বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > শ্যালিকাকে বিয়ে করতে না পেরে 8 মেয়েকে খুন করে আত্মহত্যার চেষ্টা বিপত্নীক বাবার
শ্যালিকার সঙ্গে বিয়ে করতে না পেরে 8 মেয়েকে খুন করে আত্মহত্যার চেষ্টা বিপত্নীক বাবার (প্রতীকী ছবি)
শ্যালিকার সঙ্গে বিয়ে করতে না পেরে 8 মেয়েকে খুন করে আত্মহত্যার চেষ্টা বিপত্নীক বাবার (প্রতীকী ছবি)

শ্যালিকাকে বিয়ে করতে না পেরে 8 মেয়েকে খুন করে আত্মহত্যার চেষ্টা বিপত্নীক বাবার

  • 8 নাবালিকা মেয়েকে বিষ খাইয়ে খুন করে জলের ট্যাঙ্কে ফেলে দিল বিপত্নীক বাবা! তারপর নিজেও আত্মহত্যা করার চেষ্টা করেন।

শ্যালিকার সঙ্গে বিয়ে দিতে রাজি হয়নি শ্বশুরবাড়ির লোকেরা, সে কারণে 8 নাবালিকা মেয়েকে বিষ খাইয়ে খুন করে জলের ট্যাঙ্কে ফেলে দিল বিপত্নীক বাবা! তারপর নিজেও আত্মহত্যা করার চেষ্টা করেন। চাঞ্চল্যকর এই ঘটনাটি ঘটেছে রাজস্থানের বারমের জেলায়।

 

ঘটনাস্থল থেকে অভিযুক্ত ব্যক্তিকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। স্থানীয় থানার পুলিশ এসে উদ্ধার করে ময়না তদন্তের পাঠায়। ময়নাতদন্তের পর 8 শিশুর দেহ তাদের পরিবারের হাতে তুলে দেওয়া হয়। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, অভিযুক্তই বাবার নাম পুখারাম। বার্মেরের পৌষাল গ্রামের সেও এলাকার বাসিন্দা।

পরিবার সূত্রে জানা গিয়েছে, গত ৩ মাস আগে পুখারামের স্ত্রীর করোনা আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়। মায়ের মৃত্যুর পর তার নাবালিকা 8 মেয়ে দেড় বছরের বসুন্ধরা, তিন বছরের লক্ষ্মী, বছর পাঁচেকের নোজি ও ৮ বছরের জিও পুখারামের শ্বশুরবাড়ি দায়িত্ব নেয়। সেখানে থাকতে শুরু করে ওই চার শিশু। তবে স্ত্রীর মৃত্যুর পর মানসিকভাবে ভেঙে পড়েন পুখারাম। মেয়েদের ভবিষ্যত কী হবে তা নিয়ে চিন্তায় পড়েন তিনি। 

তদন্তকারী এক পুলিশ অফিসার জানিয়েছেন, মেয়েদের মানুষ করার জন্য শ্যালিকার সঙ্গে গাঁটছড়া বাঁধতে চাইছিলেন পুখারাম। সেই অনুযায়ী শ্বশুরবাড়িতে প্রস্তাব করেন তিনি। সূত্রের খবর, শ্বশুরবাড়ির লোকেরা এই প্রস্তাবে রাজি হননি। বিষয়টি খারিজ করে দেন তাঁরা। এরপরই শুক্রবার 8 মেয়েকে নিয়ে নিজের গ্রামে ফিরে আসেন। গভীর রাতে মেয়েদের বিষ খাইয়ে দেন বলে অভিযোগ।

আরও অভিযোগ ওঠে মেয়েরা অচেতন হয়ে পড়লে, তাদের নিয়ে জলের ট্যাংকে ফেলে দেন। তারপর বিষ খেয়ে নিজেও আত্মঘাতী হওয়ার চেষ্টা করেন। জেলা হাসপাতালে গিয়ে অভিযুক্তর বয়ান নেয় পুলিশ। নিজের দোষ স্বীকার করে নেয় পুখারাম। মৃত ওই 8 শিশুর দেহ ময়নাতদন্তের জন্য পাঠায় পুলিশ । ঘটনা ঘিরে শোকের ছায়া নেমে এসেছে গোটা এলাকায়।

বন্ধ করুন