বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > উত্তরপ্রদেশ নির্বাচনের সময় রাজনৈতিক নেতাদের আপ্যায়ন নয়: দারুল উলূম দেওবন্দ
উত্তরপ্রদেশ নির্বাচনের সময় রাজনৈতিক নেতাদের আপ্যায়ন নয়: দারুল উলূম দেওবন্দ (ফাইল ছবি) (HT_PRINT)
উত্তরপ্রদেশ নির্বাচনের সময় রাজনৈতিক নেতাদের আপ্যায়ন নয়: দারুল উলূম দেওবন্দ (ফাইল ছবি) (HT_PRINT)

উত্তরপ্রদেশ নির্বাচনের সময় রাজনৈতিক নেতাদের আপ্যায়ন নয়: দারুল উলূম দেওবন্দ

  • রাজনৈতিক দলগুলোর নেতারা মুসলিম সম্প্রদায়ের সমর্থন পাওয়ার জন্য আগামী বছরের বিধানসভা নির্বাচনের আগে এই মাদ্রাসার প্রতি তাদের সখ্যতা প্রদর্শন করার চেষ্টা করতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে।

উত্তরপ্রদেশ নির্বাচনের সময় কোনও রাজনৈতিক নেতাদের আপ্যায়ন করবে না দারুল উলূম দেওবন্দ। উত্তরপ্রদেশের সাহারানপুর জেলার ইসলামিক মাদ্রাসা তরফে এই কথা জানান সংগঠনের এক শীর্ষ মুখপাত্র। রাজনৈতিক দলগুলোর নেতারা মুসলিম সম্প্রদায়ের সমর্থন পাওয়ার জন্য আগামী বছরের বিধানসভা নির্বাচনের আগে এই মাদ্রাসার প্রতি তাদের সখ্যতা প্রদর্শন করার চেষ্টা করতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে। সেই আবহে আগেভাগেই সব রাজনৈতিক দল থেকে নিজেদের দূরত্ব বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নিল দারুল উলূম দেওবন্দ।

দারুল উলূম দেওবন্দের মুখপাত্র আশরাফ উসমানি বলেন, 'আমরা অরাজনৈতিক এবং শিক্ষার উদ্দেশ্যের মধ্যে সীমাবদ্ধ।' উল্লেখ্য, অল ইন্ডিয়া মজলিস-ই-ইত্তেহাদুল মুসলিমিনের (এআইএমআইএম) নেতা আসাদউদ্দিন ওয়াইসি গত সপ্তাহে সাহারানপুরে একটি সমাবেশের পর দারুল উলূম দেওবন্দ পরিদর্শন করতে এবং কর্মকর্তাদের সাথে দেখা করতে চেয়েছিলেন। তবে দেওবন্দ কেন্দ্রের ভাইস চ্যান্সেলর মওলানা আবুল কাসিম নোমানি সহ দারুলের অন্যান্য কর্মকর্তারা তাঁর সঙ্গে দেখা করতে অস্বীকার করেন।

এই প্রেক্ষিতে আশরাফ উসমানি জানান যে ওয়াইসি এবং অন্যান্য রাজনৈতিক দলের নেতারা নির্বাচনের সময় দেওবন্দ মাদ্রাসাতে অবাধে যেতে পারেন। কিন্তু দারুল কর্মকর্তারা তাঁদের স্বাগত জানাবেন না বা তাঁদের সঙ্গে দেখা করবেন না।

প্রসঙ্গত এর আগে মওলানা মগরুবুর রহমানযখন দেওবন্দের রেক্টর ছিলেন, সেই সময় মুলায়ম সিং যাদব সেখানে গিয়েছিলেন। তখন মগরুবুর রহমান তাঁকে স্বাগত জানাতে তাঁর মাথায় হাত রেখেছিলেন। পরে সেই ছবি ছড়িয়ে পড়ে। সবাই মনে করতে শুরু করে যে দেওবন্দের সমর্থন রয়েছে সমাজবাদী পার্টির সঙ্গে। পরে অবশ্য দেওবন্দ এহেন সমর্থন জানানোর কথা অস্বীকার করে। এই ধরনের কোনও ভুল বোঝাবুঝি যাতে আবারও না হয়, তাই আগেভাগে নিজেদের সিদ্ধান্তের কথা ঘোষণা করল দেওবন্দ কর্তৃপক্ষ।

বন্ধ করুন