বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > ভিউয়ের লোভ, কফিনবন্দি হয়ে ৫০ ঘণ্টা কাটালেন বিখ্যাত ইউটিউবার!
ছবি : ইউটিউব  (YouTube)
ছবি : ইউটিউব  (YouTube)

ভিউয়ের লোভ, কফিনবন্দি হয়ে ৫০ ঘণ্টা কাটালেন বিখ্যাত ইউটিউবার!

মাটির তলায় কফিনবন্দী হয়ে ৫০ ঘণ্টা কাটালেন জিমি ডোনাল্ডসন ওরফে মিস্টার বিস্ট।

ইউটিউবারদের আয় পুরোটাই ভিউয়ের উপর নির্ভরশীল। আর সেই ভিউ বাড়াতে আজব পন্থা বেছে নিলেন এক নামী ইউটিউবার। মাটির তলায় কফিনবন্দী হয়ে ৫০ ঘণ্টা কাটালেন জিমি ডোনাল্ডসন ওরফে মিস্টার বিস্ট।

আজব সব কনটেন্টই মিস্টার বিস্টের চ্যানেলের ইউএসপি। বেশিরভাগ ভিডিয়োরই মূলে কোনও না কোনও চ্যালেঞ্জ। কখনও নিজেই অংশ নেন চ্যালেঞ্জে। কখনও বা বন্ধু, এমনকী অচেনা পথচারীদের চ্যালেঞ্জে অংশ নেওয়ার অনুরোধ করেন।

চ্যালেঞ্জের ধরনও অদ্ভুত। কখনও অচেনা রেস্তোরাঁ কর্মীকে বলেন, 'চাকরিতে এখনই ইস্তফা দিন, আর পান এক লাখ ডলার নগদ'। কখনও আবার পাঁচজন বন্ধুকে একটি ল্যাম্বরগিনি ছুঁয়ে থাকতে বলেন। যিনি সবার শেষ পর্যন্ত একটানা গাড়িটি ছুঁয়ে থাকতে পারবেন, তিনিই গাড়িটি পেয়ে যাবেন। কখনও আবার শপিং মলে গিয়ে যাবতীয় জিনিস একসঙ্গে কিনে নেন।

এমন আজব সব চ্যালেঞ্জে ভিউও হয় প্রচুর। গড়ে ৩০-৪০ মিলিয়ন করে ভিউ হয় তাঁর ভিডিয়ো। সাবস্ক্রাইবারও ৫৭ মিলিয়নের বেশি। বিশ্বের বৃহত্তম ইউটিউবারদের মধ্যে মিস্টার বিস্ট একজন।

এবার তাঁর চ্যালেঞ্জ ছিল মাটির তলায় কফিনে ৫০ ঘণ্টা কাটানো। সেই চ্যালেঞ্জ সম্পূর্ণও করেছেন তিনি। পুরো সময়টাই ভিডিয়োর মাধ্যমে নজর রাখা হয়েছে তাঁর উপর। এসির মাধ্যমে পাইপে করে শ্বাস-প্রশ্বাসের ব্যবস্থা ছিল। ওয়াকিটকিতে যোগাযোগ রেখেছেন বন্ধুরা। একজন স্বাস্থ্যকর্মীও ছিলেন নজরদারিতে।

এমন ভয়ানক ভিডিয়োয় ভিউও হয়েছে প্রচুর। এখনও পর্যন্ত ৫৬ মিলিয়ন ভিউ হয়েছে তাঁর এই ভিডিয়োয়।

বন্ধ করুন