বাড়ি > ঘরে বাইরে > ভারতীয় মিডিয়া এত নেগেটিভ কেন? রাজনাথের কাছে নালিশ ঠুকলেন চিনের প্রতিরক্ষামন্ত্রী
চলছে বৈঠক 
চলছে বৈঠক 

ভারতীয় মিডিয়া এত নেগেটিভ কেন? রাজনাথের কাছে নালিশ ঠুকলেন চিনের প্রতিরক্ষামন্ত্রী

দুই নেতার মধ্যে বৈঠকে মেলেনি লাদাখে অচলাবস্থা শেষ করার সমাধানসূত্র। 

মস্কোতে ভারত-চিন প্রতিরক্ষামন্ত্রীদের বৈঠক থেকে সমাধানসূত্র বেরিয়েছে, এটা বলা যাবে না। লাদাখ অচলাবস্থা নিয়ে দুই দেশই শান্তির পথে যাওয়ার কথা বললেও ফের প্যাংগং সো-এর দক্ষিণ অঞ্চলে দুটি জায়গায় সেনা বাড়াচ্ছে চিন। হিন্দুস্তান টাইমসের প্রতিবদনে বলা হয়েছে যে বৈঠক চলাকালীন একসময় ভারতীয় মিডিয়া নিয়ে অভিযোগ করেন চিনের প্রতিরক্ষামন্ত্রী। যদিও তাঁর কিছু করার নেই বলে কথা ঘুরিয়ে দেন রাজনাথ সিং। 

চিনের প্রতিরক্ষামন্ত্রী জেনারেল ওয়েই ফেংগে রাজনাথের তোলা সমস্ত পয়েন্ট লিখে নেন। এরপর তিনি বলেন যে ভারতীয় মিডিয়া এত নেতিবাচক কেন। চিনা নেতা বলেন যে ভারত যেমন আর ১৯৬২ তে পড়ে নেই, তেমন চিনা সেনাও ওই যুগে আর নেই। রাজনাথ তখন তাঁকে বলেন যে ভারত গণতান্ত্রিক দেশ যেখানে গণমাধ্যমের ওপর কোনও লাগাম পরানো হয়না। এই কারণে এই বিষয়ে তিনি কিছু করতে অপারগ বলে জানান রাজনাথ সিং। 

দুই দেশই একই ইঞ্চি জমি ছাড়তে আগ্রহ দেখায়নি তবে পুরনো অবস্থানে ফিরে যাওয়া নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়েছে।  তবে চিন চাইছে মে মাসে লাদাখে যে অবস্থান সেখানে ফিরে যেতে অন্যদিকে ভারত চাইছে এপ্রিলের পরিস্থিতিতে ফিরে যেতে যখনও চিন আগ্রাসন শুরু করেনি। 

সূত্রের খবর, চুশূল উপত্যকায় রেচিন লা-এ সৈন্য বাড়িয়েছে চিন। সরাসরি ব্ল্যাক টপের দিকে তাক করে রেখেছে তারা। ওপর দিয়ে উড়ে চলছে চিনের ফাইটার বিমান। তবে ভারতও বসে নেই। প্রয়োজনীয় লোকবল ও অস্ত্রশস্ত্র মোতায়েন করা হয়েছে কোনও অপ্রীতিকর পরিস্থিতি এড়ানোর জন্য। জয়শংকর ও ওয়াং ই-এর মধ্যে কয়েক দিন বাদে যে বৈঠক হবে, সেখানে কিছুটা কথা এগোয় কিনা, সেটাই দেখার। 

 

বন্ধ করুন