বাংলা নিউজ > ময়দান > মহামারীর মাঝেই মাঠে ৭৮ হাজার দর্শক, করোনা আতঙ্ক অস্ট্রেলিয়ায়!
ভিড়ে ঠাসা মেলবোর্ন স্টেডিয়াম (ছবি:গেটি ইমেজ)
ভিড়ে ঠাসা মেলবোর্ন স্টেডিয়াম (ছবি:গেটি ইমেজ)

মহামারীর মাঝেই মাঠে ৭৮ হাজার দর্শক, করোনা আতঙ্ক অস্ট্রেলিয়ায়!

  • রবিবার মেলবোর্ন ক্রিকেট গ্রাউন্ডে, অস্ট্রেলিয়ান ফুটবল লিগে মুখোমুখি হয়েছিল কলিংউড ও এসেনডোন। সেখানেই ম্যাচ দেখতে ভিড় জমান ৭৮,১১৩ জন ফুটবল প্রেমী। করোনার মাঝে যা এমুহূর্তে এক ধরনের দুশ্চিন্তার রেকর্ড। 

করোনা মহামারীর মাঝেই অস্ট্রেলিয়ার ফুটবল প্রেমীরা বড় ভুল করে বসলেন। করোনা আতঙ্ককে তোয়াক্কা না করেই মেলবোর্ন ক্রিকেট গ্রাউন্ডে অস্ট্রেলিয়ান ফুটবল লিগ দেখতে ভিড় করলেন ৭৮ হাজারের বেশি দর্শক। যা নিয়ে চিন্তিতো সমগ্র ক্রীড়ামহল। 

রবিবার মেলবোর্ন ক্রিকেট গ্রাউন্ডে, অস্ট্রেলিয়ান ফুটবল লিগে মুখোমুখি হয়েছিল কলিংউড ও এসেনডোন। সেখানেই ম্যাচ দেখতে ভিড় জমান ৭৮,১১৩ জন ফুটবল প্রেমী। করোনার মাঝে যা এমুহূর্তে এক ধরনের দুশ্চিন্তার রেকর্ড। এর আগে করোনা আতঙ্কের মধ্যেই আমেদাবাদে ভারত ও ইংল্যান্ডের টি-২০ ক্রিকেট ম্যাচ দেখতে এসেছিলেন ৬৭০০০ মানুষ। 

বর্তমানে বিশ্ব জুরে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ আছড়ে পড়ছে। সেকানে ভারতের ছবিটা সকল দেশকেই আতঙ্কিত করছে। বিশ্বের বহু দেশ নিজেরা আগে ভাগেই নিজেদেরকে সতর্ক করছেন। এমন অবস্থায় উল্টো পথে হাটছে অস্ট্রেলিয়া। 

একটা খেলাকে কেন্দ্র করে একটা স্টেডিয়ামে ভিড় করলেন ৭৮,১১৩ জন মানুষ। এই ছবি দেখার পরে সকলেই চিন্তা ব্যক্ত করছেন। অনেকে ভারতের উদাহরণ টেনে ভারতের ব্যাপক আকারে করোনা ছড়িয়ে পরার কথাও মনে করিয়ে দিয়েছেন। তাহলে কি এবার অস্ট্রেলিয়াতেও করোনার প্রকোপ বাড়তে পারে! 

আসলে ২৫শে এপ্রিল অস্ট্রেলিয়া ফুটবল লিগে (ANZAC Day) এনজ্যাক দিবস হিসাবে পালন করা হয়। এখানে ভিক্টোরিয়া স্টেট গভর্মেন্টের তরফ থেকে মেলবোর্ন ক্রিকেট গ্রাউন্ডকে ৮০ শতাংশ ভড়িয়ে ফেলার অনুমতি দেওয়া হয়। স্টেডিয়ামে ১লক্ষ দর্শক এক সঙ্গে খেলা দেখতে পারেন। এমন অনুমতিতে সকল ফুটবল দর্শক বাড়ি থেকে বেরিয়ে আসেন, এবং স্টেডিয়ামে ভিড় করেন।  

 

বন্ধ করুন