বাংলা নিউজ > ছবিঘর > মিড-ডে মিলে বদল! আগে স্কুলে খাবারের খরচ মেপে তবেই টাকা দেবে কেন্দ্র

মিড-ডে মিলে বদল! আগে স্কুলে খাবারের খরচ মেপে তবেই টাকা দেবে কেন্দ্র

  • দুর্নীতি রোখার জন্য বিভিন্ন পদক্ষেপের একটি অংশ এটি। এ বার থেকে মিড-ডে-মিলের জন্য একটি জ়িরো ব্যালান্স অ্যাকাউন্ট খোলা হবে।
মিড-ডে মিলের অর্থায়ন প্রক্রিয়াতে বদল আনল কেন্দ্র। দুর্নীতি রোখার জন্য বিভিন্ন পদক্ষেপের একটি অংশ এটি। এ বার থেকে মিড-ডে-মিলের জন্য একটি জ়িরো ব্যালান্স অ্যাকাউন্ট খোলা হবে। তাতে কেন্দ্র ৬০% টাকা দেবে। বাকি ৪০% দেবে রাজ্য সরকার। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই) (PTI)
1/5মিড-ডে মিলের অর্থায়ন প্রক্রিয়াতে বদল আনল কেন্দ্র। দুর্নীতি রোখার জন্য বিভিন্ন পদক্ষেপের একটি অংশ এটি। এ বার থেকে মিড-ডে-মিলের জন্য একটি জ়িরো ব্যালান্স অ্যাকাউন্ট খোলা হবে। তাতে কেন্দ্র ৬০% টাকা দেবে। বাকি ৪০% দেবে রাজ্য সরকার। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই) (PTI)
বছরের শেষে ব্যালেন্সশিট যাচাই করা হবে। যদি দেখা যায় কেন্দ্রের পাঠানো পুরো টাকাটা খরচ হয়নি, সেক্ষেত্রে বরাদ্দ থেকে সেই পরিমাণ টাকা কেটে পরের কিস্তিতে টাকা পাঠাবে কেন্দ্র। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য হিন্দুস্তান টাইমস)  (HT Photo)
2/5বছরের শেষে ব্যালেন্সশিট যাচাই করা হবে। যদি দেখা যায় কেন্দ্রের পাঠানো পুরো টাকাটা খরচ হয়নি, সেক্ষেত্রে বরাদ্দ থেকে সেই পরিমাণ টাকা কেটে পরের কিস্তিতে টাকা পাঠাবে কেন্দ্র। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য হিন্দুস্তান টাইমস)  (HT Photo)
ইতিমধ্যেই সমস্ত জেলা প্রশাসনকে জ়িরো ব্যালান্স অ্যাকাউন্টের বিষয়ে জানিয়েছে রাজ্য। ছবি : টুইটার (Twitter)
3/5ইতিমধ্যেই সমস্ত জেলা প্রশাসনকে জ়িরো ব্যালান্স অ্যাকাউন্টের বিষয়ে জানিয়েছে রাজ্য। ছবি : টুইটার (Twitter)
এর আগে আগে রাজ্য স্তর থেকে জেলায় সরাসরি টাকা পৌঁছে যেত। কিন্তু পুরো টাকাটা খরচ না হলে তা ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে জমতে থাকত। সময়ের সঙ্গে সুদ-আসল মিলিয়ে তা বিপুল অঙ্কে পরিণত হত। সেই প্রবণতা ঠেকাতেই এই প্রচেষ্টা। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই) (PTI)
4/5এর আগে আগে রাজ্য স্তর থেকে জেলায় সরাসরি টাকা পৌঁছে যেত। কিন্তু পুরো টাকাটা খরচ না হলে তা ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে জমতে থাকত। সময়ের সঙ্গে সুদ-আসল মিলিয়ে তা বিপুল অঙ্কে পরিণত হত। সেই প্রবণতা ঠেকাতেই এই প্রচেষ্টা। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই) (PTI)
এখন অব্যবহৃত টাকা ধাপে ধারে স্কুল, ব্লক, জেলা হয়ে ফিরে যাবে রাজ্য স্তরের মূল তহবিলে। ফলে রাজ্য কতটা খরচ করছে, তা এক নজরে বলে দিতে পারবে যে কেউ। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই) (PTI)
5/5এখন অব্যবহৃত টাকা ধাপে ধারে স্কুল, ব্লক, জেলা হয়ে ফিরে যাবে রাজ্য স্তরের মূল তহবিলে। ফলে রাজ্য কতটা খরচ করছে, তা এক নজরে বলে দিতে পারবে যে কেউ। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই) (PTI)
অন্য গ্যালারিগুলি