বাড়ি > ছবিঘর > গালওয়ানের প্রতিবাদে কলকাতার চিনা মহল্লায় উঠল 'ভারত মাতা কী জয়'

গালওয়ানের প্রতিবাদে কলকাতার চিনা মহল্লায় উঠল 'ভারত মাতা কী জয়'

হতে পারেন চিনা বংশোদ্ভূত। কিন্তু আগে তাঁরা ভারতীয়।... more

ব্যবসা এবং কর্মসূত্রে অনেক বছর আগে কলকাতায় এসেছিলেন। সেখানেই রয়ে গিয়েছেন। ভারত-চিন সীমান্তে কী হচ্ছে, কীভাবে ভারতীয় জওয়ানদের হত্যা করা হয়েছে, তা ভালোভাবে জানেন। আর সেই চিনা নৃশংসতার বিরুদ্ধে সরব হলেন কলকাতার চিনা বংশোদ্ভূত মানুষরা। (ছবি সৌজন্য এএফপি)
1/6ব্যবসা এবং কর্মসূত্রে অনেক বছর আগে কলকাতায় এসেছিলেন। সেখানেই রয়ে গিয়েছেন। ভারত-চিন সীমান্তে কী হচ্ছে, কীভাবে ভারতীয় জওয়ানদের হত্যা করা হয়েছে, তা ভালোভাবে জানেন। আর সেই চিনা নৃশংসতার বিরুদ্ধে সরব হলেন কলকাতার চিনা বংশোদ্ভূত মানুষরা। (ছবি সৌজন্য এএফপি)
শনিবার বিকেলে ট্যাংরার চিনা মহল্লার সংলগ্ন গেটের সামনে ভারতীয় সেনাকে সমর্থন জানালেন তাঁরা। (ছবি সৌজন্য এএফপি)
2/6শনিবার বিকেলে ট্যাংরার চিনা মহল্লার সংলগ্ন গেটের সামনে ভারতীয় সেনাকে সমর্থন জানালেন তাঁরা। (ছবি সৌজন্য এএফপি)
কারোর হাতে পোস্টার ছিল ‘উই আর ইন্ডিয়ান’, কারোর হাতে আবার ছিল ‘উই স্ট্যান্ড ইন্ডিয়ান আর্মি’ পোস্টার। (ছবি সৌজন্য এএফপি)
3/6কারোর হাতে পোস্টার ছিল ‘উই আর ইন্ডিয়ান’, কারোর হাতে আবার ছিল ‘উই স্ট্যান্ড ইন্ডিয়ান আর্মি’ পোস্টার। (ছবি সৌজন্য এএফপি)
প্ল্যাকার্ড নিয়ে প্রতিবাদের পাশাপাশি বিক্ষোভ মিছিলও করা হয়। স্লোগান ওঠে 'ভারত মাতা কী জয়', 'বন্দে মাতরম'। (ছবি সৌজন্য এএনআই)
4/6প্ল্যাকার্ড নিয়ে প্রতিবাদের পাশাপাশি বিক্ষোভ মিছিলও করা হয়। স্লোগান ওঠে 'ভারত মাতা কী জয়', 'বন্দে মাতরম'। (ছবি সৌজন্য এএনআই)
মিছিলে এক বৃদ্ধ বলেন, 'এখানেই জন্মেছি, এখানেই মরব, এই (দেশকে) ছেড়ে কোথায় যাব?' (ছবি সৌজন্য পিটিআই)
5/6মিছিলে এক বৃদ্ধ বলেন, 'এখানেই জন্মেছি, এখানেই মরব, এই (দেশকে) ছেড়ে কোথায় যাব?' (ছবি সৌজন্য পিটিআই)
কলকাতায় আপাতত ১,০০০-এর বেশি চিনা বংশোদ্ভূত মানুষ থাকেন। অধিকাংশেরই জন্ম ভারতে। তাঁদের মধ্যে ৬৫ শতাংশ মানুষ হক্কা ভাষায় কথা বলেন। যে ভাষা দক্ষিণ চিনে প্রচলিত। বাকিরা ক্যানটনিজ ভাষায় কথা বলেন। (ছবি সৌজন্য এএনআই)
6/6কলকাতায় আপাতত ১,০০০-এর বেশি চিনা বংশোদ্ভূত মানুষ থাকেন। অধিকাংশেরই জন্ম ভারতে। তাঁদের মধ্যে ৬৫ শতাংশ মানুষ হক্কা ভাষায় কথা বলেন। যে ভাষা দক্ষিণ চিনে প্রচলিত। বাকিরা ক্যানটনিজ ভাষায় কথা বলেন। (ছবি সৌজন্য এএনআই)
অন্য গ্যালারিগুলি