বাংলা নিউজ > ছবিঘর > দ্বিতীয় বিয়ে ভাঙল আমির খানের! লগানের সেটে কিরণের প্রেমে পড়েন, এক বছর লিভ ইনের পর বিয়ে

দ্বিতীয় বিয়ে ভাঙল আমির খানের! লগানের সেটে কিরণের প্রেমে পড়েন, এক বছর লিভ ইনের পর বিয়ে

  • লগানের সেটে প্রথম আলাপ, তখন ভালোবাসা ছিল মনে মনে।আমির-কিরণ একে অপরকে ডেট করা শুরু করেন ২০০৪ সালে। এক বছর লিভ ইনের পর বিয়ে।
শনিবার সকালে সকলকে চমকে দিয়ে বিচ্ছেদের ঘোষণা সারলেন আমির খান ও কিরণ রাও। ১৫ বছরের সংসারে ইতি টানলেন এই জুটি। তবে স্বামী-স্ত্রী হিসাবে নিজেদের পথচলা শেষ করলেও একে অপরের পরিবারের অংশ থাকবেন তাঁরা। নিজেদের সন্তানের দায়িত্বশীল বাবা-মা হিসাবে সবসময় একে অপরের পাশে থাকবেন, যৌথ বিবৃতিতে এমনটাই জানিয়েছেন দুজনে। 
1/10শনিবার সকালে সকলকে চমকে দিয়ে বিচ্ছেদের ঘোষণা সারলেন আমির খান ও কিরণ রাও। ১৫ বছরের সংসারে ইতি টানলেন এই জুটি। তবে স্বামী-স্ত্রী হিসাবে নিজেদের পথচলা শেষ করলেও একে অপরের পরিবারের অংশ থাকবেন তাঁরা। নিজেদের সন্তানের দায়িত্বশীল বাবা-মা হিসাবে সবসময় একে অপরের পাশে থাকবেন, যৌথ বিবৃতিতে এমনটাই জানিয়েছেন দুজনে। 
বলিউডের অন্যতম পারফেক্ট জুটি হিসাবে পরিচিত ছিলেন আমির-কিরণ। তাঁদের ডিভোর্সের ঘোষণায় সকলেই অবাক! কেন বিচ্ছেদের সিদ্ধান্ত সেই নিয়ে স্পষ্ট করে কিছুই জানাননি দুজনে, শুধু বলেছেন- 'এবার আমরা আমাদের জীবনের একটা নতুন অধ্যায় শুরু করতে চলেছি- সেখানে আমরা স্বামী,স্ত্রী নই, তবে আমরা বাবা-মা থাকব এবং অবশ্যই একে অপরের পরিবার থাকব’। 
2/10বলিউডের অন্যতম পারফেক্ট জুটি হিসাবে পরিচিত ছিলেন আমির-কিরণ। তাঁদের ডিভোর্সের ঘোষণায় সকলেই অবাক! কেন বিচ্ছেদের সিদ্ধান্ত সেই নিয়ে স্পষ্ট করে কিছুই জানাননি দুজনে, শুধু বলেছেন- 'এবার আমরা আমাদের জীবনের একটা নতুন অধ্যায় শুরু করতে চলেছি- সেখানে আমরা স্বামী,স্ত্রী নই, তবে আমরা বাবা-মা থাকব এবং অবশ্যই একে অপরের পরিবার থাকব’। 
আমিরের জীবন থেকে কিরণের এই সরে যাওয়াটা যেমন চমকে দিয়েছে ঠিক ততখানিই বিস্ময়কর ছিল তাঁদের সম্পর্কের শুরুটা। রিনা দত্তের সঙ্গে বিচ্ছেদের পরেও বন্ধুত্বের সম্পর্ক পুরো মাত্রায় টিকিয়ে রেখেছিলেন আমির। লগান ছবির সেটে কিরণের সঙ্গে প্রথম আলাপ মিস্টার পারফেকশানিস্টের। ছবির সহকারী পরিচালক ছিলেন কিরণ, আর ছবির প্রযোজক ছিলেন রিনা দত্ত। 
3/10আমিরের জীবন থেকে কিরণের এই সরে যাওয়াটা যেমন চমকে দিয়েছে ঠিক ততখানিই বিস্ময়কর ছিল তাঁদের সম্পর্কের শুরুটা। রিনা দত্তের সঙ্গে বিচ্ছেদের পরেও বন্ধুত্বের সম্পর্ক পুরো মাত্রায় টিকিয়ে রেখেছিলেন আমির। লগান ছবির সেটে কিরণের সঙ্গে প্রথম আলাপ মিস্টার পারফেকশানিস্টের। ছবির সহকারী পরিচালক ছিলেন কিরণ, আর ছবির প্রযোজক ছিলেন রিনা দত্ত। 
রিনা দত্তের সঙ্গে বিয়ে ভাঙার পর কোনও কাদা ছোঁড়াছুড়ি হয়নি, যেমনটা এইবারও ঘটল না। আমিরের দুই প্রাক্তন স্ত্রীর মধ্যেই শুরু থেকেই দারুণ সখ্যতা। পরস্পরের প্রতি সম্মান চোখে পড়ার মতো। দীর্ঘ সময় কিরণ কাজ করেছেন রিনা দত্তর সহকারী হিসাবে। এরপর আমিরের সঙ্গে প্রেম ও বিয়ে। অভিনেতার প্রথম পক্ষের দুই সন্তান ইরা ও জুনেইদের সঙ্গেও কিরণ রাওয়ের মসৃণ সম্পর্ক। 
4/10রিনা দত্তের সঙ্গে বিয়ে ভাঙার পর কোনও কাদা ছোঁড়াছুড়ি হয়নি, যেমনটা এইবারও ঘটল না। আমিরের দুই প্রাক্তন স্ত্রীর মধ্যেই শুরু থেকেই দারুণ সখ্যতা। পরস্পরের প্রতি সম্মান চোখে পড়ার মতো। দীর্ঘ সময় কিরণ কাজ করেছেন রিনা দত্তর সহকারী হিসাবে। এরপর আমিরের সঙ্গে প্রেম ও বিয়ে। অভিনেতার প্রথম পক্ষের দুই সন্তান ইরা ও জুনেইদের সঙ্গেও কিরণ রাওয়ের মসৃণ সম্পর্ক। 
হায়দরাবাদের এক রাজ পরিবারের মেয়ে কিরণ রাও। সম্পর্কে বলি অভিনেত্রী অদিতি রাও হায়দারি কিরণের তুতো বোন। কিরণের ঠাকুরদা এবং অদিতির দাদু জে রামেশ্বর রাও ছিলেন হায়দরাবাদের ওয়ানাপার্থির রাজা। আমির পত্নীর বড়ে ওঠা কলকাতায়। লরেটো হাউস এবং লা মার্টনেরি কলকাতায় পড়াশোনা করেছেন কিরণ। 
5/10হায়দরাবাদের এক রাজ পরিবারের মেয়ে কিরণ রাও। সম্পর্কে বলি অভিনেত্রী অদিতি রাও হায়দারি কিরণের তুতো বোন। কিরণের ঠাকুরদা এবং অদিতির দাদু জে রামেশ্বর রাও ছিলেন হায়দরাবাদের ওয়ানাপার্থির রাজা। আমির পত্নীর বড়ে ওঠা কলকাতায়। লরেটো হাউস এবং লা মার্টনেরি কলকাতায় পড়াশোনা করেছেন কিরণ। 
কলেজ জীবন থেকেই ফিল্ম মেকিংয়ের নেশা ভর করেছিল কিরণকে। মুম্বইতে দীর্ঘ সময় স্ট্রাগল করেছেন কিরণ, এরপর আশুতোষ গোয়ারিকরের ‘লগান’ ছবিতে সহকারী পরিচালকের কাজ পান কিরণ। এই ছবি বদলে দিয়েছিল কিরণ রাওয়ের ভাগ্য। এই ছবির সেটেই শুরু আমির-কিরণের ভালোলাগার কাহিনি। তবে সেটা ভালোবাসায় পৌঁছায়নি।
6/10কলেজ জীবন থেকেই ফিল্ম মেকিংয়ের নেশা ভর করেছিল কিরণকে। মুম্বইতে দীর্ঘ সময় স্ট্রাগল করেছেন কিরণ, এরপর আশুতোষ গোয়ারিকরের ‘লগান’ ছবিতে সহকারী পরিচালকের কাজ পান কিরণ। এই ছবি বদলে দিয়েছিল কিরণ রাওয়ের ভাগ্য। এই ছবির সেটেই শুরু আমির-কিরণের ভালোলাগার কাহিনি। তবে সেটা ভালোবাসায় পৌঁছায়নি।
কর্মসূত্রে ফের মুখোমুখি হন দুজনে। সেই সময় আমিরের ব্যক্তিগত জীবন টালমাটাল। রিনার সঙ্গে ১৪ বছরের দাম্পত্যের অবসান ঘটেছিল, মানসিকভাবে ভেঙে পড়েছিলেন আমির, পাশে দাঁড়াল কিরণ, বাড়িয়ে দেন বন্ধুত্বের হাত। সেই শুরু দুজনের প্রেম কাহিনির। 
7/10কর্মসূত্রে ফের মুখোমুখি হন দুজনে। সেই সময় আমিরের ব্যক্তিগত জীবন টালমাটাল। রিনার সঙ্গে ১৪ বছরের দাম্পত্যের অবসান ঘটেছিল, মানসিকভাবে ভেঙে পড়েছিলেন আমির, পাশে দাঁড়াল কিরণ, বাড়িয়ে দেন বন্ধুত্বের হাত। সেই শুরু দুজনের প্রেম কাহিনির। 
এরপর তাঁরা একসঙ্গে থাকলে শুরু করেন, এক বছর লিভ টুগেদারের পর ২০০৫ সালের ২৮ ডিসেম্বর বিয়ের পর্ব সারেন এই জুটি। কাঙ্খিত পরিণতি পায় আমির-কিরণের প্রেম। ২০১১ সালে এক সাক্ষাত্কারে কিরণ জানিয়েছিলেন, ‘আমার আর আমিরের প্রেম শুরু ২০০৪ সালে, আসলে আমরা একে অপরের রাত দুটোর বন্ধু ছিলাম! একটা মাত্র ফোন কল দূরে ছিলাম। এরপর আমরা একসঙ্গে থাকতে শুরু করি’। 
8/10এরপর তাঁরা একসঙ্গে থাকলে শুরু করেন, এক বছর লিভ টুগেদারের পর ২০০৫ সালের ২৮ ডিসেম্বর বিয়ের পর্ব সারেন এই জুটি। কাঙ্খিত পরিণতি পায় আমির-কিরণের প্রেম। ২০১১ সালে এক সাক্ষাত্কারে কিরণ জানিয়েছিলেন, ‘আমার আর আমিরের প্রেম শুরু ২০০৪ সালে, আসলে আমরা একে অপরের রাত দুটোর বন্ধু ছিলাম! একটা মাত্র ফোন কল দূরে ছিলাম। এরপর আমরা একসঙ্গে থাকতে শুরু করি’। 
২০১১ সালের সারোগেসির মাধ্যমে জন্ম হয় আমির-কিরণের একমাত্র সন্তান আজাদ রাও খানের। বলিউডের মোস্ট পারফেক্ট জুটির অন্যতম ছিলেন আমির-কিরণ। পেশাদার জীবন হোক বা ব্যক্তিগত জীবন সর্বদা একে অপরের হাত শক্ত করে ধরে রেখেছেন তাঁরা। কিরণ পরিচালিত একমাত্র ছবি ‘ধোবি ঘাট’-এ অভিনয়ও করেছেন আমির। 
9/10২০১১ সালের সারোগেসির মাধ্যমে জন্ম হয় আমির-কিরণের একমাত্র সন্তান আজাদ রাও খানের। বলিউডের মোস্ট পারফেক্ট জুটির অন্যতম ছিলেন আমির-কিরণ। পেশাদার জীবন হোক বা ব্যক্তিগত জীবন সর্বদা একে অপরের হাত শক্ত করে ধরে রেখেছেন তাঁরা। কিরণ পরিচালিত একমাত্র ছবি ‘ধোবি ঘাট’-এ অভিনয়ও করেছেন আমির। 
অবশেষে দীর্ঘ সাড়ে পনেরো বছর একসঙ্গে কাটানোর পর শনিবার ডিভোর্সের ঘোষণা সারেন আমির-কিরণ। তবে জানিয়েছেন, আলাদা থাকলেও ছেলে আজাদের দায়িত্ব একসঙ্গেই পালন করবেন দুজনে। ‘আমরা বিচ্ছেদের পরিকল্পনা বেশ কিছু সময় আগেই করে ফেলেছিলাম, এখন আমরা বিষয়টা জনসমক্ষে আনতে স্বচ্ছন্দবোধ করছি। আমরা আলাদা থাকলেও আমরা কিন্তু একই পরিবারের অংশ, সেভাবেই আমরা জীবনটা ভাগ করে নেব। আমরা আমাদের সন্তান আজাদের প্রতি সমর্পিত, যাঁকে একসঙ্গেই আমরা বড় করব’, যৌথ বিবৃতিতে এমনটাই বলেছেন প্রাক্তন জুটি। 
10/10অবশেষে দীর্ঘ সাড়ে পনেরো বছর একসঙ্গে কাটানোর পর শনিবার ডিভোর্সের ঘোষণা সারেন আমির-কিরণ। তবে জানিয়েছেন, আলাদা থাকলেও ছেলে আজাদের দায়িত্ব একসঙ্গেই পালন করবেন দুজনে। ‘আমরা বিচ্ছেদের পরিকল্পনা বেশ কিছু সময় আগেই করে ফেলেছিলাম, এখন আমরা বিষয়টা জনসমক্ষে আনতে স্বচ্ছন্দবোধ করছি। আমরা আলাদা থাকলেও আমরা কিন্তু একই পরিবারের অংশ, সেভাবেই আমরা জীবনটা ভাগ করে নেব। আমরা আমাদের সন্তান আজাদের প্রতি সমর্পিত, যাঁকে একসঙ্গেই আমরা বড় করব’, যৌথ বিবৃতিতে এমনটাই বলেছেন প্রাক্তন জুটি। 
অন্য গ্যালারিগুলি