বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > কাশ্মীরে রয়েছেন শিনা? ইন্দ্রাণীকে জানিয়েছেন এক মহিলা, তিনি বয়ান দিতেও প্রস্তুত !
বেঁচে আছেন শিনা বোরা, চাঞ্চল্যকর দাবি (ফাইল ছবি পিটিআই) (HT_PRINT)
বেঁচে আছেন শিনা বোরা, চাঞ্চল্যকর দাবি (ফাইল ছবি পিটিআই) (HT_PRINT)

কাশ্মীরে রয়েছেন শিনা? ইন্দ্রাণীকে জানিয়েছেন এক মহিলা, তিনি বয়ান দিতেও প্রস্তুত !

  • শিনা বোরা হত্যাকাণ্ডে নয়া মোড়, গুরুত্ব দিতে নারাজ সিবিআই।

নিজের মেয়ে শিনা বোরাকে হত্যার অভিযোগে ২০১৫ সালে মা ইন্দ্রাণী মুখোপাধ্যায়কে গ্রেফতার করা হয়েছিল। ইন্দ্রাণীর গ্রেফতার সাড়া ফেলে দিয়েছিল গোটা দেশে। দীর্ঘ ৬ বছর ধরে জেলবন্দি রয়েছেন ইন্দ্রাণী। তবে সম্প্রতি সেই ইন্দ্রাণী মুখোপাধ্যায় সিবিআইকে চিঠি লিখে জানান, বেঁচে আছে শিনা বোরা। তিনি চিঠিতে জানিয়েছেন যে, একজন মহিলা সরকারি আধিকারিক তাঁকে জানিয়েছেন তিনি শিনাকে ২৪শে জুন দেখেছেন। আর ইন্দ্রাণীর এই দাবিকে ঘিরে ফের এই মামলায় নয়া মোড়। এবার যে মহিলা ইন্দ্রাণীকে বলেছিলেন তিনি জম্মু ও কাশ্মীরে শিনাকে দেখেছেন তিনি এবার বয়ান দিতে প্রস্তুত। এমনটাই জানিয়েছেন ইন্দ্রাণীর আইনজীবী সানা আর খান। বুধবার তিনি জানিয়েছেন, ডাল লেকের কাছে শিনা বোরাকে দেখা গিয়েছে বলে ওই মহিলা দাবি করেছিলেন। এব্যাপারে তদন্ত করার জন্য আমরা সিবিআইয়ের কাছে আবেদন জানাব।

এদিকে ২০১৫ সালে এই মামলার তদন্তভার নিয়েছিল সিবিআই। সেই তদন্ত শেষ হয়ে গিয়েছে। তবে সূত্রের খবর ইন্দ্রাণীর চিঠিকে বিশেষ গুরুত্ব দিতে চাইছে না সিবিআই। কেসক দীর্ঘায়িত করার জন্য এসব করা হচ্ছে বলে সিবিআই মনে করছে।অভিযোগ, ২০১২ সালে গাড়ির চালক ও দ্বিতীয় স্বামী সঞ্জীব খান্নার সহায়তায় শিনা বোরাকে খুন করা হয়েছিল। এদিকে ইন্দ্রাণী শিনাকে নিজের বোন হিসাবে বিভিন্ন জায়গায় বলতেন। তবে ইন্দ্রাণী তৃতীয় স্বামী পিটার মুখোপাধ্য়ায়ের ছেলে রাহুল মুখোপাধ্যায়ের সঙ্গে শিনার সম্পর্ক মেনে নিতে পারেননি মা ইন্দ্রাণী। এনিয়ে টানাপোড়েন শুরু হয়। এরপরই শিনাকে খুন করে, পুড়িয়ে, পুঁতে ফেলা হয়েছিল বলে অভিযোগ। তবে ইন্দ্রাণী বার বারই দাবি করেছেন শিনা বিদেশে পড়াশোনা করে। সে বেঁচে আছে। 

 

নিজের মেয়ে শিনা বোরাকে হত্যার অভিযোগে ২০১৫ সালে মা ইন্দ্রাণী মুখোপাধ্যায়কে গ্রেফতার করা হয়েছিল। ইন্দ্রাণীর গ্রেফতার সাড়া ফেলে দিয়েছিল গোটা দেশে। দীর্ঘ ৬ বছর ধরে জেলবন্দি রয়েছেন ইন্দ্রাণী। তবে সম্প্রতি সেই ইন্দ্রাণী মুখোপাধ্যায় সিবিআইকে চিঠি লিখে জানান, বেঁচে আছে শিনা বোরা। তিনি চিঠিতে জানিয়েছেন যে, একজন মহিলা সরকারি আধিকারিক তাঁকে জানিয়েছেন তিনি শিনাকে ২৪শে জুন দেখেছেন। আর ইন্দ্রাণীর এই দাবিকে ঘিরে ফের এই মামলায় নয়া মোড়। এবার যে মহিলা ইন্দ্রাণীকে বলেছিলেন তিনি জম্মু ও কাশ্মীরে শিনাকে দেখেছেন তিনি এবার বয়ান দিতে প্রস্তুত। এমনটাই জানিয়েছেন ইন্দ্রাণীর আইনজীবী সানা আর খান। বুধবার তিনি জানিয়েছেন, ডাল লেকের কাছে শিনা বোরাকে দেখা গিয়েছে বলে ওই মহিলা দাবি করেছিলেন। এব্যাপারে তদন্ত করার জন্য আমরা সিবিআইয়ের কাছে আবেদন জানাব।

এদিকে ২০১৫ সালে এই মামলার তদন্তভার নিয়েছিল সিবিআই। সেই তদন্ত শেষ হয়ে গিয়েছে। তবে সূত্রের খবর ইন্দ্রাণীর চিঠিকে বিশেষ গুরুত্ব দিতে চাইছে না সিবিআই। কেসক দীর্ঘায়িত করার জন্য এসব করা হচ্ছে বলে সিবিআই মনে করছে।অভিযোগ, ২০১২ সালে গাড়ির চালক ও দ্বিতীয় স্বামী সঞ্জীব খান্নার সহায়তায় শিনা বোরাকে খুন করা হয়েছিল। এদিকে ইন্দ্রাণী শিনাকে নিজের বোন হিসাবে বিভিন্ন জায়গায় বলতেন। তবে ইন্দ্রাণী তৃতীয় স্বামী পিটার মুখোপাধ্য়ায়ের ছেলে রাহুল মুখোপাধ্যায়ের সঙ্গে শিনার সম্পর্ক মেনে নিতে পারেননি মা ইন্দ্রাণী। এনিয়ে টানাপোড়েন শুরু হয়। এরপরই শিনাকে খুন করে, পুড়িয়ে, পুঁতে ফেলা হয়েছিল বলে অভিযোগ। তবে ইন্দ্রাণী বার বারই দাবি করেছেন শিনা বিদেশে পড়াশোনা করে। সে বেঁচে আছে। 

|#+|

 

 

 

বন্ধ করুন