পাঁচ সন্তানকে গঙ্গায় ছুঁড়লেন মা (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য এএনআই)
পাঁচ সন্তানকে গঙ্গায় ছুঁড়লেন মা (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য এএনআই)

উত্তরপ্রদেশে পাঁচ সন্তানকে গঙ্গায় ছুঁড়লেন মা

এক সন্তানের বয়স তিন। আরও দু'জনের বয়স ৬ ও ৮। বাকি দু'জনের বয়স ১০ ও ১২।

স্বামীর সঙ্গে ঝগড়া হয়েছিল। তার জেরে রাগের মাথায় তিন বছরের ছেলে-সহ পাঁচ সন্তানকে গঙ্গায় ফেলে দিলেন এক মহিলা। এখনও তাঁদের খোঁজ মেলেনি। পুলিশের আশঙ্কা, সবাই ডুবে গিয়েছে। ঘটনাটি উত্তরপ্রদেশের ভাদোহি জেলার জাহাগিরা এলাকার।

আরও পড়ুন : দেশে করোনা আক্রান্ত ছাড়াল ৯০০০, মৃত বেড়ে ৩০৮

পুলিশ জানিয়েছে, স্ত্রী মঞ্জুর সঙ্গে ঝগড়া হয়েছিল জাহাগিরা গ্রামের বাসিন্দা মৃদুল ওরফে মুন্নার। সংসার খরচ চালানোর জন্য টাকা চেয়েছিলেন মঞ্জু। সেই ঘটনার কিছুক্ষণ পরই বাড়ি থেকে বেরিয়ে স্থানীয় ঘাটে যান মঞ্জু। গঙ্গায় পাঁচ সন্তানকে ফেলে দেন। তারপর নিজেও জলে ঝাঁপ দেন।

আরও পড়ুন : সাত ঘণ্টার অপারেশনে জোড়া লাগল পঞ্জাব পুলিশের ASI-এর কাটা হাত

তা দেখেতে পেয়ে দ্রুত ঘাটে যান স্থানীয়রা। তাঁরা বাচ্চাদের বাঁচানোর চেষ্টা করেন। কিন্তু ততক্ষণে শিব শংকর (৮), কেশব প্রসাদ (৩) ও পূজা ওরফে সরস্বতী (৬) এবং ১০ ও ১২ বছরের দু'জন তলিয়ে গিয়েছে। এদিকে, গঙ্গায় ঝাঁপ দেওয়ার পর সাঁতরে নিজেই পাড়ে চলে আসেন মঞ্জু।

আরও পড়ুন Covid-19 মাস্ক নিয়ে TikTok-এ ঠাট্টার ভিডিয়ো পোস্ট করার পরে সংক্রামিত যুবক

খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যান জেলাশাসক রাজেন্দ্র প্রসাদ ও পুলিশ সুপার রামবদন সিং। বাচ্চাদের তল্লাশিতে দুটি ডুবুরি দল নামানো হয়েছে।

আরও পড়ুন : লকডাউনের মধ্যে LIC Premium দেওয়া নিয়ে চিন্তিত? স্বস্তির বার্তা দিল সংস্থা

স্থানীয় বসিন্দাদের একটি অংশের দাবি, মহিলার মানসিক অবস্থা স্থিতিশীল ছিল না। যদিও মৃদুলের দাবি, তাঁর স্ত্রী মানসিকভাবে সুস্থ ছিল। তবে কী কারণে মঞ্জু এরকম পদক্ষেপ করলেন, তা বুঝে উঠতে পারছেন না বলে দাবি মৃদুলের।

আরও পড়ুন করোনার চিকিৎসায় হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন বিপদ ডেকে আনতে পারে, দাবি AIIMS-এর

বন্ধ করুন