বাংলা নিউজ > ছবিঘর > নন্দীগ্রামে মমতার চোটের ঘটনায় কার ভোটে সুবিধা? কী বলছেন মানুষ?, জানুন সমীক্ষায়

নন্দীগ্রামে মমতার চোটের ঘটনায় কার ভোটে সুবিধা? কী বলছেন মানুষ?, জানুন সমীক্ষায়

  • রাজ্যে এখন আলোচনায় কেন্দ্রবিন্দু একটাই বিষয় - মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের চোট। আর তা নিয়ে রাজনৈতিক তরজা থামার কোনও লক্ষ্মণ নেই। বরং ক্রমশ তা বেড়ে চলেছে। তৃণমূল কংগ্রেসের দাবি, ‘ষড়যন্ত্র’ করে মমতার উপর ‘হামলা’ চালানো হয়েছে। মুখ্যমন্ত্রীর নিরাপত্তায় 'ফাঁক' নিয়েও নির্বাচন কমিশনকে আক্রমণ শানানো হয়েছে। যদিও বিরোধীদের দাবি, ‘নাটক’ করছেন মুখ্যমন্ত্রী। কিন্তু নন্দীগ্রামে মমতার চোট নিয়ে রাজ্যবাসী কী ভাবছেন, তা দেখে নিন একনজরে -
মমতার চোট নিয়ে 'স্ন্যাপ পোল' চালিয়েছে সি ভোটার। ১,৪৯৩ জন ভোটারের সামনে তিনটি রাখা হয়েছিল। তার ভিত্তিতে দেখে নিন, সেই ঘটনা নিয়ে কী ভাবছেন রাজ্যের মানুষ। (ফাইল ছবি, সৌজন্য পিটিআই)
1/7মমতার চোট নিয়ে 'স্ন্যাপ পোল' চালিয়েছে সি ভোটার। ১,৪৯৩ জন ভোটারের সামনে তিনটি রাখা হয়েছিল। তার ভিত্তিতে দেখে নিন, সেই ঘটনা নিয়ে কী ভাবছেন রাজ্যের মানুষ। (ফাইল ছবি, সৌজন্য পিটিআই)
সমীক্ষা অনুযায়ী, ৪৪ শতাংশ মানুষ ‘ষড়যন্ত্র’ তথ্যকে সত্যি হিসেবে মনে করেছেন। ‘নাটক’ হিসেবে বিরোধীদের একাংশ যে অভিযোগ করেছেন, তার পক্ষে রায় দিয়েছেন ৩৯ শতাংশ মানুষ। ১৭ শতাংশ কোনও উত্তর দিতে চাননি। (ফাইল ছবি, সৌজন্য পিটিআই)
2/7সমীক্ষা অনুযায়ী, ৪৪ শতাংশ মানুষ ‘ষড়যন্ত্র’ তথ্যকে সত্যি হিসেবে মনে করেছেন। ‘নাটক’ হিসেবে বিরোধীদের একাংশ যে অভিযোগ করেছেন, তার পক্ষে রায় দিয়েছেন ৩৯ শতাংশ মানুষ। ১৭ শতাংশ কোনও উত্তর দিতে চাননি। (ফাইল ছবি, সৌজন্য পিটিআই)
নন্দীগ্রামে মমতা চোট পাওয়ার ঘটনায় সিবিআই তদন্ত হওয়া উচিত কী? সেই প্রশ্নে ইতিবাচক উত্তর দিয়েছেন ৪৯ শতাংশ মানুষ। সিবিআই তদন্তের পক্ষে নন ২৯ শতাংশ মানুষ। ২২ শতাংশ মানুষ কোনও উত্তর দিতে রাজি হননি। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য এএনআই)
3/7নন্দীগ্রামে মমতা চোট পাওয়ার ঘটনায় সিবিআই তদন্ত হওয়া উচিত কী? সেই প্রশ্নে ইতিবাচক উত্তর দিয়েছেন ৪৯ শতাংশ মানুষ। সিবিআই তদন্তের পক্ষে নন ২৯ শতাংশ মানুষ। ২২ শতাংশ মানুষ কোনও উত্তর দিতে রাজি হননি। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য এএনআই)
সমীক্ষা অনুযায়ী, নন্দীগ্রামের ঘটনায় বিধানসভা ভোটে তৃণমূল কংগ্রেস ফায়দা পাবে বলে মনে করছেন ৪৪ শতাংশ মানুষ। যদিও ৩৪ শতাংশ মানুষের মতে সেই ঘটনায় লাভের গুড় ঘরে তুলবে বিজেপি। তৃণমূল এবং বিজেপির পরিবর্তে নন্দীগ্রামের ঘটনায় বাম, কংগ্রেস এবং ইন্ডিয়ান সেকুলার ফ্রন্টের লাভ হতে পারে বলে মত ১২ শতাংশ মানুষের। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)
4/7সমীক্ষা অনুযায়ী, নন্দীগ্রামের ঘটনায় বিধানসভা ভোটে তৃণমূল কংগ্রেস ফায়দা পাবে বলে মনে করছেন ৪৪ শতাংশ মানুষ। যদিও ৩৪ শতাংশ মানুষের মতে সেই ঘটনায় লাভের গুড় ঘরে তুলবে বিজেপি। তৃণমূল এবং বিজেপির পরিবর্তে নন্দীগ্রামের ঘটনায় বাম, কংগ্রেস এবং ইন্ডিয়ান সেকুলার ফ্রন্টের লাভ হতে পারে বলে মত ১২ শতাংশ মানুষের। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)
গত বুধবার সন্ধ্যায় নন্দীগ্রামে বিরুলিয়া বাজারের কাছে পায়ে চোট পান মমতা। প্রাথমিকভাবে খাড়া করেছিলেন ‘ষড়যন্ত্র’-এর তত্ত্ব। অভিযোগ করেছিলেন, চার-পাঁচজন তাঁকে ‘ইচ্ছাকৃতভাবে’ ধাক্কা মেরেছে। মমতার কথায়, ‘আমি গাড়ির কাছে দাঁড়িয়ে নমস্কার করছিলাম। তখন চার-পাঁচজন লোক আচমকা দরজা বন্ধ করে দেয়। পায়ে পুরো আটকে গিয়েছিল। পা পুরো ফুলে গিয়েছে। অনেক মানুষ ছিলেন। কিন্তু তাঁরা করেননি। এটা চক্রান্ত তো বটেই। চক্রান্ত তো বটেই। পুলিশ সুপার ছিলেন না। সারাদিন অনুষ্ঠান করলাম। আমার বুকে ব্যথা হচ্ছে।’ (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য এএনআই)
5/7গত বুধবার সন্ধ্যায় নন্দীগ্রামে বিরুলিয়া বাজারের কাছে পায়ে চোট পান মমতা। প্রাথমিকভাবে খাড়া করেছিলেন ‘ষড়যন্ত্র’-এর তত্ত্ব। অভিযোগ করেছিলেন, চার-পাঁচজন তাঁকে ‘ইচ্ছাকৃতভাবে’ ধাক্কা মেরেছে। মমতার কথায়, ‘আমি গাড়ির কাছে দাঁড়িয়ে নমস্কার করছিলাম। তখন চার-পাঁচজন লোক আচমকা দরজা বন্ধ করে দেয়। পায়ে পুরো আটকে গিয়েছিল। পা পুরো ফুলে গিয়েছে। অনেক মানুষ ছিলেন। কিন্তু তাঁরা করেননি। এটা চক্রান্ত তো বটেই। চক্রান্ত তো বটেই। পুলিশ সুপার ছিলেন না। সারাদিন অনুষ্ঠান করলাম। আমার বুকে ব্যথা হচ্ছে।’ (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য এএনআই)
দিও বৃহস্পতিবার হাসপাতাল থেকে ভিডিয়োয় যে বার্তা দিয়েছেন, তাতে 'ষড়যন্ত্র'-এর কোনও উল্লেখ করেননি মমতা। ঘটনার বিবরণ দিয়ে মমতা জানান, তিনি গাড়ির বনেটের উপরে দাঁড়িয়ে আমজনতাকে নমস্কার করছিলেন। তখন জোরে চাপ আসে। তাতে গাড়ির দরজা পায়ের উপর চেপে যায়। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য এএনআই)
6/7দিও বৃহস্পতিবার হাসপাতাল থেকে ভিডিয়োয় যে বার্তা দিয়েছেন, তাতে 'ষড়যন্ত্র'-এর কোনও উল্লেখ করেননি মমতা। ঘটনার বিবরণ দিয়ে মমতা জানান, তিনি গাড়ির বনেটের উপরে দাঁড়িয়ে আমজনতাকে নমস্কার করছিলেন। তখন জোরে চাপ আসে। তাতে গাড়ির দরজা পায়ের উপর চেপে যায়। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য এএনআই)
তা সত্ত্বেও জেড প্লাস ক্যাটেগরির সুরক্ষাপ্রাপ্ত মুখ্যমন্ত্রীর নিরাপত্তায় যে বড়সড় ফাঁক ছিল বলে মত একাংশের। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য এএনআই)
7/7তা সত্ত্বেও জেড প্লাস ক্যাটেগরির সুরক্ষাপ্রাপ্ত মুখ্যমন্ত্রীর নিরাপত্তায় যে বড়সড় ফাঁক ছিল বলে মত একাংশের। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য এএনআই)
অন্য গ্যালারিগুলি