বাংলা নিউজ > ছবিঘর > RCB vs KKR: রাসেলের দুর্দশা থেকে মিডল অর্ডারের ব্যর্থতা - কোন কোন কারণে হার KKR-র?

RCB vs KKR: রাসেলের দুর্দশা থেকে মিডল অর্ডারের ব্যর্থতা - কোন কোন কারণে হার KKR-র?

  • তৃতীয় ম্যাচে ভাগ্য ফিরল না কলকাতা নাইট রাইডার্সের (কেকেআর)। চেন্নাইয়ে আবারও হারের মুখ দেখতে হল নাইটদের। রবিবার রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোরের বিরুদ্ধে ৩৮ রানে হারল কেকেআর। কোন কোন হারল কেকেআর, দেখে নিন একনজরে -
রাসেলের দুর্দশা থেকে মিডল অর্ডারের ব্যর্থতা - কোন কোন কারণে হার KKR-র? (ছবি সৌজন্য আইপিএল)
1/8রাসেলের দুর্দশা থেকে মিডল অর্ডারের ব্যর্থতা - কোন কোন কারণে হার KKR-র? (ছবি সৌজন্য আইপিএল)
ইয়ন মর্গ্যানের অধিনায়কত্ব : দারুণ শুরু করেছিলেন বরুণ চক্রবর্তী। প্রথম ওভারেই জোড়া উইকেট পেয়েছিলেন। কিন্তু তাঁকে দ্বিতীয় ওভারে বলই দিলেন না ইয়ন মর্গ্যান। পরে যখন বরুণকে যখন আনলেন, তখন ক্রিজে জমে গিয়েছেন গ্লেন ম্যাক্সওয়েল। (ছবি সৌজন্য আইপিএল)
2/8ইয়ন মর্গ্যানের অধিনায়কত্ব : দারুণ শুরু করেছিলেন বরুণ চক্রবর্তী। প্রথম ওভারেই জোড়া উইকেট পেয়েছিলেন। কিন্তু তাঁকে দ্বিতীয় ওভারে বলই দিলেন না ইয়ন মর্গ্যান। পরে যখন বরুণকে যখন আনলেন, তখন ক্রিজে জমে গিয়েছেন গ্লেন ম্যাক্সওয়েল। (ছবি সৌজন্য আইপিএল)
গ্লেন ম্যাক্সওয়েল : শুরুটা দারুণ করেছিল কেকেআর। কিন্তু প্রতি-আক্রমণের পথ বেছে নেন ম্যাক্সওয়েল। নাইট বোলারদের রীতিমতো শাসন করেন ম্যাক্সওয়েল। শেষপর্যন্ত ৪৯ বলে ৭৮ রান করেন। (ছবি সৌজন্য আইপিএল)
3/8গ্লেন ম্যাক্সওয়েল : শুরুটা দারুণ করেছিল কেকেআর। কিন্তু প্রতি-আক্রমণের পথ বেছে নেন ম্যাক্সওয়েল। নাইট বোলারদের রীতিমতো শাসন করেন ম্যাক্সওয়েল। শেষপর্যন্ত ৪৯ বলে ৭৮ রান করেন। (ছবি সৌজন্য আইপিএল)
এবি ডি'ভিলিয়ার্স : চেন্নাইয়ের পিচে নাকি ইনিংসের শেষের দিকে চেন্নাইয়ে খেলা যাচ্ছে না। আবারও সেই ধারণা ভেঙে দিলেন। ৩৪ বলে করলেন ৭৪ রান। (ছবি সৌজন্য আইপিএল)
4/8এবি ডি'ভিলিয়ার্স : চেন্নাইয়ের পিচে নাকি ইনিংসের শেষের দিকে চেন্নাইয়ে খেলা যাচ্ছে না। আবারও সেই ধারণা ভেঙে দিলেন। ৩৪ বলে করলেন ৭৪ রান। (ছবি সৌজন্য আইপিএল)
শেষ তিন ওভারে আরসিবি ঝড় : ১৭ ওভারে চার উইকেটে ১৪৮ রান ছিল। সেখান থেকে শেষ তিন ওভারে ৫৬ রান তোলে আরসিবি। তার ফলে বিরাট কোহলিদের স্কোর ২০০-র গণ্ডি টপকে যায়। (ছবি সৌজন্য আইপিএল)
5/8শেষ তিন ওভারে আরসিবি ঝড় : ১৭ ওভারে চার উইকেটে ১৪৮ রান ছিল। সেখান থেকে শেষ তিন ওভারে ৫৬ রান তোলে আরসিবি। তার ফলে বিরাট কোহলিদের স্কোর ২০০-র গণ্ডি টপকে যায়। (ছবি সৌজন্য আইপিএল)
রাসেলের জঘন্য বোলিং : মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের বিরুদ্ধে দুর্দান্ত বল করেছিলেন। আর ডেথ ওভারে বল করে দু'ওভারে দিলেন ৩৮ রান। ১৮ তম ওভারে তাঁকে বোলিংয়ে এনেছিলেন ইয়ন মর্গ্যান। (ফাইল ছবি, সৌজন্য আইপিএল)
6/8রাসেলের জঘন্য বোলিং : মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের বিরুদ্ধে দুর্দান্ত বল করেছিলেন। আর ডেথ ওভারে বল করে দু'ওভারে দিলেন ৩৮ রান। ১৮ তম ওভারে তাঁকে বোলিংয়ে এনেছিলেন ইয়ন মর্গ্যান। (ফাইল ছবি, সৌজন্য আইপিএল)
কেকেআরের মিডল অর্ডারের ব্যর্থতা : শুরুটা ভালো করেছিল কেকেআর। প্রথম ছ'ওভারে উঠেছিল দু'উইকেটে ৫৭ রান। সেখান থেকে পুরোপুরি ব্যর্থ মিডল অর্ডার। ইয়ন মর্গ্যান করলেন ২৩ বলে ২৯ রান। দীনেশ কার্তিক করেছেন পাঁচ বলে দু'রান। শাকিব আল হাসান করেছেন ২৫ বলে ২৬ রান। আন্দ্রে রাসেলের অবদান ৩০ বলে ৩১ রান। (ছবি সৌজন্য আইপিএল)
7/8কেকেআরের মিডল অর্ডারের ব্যর্থতা : শুরুটা ভালো করেছিল কেকেআর। প্রথম ছ'ওভারে উঠেছিল দু'উইকেটে ৫৭ রান। সেখান থেকে পুরোপুরি ব্যর্থ মিডল অর্ডার। ইয়ন মর্গ্যান করলেন ২৩ বলে ২৯ রান। দীনেশ কার্তিক করেছেন পাঁচ বলে দু'রান। শাকিব আল হাসান করেছেন ২৫ বলে ২৬ রান। আন্দ্রে রাসেলের অবদান ৩০ বলে ৩১ রান। (ছবি সৌজন্য আইপিএল)
আরসিবির দুরন্ত বোলিং : সপ্তম ওভার থেকে ভালো বোলিং করেন বিরাট কোহলির ছেলেরা। বলের পেসের হেরফের ঘটিয়ে, সঠিক জায়গায় বল করে কেকেআরের ব্যাটসম্যানদের বড় শট মারার সুযোগ দেননি। তার ফলে ক্রমশ বাড়তে থাকতে রিকোয়ার্ড রানরেট। (ছবি সৌজন্য আইপিএল)
8/8আরসিবির দুরন্ত বোলিং : সপ্তম ওভার থেকে ভালো বোলিং করেন বিরাট কোহলির ছেলেরা। বলের পেসের হেরফের ঘটিয়ে, সঠিক জায়গায় বল করে কেকেআরের ব্যাটসম্যানদের বড় শট মারার সুযোগ দেননি। তার ফলে ক্রমশ বাড়তে থাকতে রিকোয়ার্ড রানরেট। (ছবি সৌজন্য আইপিএল)
অন্য গ্যালারিগুলি