বাংলা নিউজ > ছবিঘর > মহিষাসুরমর্দিনী শুভশ্রী! দুর্গার নানা রূপে মিঠাই-শ্যামা-যমুনা; চিনতে পারলেন কি?

মহিষাসুরমর্দিনী শুভশ্রী! দুর্গার নানা রূপে মিঠাই-শ্যামা-যমুনা; চিনতে পারলেন কি?

জি বাংলায় এই বছরের মহালয়ার ভোরে পর্দায় মহিষাসুরমর্দিনী রূপে দেখা যাবে অভিনেত্রী শুভশ্রী গঙ্গোপাধ্যায়কে। আদ্যাশক্তির মহিমা পর্দায় ফুটিয়ে তুলবেন তিনি। সঙ্গে থাকবে দেবীর নানা রূপ, যাতে দেখা মিলবে জি বাংলার নায়িকাদের! মহালয়ার ভোরে আসছে 'নানারূপে ‘মহামায়া।

শুভের রক্ষায় তাঁর শান্ত শিবাণী রূপ, আবার দুষ্টের দমনে তাঁর রুদ্রাণী রূপ মহালয়ার ভোরে দেখা যাবে জি বাংলার পর্দায়। সমাপ্তিতে আসবে মহিষাসুরমর্দিনীর সেই চিরন্তন গাথা। আদ্যাশক্তির ভূমিকায় থাকছেন শুভশ্রী গঙ্গোপাধ্যায়। সব রূপের আদি রূপের নাম আদ্যাশক্তি। দেবী লাল পাড় সাদা শাড়ি পরিহিতা। 
1/10শুভের রক্ষায় তাঁর শান্ত শিবাণী রূপ, আবার দুষ্টের দমনে তাঁর রুদ্রাণী রূপ মহালয়ার ভোরে দেখা যাবে জি বাংলার পর্দায়। সমাপ্তিতে আসবে মহিষাসুরমর্দিনীর সেই চিরন্তন গাথা। আদ্যাশক্তির ভূমিকায় থাকছেন শুভশ্রী গঙ্গোপাধ্যায়। সব রূপের আদি রূপের নাম আদ্যাশক্তি। দেবী লাল পাড় সাদা শাড়ি পরিহিতা। 
অভিনেত্রী শুভশ্রী গঙ্গোপাধ্যায় আদ্যাশক্তির ভূমিকায়। দুটি হাত তাঁর ৷ তাঁর আরাধনা করলে মনে শুভশক্তির উন্মেষ হয়। অশুভ চক্রান্তের প্রভাব দূর হয়। শেষ অংশে দেখানো হবে দেবীর মহিষা মহিষাসুরমর্দিনী কাহানি। যেখানে শুভশ্রীকে মহিষাসুরমর্দ্দিনী রূপে দেখা যাবে।
2/10অভিনেত্রী শুভশ্রী গঙ্গোপাধ্যায় আদ্যাশক্তির ভূমিকায়। দুটি হাত তাঁর ৷ তাঁর আরাধনা করলে মনে শুভশক্তির উন্মেষ হয়। অশুভ চক্রান্তের প্রভাব দূর হয়। শেষ অংশে দেখানো হবে দেবীর মহিষা মহিষাসুরমর্দিনী কাহানি। যেখানে শুভশ্রীকে মহিষাসুরমর্দ্দিনী রূপে দেখা যাবে।
এদিন অন্নপূর্ণা রূপে দেখা যাবে ‘কড়ি খেলা’ ধারাবাহিকের পারমিতা মুখোপাধ্যায়কে। তিনি অন্নের দেবী। ত্রিলোকের মানুষ যখন ক্ষুধায় কষ্ট পায়, তখনই দেবী আবির্ভূত হন। দেবীর মায়ায় মহাদেবের ক্ষুধার জ্বালা এবং ভিক্ষুকরূপে দেবীর কাছে খাদ্যভিক্ষা করার কাহিনি বলা হয়েছে এ বারের গল্পে।
3/10এদিন অন্নপূর্ণা রূপে দেখা যাবে ‘কড়ি খেলা’ ধারাবাহিকের পারমিতা মুখোপাধ্যায়কে। তিনি অন্নের দেবী। ত্রিলোকের মানুষ যখন ক্ষুধায় কষ্ট পায়, তখনই দেবী আবির্ভূত হন। দেবীর মায়ায় মহাদেবের ক্ষুধার জ্বালা এবং ভিক্ষুকরূপে দেবীর কাছে খাদ্যভিক্ষা করার কাহিনি বলা হয়েছে এ বারের গল্পে।
‘যমুনা ঢাকি’ ধারাবাহিকের যমুনা ওরফে শ্বেতা ভট্টাচার্যকে ছিন্নমস্তা রূপে দেখা যাবে। দেবীর আরাধনা করলে সংসারে শান্তি ও শ্রী বৃদ্ধি হয়। ফসল বাড়ে ও বাণিজ্যে সাফল্য আসে। এই দেবীর রক্তবর্ণা মুক্তকেশী ভয়ঙ্কর রূপ।
4/10‘যমুনা ঢাকি’ ধারাবাহিকের যমুনা ওরফে শ্বেতা ভট্টাচার্যকে ছিন্নমস্তা রূপে দেখা যাবে। দেবীর আরাধনা করলে সংসারে শান্তি ও শ্রী বৃদ্ধি হয়। ফসল বাড়ে ও বাণিজ্যে সাফল্য আসে। এই দেবীর রক্তবর্ণা মুক্তকেশী ভয়ঙ্কর রূপ।
‘অপরাজিতা অপু’ ধারাবাহিকের অপু অর্থাৎ সুস্মিতা দে-কে মা কালী রূপে দেখা যাবে। মহাদেবের ভষ্ম থেকে তৈরি ঘোড়াসুরকে বধ করতে পার্বতী নেন ভয়ঙ্করী কালী রূপ। শ্যামবর্ণা, মুক্তকেশী, মুণ্ডমালা পরিহিতা এই দেবী মহাদেবের পায়ে অবস্থান করেন।
5/10‘অপরাজিতা অপু’ ধারাবাহিকের অপু অর্থাৎ সুস্মিতা দে-কে মা কালী রূপে দেখা যাবে। মহাদেবের ভষ্ম থেকে তৈরি ঘোড়াসুরকে বধ করতে পার্বতী নেন ভয়ঙ্করী কালী রূপ। শ্যামবর্ণা, মুক্তকেশী, মুণ্ডমালা পরিহিতা এই দেবী মহাদেবের পায়ে অবস্থান করেন।
ললিতা ত্রিপুরাসুন্দরী রূপে দেখা যাবে 'জীবন সাথী' ধারাবাহিকের ঝিলম অর্থাৎ শ্রাবণী ভুঁইয়াকে। দেবীর সৃষ্টি হয় ভণ্ডাসুর এবং তাঁর ছেলেদের বধ করতে। তাঁর আরাধনায় শত্রু বশ হয়৷ সংসারে শান্তি আসে। 
6/10ললিতা ত্রিপুরাসুন্দরী রূপে দেখা যাবে 'জীবন সাথী' ধারাবাহিকের ঝিলম অর্থাৎ শ্রাবণী ভুঁইয়াকে। দেবীর সৃষ্টি হয় ভণ্ডাসুর এবং তাঁর ছেলেদের বধ করতে। তাঁর আরাধনায় শত্রু বশ হয়৷ সংসারে শান্তি আসে। 
'মিঠাই' ধারাবাহিকের মিঠাই অর্থাৎ সৌমিতৃষা কুণ্ডুকে দেখা যাবে দেবী দুর্গার কমল কামিনী রূপে। দেবী কমলে কামিনীর কাহিনি আমরা পাই চণ্ডীমঙ্গলে। গল্পে বর্ণিত হবে পিতা ধনপতি এবং পুত্র শ্রীমন্তর সঙ্গে দেবীর লীলার গল্প। তিনি সমগ্র প্রাণীজগত এবং বনভূমিকে রক্ষা করেন।
7/10'মিঠাই' ধারাবাহিকের মিঠাই অর্থাৎ সৌমিতৃষা কুণ্ডুকে দেখা যাবে দেবী দুর্গার কমল কামিনী রূপে। দেবী কমলে কামিনীর কাহিনি আমরা পাই চণ্ডীমঙ্গলে। গল্পে বর্ণিত হবে পিতা ধনপতি এবং পুত্র শ্রীমন্তর সঙ্গে দেবীর লীলার গল্প। তিনি সমগ্র প্রাণীজগত এবং বনভূমিকে রক্ষা করেন।
'রিমলি' ধারাবাহিকের ইধিকা পাল-কে পর্দায় দেখা যাবে দেবী চামুণ্ডা রূপে।
8/10'রিমলি' ধারাবাহিকের ইধিকা পাল-কে পর্দায় দেখা যাবে দেবী চামুণ্ডা রূপে।
'কৃষ্ণকলি' ধারাবাহিকের শ্যামা অর্থাৎ তিয়াসা রায়কে দেখা যাবে দেবী কৌশিকি রূপে। শুম্ভ, নিশুম্ভ এবং রক্তবীজের মতো অসুরকে মারতে দেবী কৌশিকীর আবির্ভাব হয়৷ এই দেবী ব্রহ্মরূপিণী শুভ্রবর্ণা, অষ্টভুজা।
9/10'কৃষ্ণকলি' ধারাবাহিকের শ্যামা অর্থাৎ তিয়াসা রায়কে দেখা যাবে দেবী কৌশিকি রূপে। শুম্ভ, নিশুম্ভ এবং রক্তবীজের মতো অসুরকে মারতে দেবী কৌশিকীর আবির্ভাব হয়৷ এই দেবী ব্রহ্মরূপিণী শুভ্রবর্ণা, অষ্টভুজা।
মিঠাই-এর ঐন্দ্রিলা সাহাকে দেখা যাবে দেবীর এক বিশেষ রূপে। দেবীর ললিতা ত্রিপুরেশ্বরী রূপের কুমারী নাম বালা ত্রিপুরাসুন্দরী। এই রূপে দেখা যাবে 'মিঠাই'-এর নিপা অর্থাৎ ঐন্দ্রিলাকে। ৬ অক্টোবর ভোর ৫ টায় চোখ রাখতে হবে জি বাংলার পর্দায়।
10/10মিঠাই-এর ঐন্দ্রিলা সাহাকে দেখা যাবে দেবীর এক বিশেষ রূপে। দেবীর ললিতা ত্রিপুরেশ্বরী রূপের কুমারী নাম বালা ত্রিপুরাসুন্দরী। এই রূপে দেখা যাবে 'মিঠাই'-এর নিপা অর্থাৎ ঐন্দ্রিলাকে। ৬ অক্টোবর ভোর ৫ টায় চোখ রাখতে হবে জি বাংলার পর্দায়।
অন্য গ্যালারিগুলি