার তরফে ইতিমধ্যেই কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়েছে। এর আগে কলকাতা ছাড়াও মুম্বই, দিল্লিতেও সম্প্রতি ভুয়ো টিকা প্রয়োগের দায়ে জালিয়াতদের গ্রেফতার করা হয়েছে পুলিশের তরফে। এদিকে দেবাঞ্জন কাণ্ডের পর নজরদারি বাড়িয়েছে কলকাতা পুলিশ এবং রাজ্য প্রশাসনও। এর মাঝেই প্রকাশ্যে এল বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার রিপোর্ট।

শুধু ভারত বা দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া নয়, আফ্রিকাতেও ভুয়ো টিকার বাড়বাড়ন্ত নিয়ে চিন্তায় বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। এই সংক্রান্ত একটি মেডিকাল রিপোর্ট প্রকাশ করা হয় গত মঙ্গলবারই। রিপোর্টে বলা হয়, সরাসরি রোগীর কাছে পৌঁছ যাচ্ছে কোভিশিল্ড। যদিও এখনও দোকানে বা খোলা বাজারে টিকা ছাড়া হয়নি। প্রাইভেটে টিকা মিললেও তা হাসপাতালের মাধ্যমে। কোভিশিল্ড প্রস্তুতকারক সংস্থা সেরাম ইনস্টিটিউটও জানিয়েছে সরাসরি রোগীদের তারা টিকা বিক্রি করছে না।

এই রিপোর্ট প্রকাশের পরই ভারতকে ভুয়ো টিকার বিষয়ে নজরদারি বাড়ানোর আবেদন জানাল বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। এদিকে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের এক আধিকারিক এই বিষয়ে মিন্টকে বলেন, 'আমরা পশ্চিমবঙ্গ সরকারকে বিষয়টি জানিয়েছি। আমরা সেরাম ইনস্টিটিউটের সঙ্গেও এই বিষয়ে আরও জানাতে বলেছি। এভাবে ভুয়ো টিকা ছড়িয়ে পড়া খু দুঃখের। এই বিষয়টি খতিয়ে দেখছে সরকার।'

বন্ধ করুন