বাংলা নিউজ > ছবিঘর > IPL 2021: CSK বনাম KKR ম্যাচে হল একগুচ্ছে রেকর্ড, জানেন সেগুলি কী?

IPL 2021: CSK বনাম KKR ম্যাচে হল একগুচ্ছে রেকর্ড, জানেন সেগুলি কী?

  • বুধবার ওয়াংখেড়েতে কলকাতা নাইট রাইডার্স এবং চেন্নাই সুপার কিংসের মধ্যে টানটান উত্তজেনার ম্যাচে হল একগুচ্ছ রেকর্ড। একজনজরে দেখে নেওয়া যাক সেই রেকর্ডের খতিয়ান।
প্যাট কামিন্সের ৬৮-- আটে ব্যাট করতে নেমে নতুন রেকর্ড করলেন প্যাট কামিন্স। তাঁর করা ৩৪ বলে ৬৬ রান এই মুহূর্তে আট নম্বরে ব্যাট করতে নামা বা টেল এন্ডার ব্যাটসম্যানদের মধ্যে সর্বোচ্চ। এর আগে এই রেকর্ড ছিল হরভজন সিংয়ের। ২০১৫ সালে আটে ব্যাট করতে নেমে পঞ্জাব কিংসের বিরুদ্ধে তিনি করেছিলেন ৬৪। এ ছাড়াও ২০১৭ সালে মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের বিরুদ্ধে ক্রিস মরিসের ৫২রান রয়েছে তিন নম্বরে। ছবি: পিটিআই
1/7প্যাট কামিন্সের ৬৮-- আটে ব্যাট করতে নেমে নতুন রেকর্ড করলেন প্যাট কামিন্স। তাঁর করা ৩৪ বলে ৬৬ রান এই মুহূর্তে আট নম্বরে ব্যাট করতে নামা বা টেল এন্ডার ব্যাটসম্যানদের মধ্যে সর্বোচ্চ। এর আগে এই রেকর্ড ছিল হরভজন সিংয়ের। ২০১৫ সালে আটে ব্যাট করতে নেমে পঞ্জাব কিংসের বিরুদ্ধে তিনি করেছিলেন ৬৪। এ ছাড়াও ২০১৭ সালে মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের বিরুদ্ধে ক্রিস মরিসের ৫২রান রয়েছে তিন নম্বরে। ছবি: পিটিআই
অল আউটের সর্বোচ্চ স্কোর-- চেন্নাইয়ের রান তাড়া করতে নেমে কলকাতা নাইট রাইডার্সের ২০২ রানে অল আউট হওয়াটাও একটা রেকর্ড। এত বেশি রান করে এর আগে কেউ অল আউট হয়নি। অল আউটের সর্বোচ্চ স্কোর করল নাইট রাইডার্স। এর আগে মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের ১৮৮ ছিল সর্বোচ্চ স্কোর। ২০০৮ সালে পঞ্জাব কিংসের বিরুদ্ধে ১৯০ রান তাড়া করতে নেমে ১৮৮-তে অল আউট হয়ে যায় মুম্বই। ছবি: পিটিআই
2/7অল আউটের সর্বোচ্চ স্কোর-- চেন্নাইয়ের রান তাড়া করতে নেমে কলকাতা নাইট রাইডার্সের ২০২ রানে অল আউট হওয়াটাও একটা রেকর্ড। এত বেশি রান করে এর আগে কেউ অল আউট হয়নি। অল আউটের সর্বোচ্চ স্কোর করল নাইট রাইডার্স। এর আগে মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের ১৮৮ ছিল সর্বোচ্চ স্কোর। ২০০৮ সালে পঞ্জাব কিংসের বিরুদ্ধে ১৯০ রান তাড়া করতে নেমে ১৮৮-তে অল আউট হয়ে যায় মুম্বই। ছবি: পিটিআই
৫০ রানের মধ্যে ৫ উইকেট হরানোর পর নাইট রাইডার্সই একমাত্র দল, যারা ২০০ -র উপর রান করল। এটাও কিন্তু একটি নতুন রেকর্ড। চেন্নাইয়ের বিরুদ্ধে ৩১ রানে ৫ উইকেট পড়ে গিয়েছিল কেকেআর-এর। ছবি: পিটিআই
3/7৫০ রানের মধ্যে ৫ উইকেট হরানোর পর নাইট রাইডার্সই একমাত্র দল, যারা ২০০ -র উপর রান করল। এটাও কিন্তু একটি নতুন রেকর্ড। চেন্নাইয়ের বিরুদ্ধে ৩১ রানে ৫ উইকেট পড়ে গিয়েছিল কেকেআর-এর। ছবি: পিটিআই
৮ জন ব্যাটসম্যান ৯-এর উপর রান করতে পারেনি। তবু ২০২ রান করেছে কেকেআর। ৮ জন ব্যাটসম্যানের একক সংখ্যক রানের পরও এত রান করাটা শুধু আইপিএলে নয়, বিশ্ব ক্রিকেটে সর্বোচ্চ স্কোর। এর আগে ২০১৪ বিশ্বকাপে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে অস্ট্রেলিয়া ১৭৫ রান করেছিল। সেই ম্যাচেও অস্ট্রেলিয়ার বহু ব্যাটসম্যানই ৯-এর উপর রান করতে পারেনি। এটাই ছিল এতদিন সর্বোচ্চ। সেই রেকর্ড নাইটরা ভেঙে দেন। ছবি: পিটিআই
4/7৮ জন ব্যাটসম্যান ৯-এর উপর রান করতে পারেনি। তবু ২০২ রান করেছে কেকেআর। ৮ জন ব্যাটসম্যানের একক সংখ্যক রানের পরও এত রান করাটা শুধু আইপিএলে নয়, বিশ্ব ক্রিকেটে সর্বোচ্চ স্কোর। এর আগে ২০১৪ বিশ্বকাপে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে অস্ট্রেলিয়া ১৭৫ রান করেছিল। সেই ম্যাচেও অস্ট্রেলিয়ার বহু ব্যাটসম্যানই ৯-এর উপর রান করতে পারেনি। এটাই ছিল এতদিন সর্বোচ্চ। সেই রেকর্ড নাইটরা ভেঙে দেন। ছবি: পিটিআই
দীপক চাহারের ৪ উইকেট-- দীপক চাহার পাওয়ার প্লে-তে ৪ উইকেট নেন। এটা দ্বিতীয় সর্বোচ্চ। এর আগে পাওয়ার প্লে-তে ইশান্ত শর্মা ৬ ওভারের মধ্যে ৫ উইকেট নিয়েছিল। তবে চেন্নাইয়ের হয়ে দীপকই প্রথম বোলার, যিনি ৬ ওভারে ৪ উইকেট নেন।
5/7দীপক চাহারের ৪ উইকেট-- দীপক চাহার পাওয়ার প্লে-তে ৪ উইকেট নেন। এটা দ্বিতীয় সর্বোচ্চ। এর আগে পাওয়ার প্লে-তে ইশান্ত শর্মা ৬ ওভারের মধ্যে ৫ উইকেট নিয়েছিল। তবে চেন্নাইয়ের হয়ে দীপকই প্রথম বোলার, যিনি ৬ ওভারে ৪ উইকেট নেন।
রাসেল কামিন্সের অর্ধশতরান-- সাত এবং আটে ব্যাট করতে নামা দুই ব্যাটসম্যানই অর্ধশতরান করেছেন, এমন উদাহরণ আইপিএলে নেই। প্যাট কামিন্স এবং রাসেল দু'জনেই বুধবার অর্ধশতরান করেন। রাসেলের ২২ বলে ৫৪ এবং কামিন্সের অপরাজিত ৩৪ বলে ৬৬ রানের দৌলতে দু'শোর গণ্ডি টপকায় কেকেআর। ২০১২-'১৩ সৈয়দ মুস্তাক আলি ট্রফিতে হরিয়ানার বিরুদ্ধে জম্মু কাশ্মীরের ইনিংসে এমন ঘটনা ঘটেছিল। ছবি: এএনআই
6/7রাসেল কামিন্সের অর্ধশতরান-- সাত এবং আটে ব্যাট করতে নামা দুই ব্যাটসম্যানই অর্ধশতরান করেছেন, এমন উদাহরণ আইপিএলে নেই। প্যাট কামিন্স এবং রাসেল দু'জনেই বুধবার অর্ধশতরান করেন। রাসেলের ২২ বলে ৫৪ এবং কামিন্সের অপরাজিত ৩৪ বলে ৬৬ রানের দৌলতে দু'শোর গণ্ডি টপকায় কেকেআর। ২০১২-'১৩ সৈয়দ মুস্তাক আলি ট্রফিতে হরিয়ানার বিরুদ্ধে জম্মু কাশ্মীরের ইনিংসে এমন ঘটনা ঘটেছিল। ছবি: এএনআই
স্যাম কুরানের ৫৮ রান দেওয়া-- নাইটদের বিরুদ্ধে বল করতে নেমে ৫৮ রান দেন স্যাম কুরান। তাঁর এক ওভারেই চারটে ছয় এবং একটি চার মেরে সব মিলিয়ে মোট ৩০ রান নেন প্যাট কামিন্স। বাকি তিন ওভারে ২৮ রান দেন স্যাাম কুরান। এটাই কোনও বোলারের দেওয়া সর্বোচ্চ রান। এর আগে ২০১৫ সালে চেন্নাইয়ের মোহিশ শর্মাও সানরাইডার্স হায়দরাবাদের বিরুদ্ধে ৫৮ রান দিয়েছিলেন। যুগ্ম ভাবে সিএসকে-র দুই বোলার শীর্ষে রয়েছে। ছবি: পিটিআই (PTI)
7/7স্যাম কুরানের ৫৮ রান দেওয়া-- নাইটদের বিরুদ্ধে বল করতে নেমে ৫৮ রান দেন স্যাম কুরান। তাঁর এক ওভারেই চারটে ছয় এবং একটি চার মেরে সব মিলিয়ে মোট ৩০ রান নেন প্যাট কামিন্স। বাকি তিন ওভারে ২৮ রান দেন স্যাাম কুরান। এটাই কোনও বোলারের দেওয়া সর্বোচ্চ রান। এর আগে ২০১৫ সালে চেন্নাইয়ের মোহিশ শর্মাও সানরাইডার্স হায়দরাবাদের বিরুদ্ধে ৫৮ রান দিয়েছিলেন। যুগ্ম ভাবে সিএসকে-র দুই বোলার শীর্ষে রয়েছে। ছবি: পিটিআই (PTI)
অন্য গ্যালারিগুলি